× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য পডকাস্ট আমাদের সম্পর্কে যোগাযোগ প্রাইভেসি পলিসি

খেলা
Rupayaan Group welcomed the clean champions
hear-news
player
google_news print-icon

পরিশ্রম ও ত্যাগের কারণেই দল আজ দক্ষিণ এশিয়ার সেরা: ছোটন

পরিশ্রম-ও-ত্যাগের-কারণেই-দল-আজ-দক্ষিণ-এশিয়ার-সেরা-ছোটন-
সাফজয়ী নারী ফুটবলারদের সংবর্ধনা। ছবি: নিউজবাংলা
সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে নারী দল ও সাফ নিয়ে নিজেদের অভিজ্ঞতার কথা জানান বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের সহ-অধিনায়ক মারিয়া মান্ডা ও কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন।

নারী ফুটবলার পরিশ্রম ও ত্যাগের কারণেই বাংলাদেশ বর্তমানে দক্ষিণ এশিয়ার সেরা দল। সন্ধ্যায় এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এমনটা বলেছেন, জাতীয় দলের হেড কোচ গোলাম রাব্বানী ছোটন।

বুধবার সাফ নারী ফুটবল চ্যাম্পয়নশিপ ২০২২ এর অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন নারী দলকে সংবর্ধনা দেয় উত্তরা রূপায়ণ সিটি।

রাজধানীর উত্তরার রূপায়ণ সিটিতে সন্ধ্যায় এ আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রী জনাব মো. জাহিদ আহসান রাসেল। আরও উপস্থিত ছিলেন রূপায়ণ গ্রুপের প্রধান লিয়াকত আলী খান মুকুল।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে নারী দল ও সাফ নিয়ে নিজেদের অভিজ্ঞতার কথা জানান বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের সহ-অধিনায়ক মারিয়া মান্ডা ও কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন।

সাফ জয় করে দেশের ফেরার পর থেকে নারী দল ভাসছে পুরস্কার ও সংবর্ধনায়। দলের ফুটবলারদের জন্য এটি অনুপ্রেরণার মনে করেন ছোটন।

তিনি বলেন, ‘এমন একটি সংবর্ধনা থেকে মেয়েরা অনুপ্রাণিত হবে। আরও এগিয়ে যাওয়ার উৎসাহ পাবে। এখানে যারা উপস্থিত সবাইকে আমি সবাইকে বলতে চাই, এ অর্জন আমাদের জন্য সহজ ছিল না। ফুটবল ফেডরেশনে সবার সহযোগিতায় আজ আমরা এটা অর্জন করতে পেরেছি।

‘মেয়েরা কঠোর অনুশীলন করেছেন। অনেক কিছু ত্যাগ করেছে। কষ্ট ও ত্যাগের পরই আমাদের এ অর্জন এসেছে। আমরা এখন দক্ষিণ এশিয়ার সেরা দল।’

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের নারী ফুটবলারদের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন অতিথিরা। অনুষ্ঠানে রূপায়ণ গ্রুপের পক্ষ থেকে ৩০ লাখ দেয়া হয় নারী ফুটবলারদের।

আরও পড়ুন:
ট্রফি উঁচিয়ে নিজ শহরে সাবিনা
খেলোয়াড়দের বাড়ির ছাদ তৈরির আহ্বান শিরিনের
সাফজয়ী আঁখির বাড়িতে পুলিশ: এসআই-কনস্টেবল প্রত্যাহার
বেতন বাড়ছে সাবিনা-কৃষ্ণাদের
মনে হয় শেখ হাসিনা ক্যাপ্টেন ছিলেন: মান্না

মন্তব্য

আরও পড়ুন

খেলা
Bangladeshi Brazil fans on FIFA Twitter

ফিফার টুইটে এবার বাংলাদেশে ব্রাজিল উদযাপন

ফিফার টুইটে এবার বাংলাদেশে ব্রাজিল উদযাপন ফিফার পোস্ট করা ছবির একটি। ছবি: টুইটার
ফিফা তাদের টুইটারে ব্রাজিল ও সুইজারল্যান্ডের ম্যাচের সময় তোলা চারটি ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছে, ‘ফুটবলের মতো কোনো কিছুই এত মানুষকে এক করতে পারে না। সুইজাল্যান্ডকে ব্রাজিলের হারিয়ে দেয়ার মুহূর্তটি উপভোগে গতরাতে ঢাকায় বিপুল জনসমাগম হয়েছিল।’

কাতার বিশ্বকাপেও বাংলাদেশ নেই। কিন্তু না থেকেও ফিফার আলোচনায় প্রতিদিনই উঠে আসছে বাংলাদেশের নাম। এইতো কিছু দিন আগেই বেসরকারি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশ্বকাপের ম্যাচের উন্মাদনা নিজেদের অফিসিয়াল টুইটারে পোস্ট করেছিল বিশ্ব ফুটবল সংস্থা।

সেই ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই আরও একবার বাংলাদেশের ফুটবলপ্রেমীরা নজর কাড়ল ফিফার। এর আগে আর্জেন্টিনা বনাম ম্যাক্সিকোর ম্যাচের দৃশ্য ভাইরাল হলেও এবারে হয়েছে ব্রাজিল ও সুইজারল্যান্ডের মধ্যকার ম্যাচের সময়কার খণ্ড মুহূর্ত।

ফিফা তাদের টুইটারে ব্রাজিল ও সুইজারল্যান্ডের ম্যাচের সময় তোলা চারটি ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছে, ‘ফুটবলের মতো কোনো কিছুই এত মানুষকে এক করতে পারে না। সুইজাল্যান্ডকে ব্রাজিলের হারিয়ে দেয়ার মুহূর্তটি উপভোগে গতরাতে ঢাকায় বিপুল জনসমাগম হয়েছিল।’

দিন দুয়েক আগে একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে জায়ান্ট স্ক্রিনে খেলার দেখার ভিডিও শেয়ার করে ফিফা। টুইটারে ভিডিওটি ১২ লাখেরও বেশি মানুষ দেখে।

ফিফা ভিডিওটি শেয়ার করে ক্যাপশনে লিখে, ‘এটাই ফুটবলের শক্তি।’

এর আগে ২০১৮ সালেও রাশিয়া বিশ্বকাপেও ফিফার ভেরিফাড ফেসবুক পেজে স্বীকৃতি পেয়েছিল বাংলাদেশি সমর্থকদের উন্মাদনার ছবি।

আরও পড়ুন:
ব্রাজিলের জয়ে জগন্নাথে বাঁধভাঙা উল্লাস
আর্জেন্টিনার খেলা নিয়ে বন্ধুকে খুন
কাসেমিরোর গোলে শেষ ষোলোতে ব্রাজিল
দুই পরিবর্তন নিয়ে মাঠে ব্রাজিল

মন্তব্য

খেলা
Tite missed Neymar

নেইমারকে মিস করেছেন তিতে

নেইমারকে মিস করেছেন তিতে ফাইল ছবি
নেইমারের অভাবটা সুইসদের বিপক্ষে বেশ ভালোভাবেই টের পেয়েছেন ব্রাজিলের কোচ তিতে। ম্যাচশেষে সংবাদ সম্মেলনে নেইমারকে ম্যাচজুড়ে মিস করেছেন বলেও জানিয়েছেন।

সার্বিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের সময় গোড়ালিতে চোট পেয়েছিলেন নেইমার। সেই ইনজুরি তাকে ছিটকে দিয়েছে বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বের ম্যাচ থেকে। আর সে কারণেই নেইমারকে ছাড়াই নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে শক্তিশালী সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে মাঠে নামে সেলেসাওরা।

মাঠে নেইমারের অনুপস্থিতি চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে ব্রাজিলের বেহাল দশা। যেখানে বিপুল আধিপত্য দেখিয়ে জয় বাগিয়ে নেয়ার কথা ছিল, সেখানে মিলেছে ১-০ গোলের জয়।

নেইমারের অভাবটা সুইসদের বিপক্ষে বেশ ভালোভাবেই টের পেয়েছেন ব্রাজিলের কোচ তিতে। ম্যাচশেষে সংবাদ সম্মেলনে নেইমারকে ম্যাচজুড়ে মিস করেছেন বলেও জানিয়েছেন।

তিতে বলেন, ‘নেইমারের স্কিল সম্পূর্ণ আলাদা। একজন থেকে আরেকজনে ড্রিবল করে কাটিয়ে যেতে পারে, তার সেই জাদুকরী স্কিল আছে। অন্য খেলোয়াড়রাও নেইমারের পর্যায়ে যাচ্ছে, আশা করি তারা যেতে পারবে। তবে আমরা নেইমারকে মিস করেছি, করারই কথা।’

তবে নেইমারের অভাব দলের বাকিরা খুব একটা বুঝতে দেননি বলেও জানান তিনি।

তিতে বলেন, ‘তার একটি বড় সৃজনশীল শক্তি আছে, সে খুবই আক্রমণাত্মক, আমরা তাকে মিস করি। তবে সেখানে অন্য খেলোয়াড়দের আমরা শুরুতে দেখেছি যারা সুযোগটি নিয়েছে।’

ফ্রান্সের পর দ্বিতীয় দল হিসেবে বিশ্বকাপের নক আউট নিশ্চিত করলেও জয় পেতে বেশ বেগ পেতে হয়েছে তিতে শীষ্যদের। পুরো ম্যাচজুড়ে সুইসদের জালে আক্রমণ চালালেও গোলের দেখা মেলে তাদের ম্যাচের ৮৩তম মিনিটে গিয়ে।

নিজেদের শেষ ম্যাচে ব্রাজিল লড়বে ক্যামেরুনের বিপক্ষে। ৩ ডিসেম্বর মাঠে গড়াবে ম্যাচটি।

মন্তব্য

খেলা
Jagannath rejoices over the victory of Brazil

ব্রাজিলের জয়ে জগন্নাথে বাঁধভাঙা উল্লাস

ব্রাজিলের জয়ে জগন্নাথে বাঁধভাঙা উল্লাস ব্রাজিলের জয়ে আনন্দিত সমর্থকরা। ছবি: নিউজবাংলা
ব্রাজিল সমর্থক ইউছুব ওসমান বলেন, ব্রাজিলের খেলা মানেই নান্দনিক ফুটবল, শৈল্পিক খেলা, চোখের শান্তি আর ফুটবলের সৌন্দর্য। আজকের খেলাটা খুবই উপভোগ করেছি।

নেইমারহীন ব্রাজিলকে গোলের জন্য সংগ্রাম করতে হলো বেশ। আক্রমণের খেলোয়াড়দের হতাশার দিনে ত্রাতার ভূমিকায় অবতীর্ণ হলেন কাসেমিরো। এই অভিজ্ঞ মিডফিল্ডারের গোলে দোহার স্টেডিয়াম ৯৭৪-এ সোমবার ‘জি’ গ্রুপের ম্যাচে সুইজারল্যান্ডকে ১-০ গোলে হারিয়েছে সাবেক বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা।

শেষ ষোলো নিশ্চিত হয়ে গেছে তিতের দলের। এই জয়ে বাঁধভাঙা উল্লাসে মেতেছে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (জবি) ক্যাম্পাস। আনন্দ মিছিল, প্রিয় দলের স্লোগানে জয় উদযাপন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্রাজিল সমর্থক শিক্ষার্থীরা। ষষ্ঠবারের মতো বিশ্বকাপ ট্রফি ব্রাজিলের হবে বলে আশাবাদী জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্রাজিল সমর্থকরা।

ব্রাজিল সমর্থক ইউছুব ওসমান বলেন, ব্রাজিলের খেলা মানেই নান্দনিক ফুটবল, শৈল্পিক খেলা, চোখের শান্তি আর ফুটবলের সৌন্দর্য। ছোটবেলা থেকেই আমি ব্রাজিলের সমর্থক। শৈল্পিক ফুটবল দেখে আসছি। আজকের খেলাটা খুবই উপভোগ করেছি। নেইমারকে মিস করছি। তবে দলগত খেলায় ব্রাজিল দুর্দান্ত। জয় আমাদের হয়েছে, বিশ্বকাপও আমাদেরই হবে।

ব্রাজিলের ভক্ত মেহেরাব হোসেন অপি বলেন, নেইমার ইনজুরিতে পড়ায় একটু মন খারাপ হয়েছিল। ব্রাজিলের সবাই তারকা খেলোয়াড়, সে কথা আজকের খেলায় আবারও প্রমাণিত হয়েছে। এবারের ব্রাজিল দলটা অনেক ভালো। এই আসরে সবার থেকে এগিয়ে তারা। বিশ্বকাপটা এবার ব্রাজিলের হাতেই উঠবে।

ব্রাজিল সমর্থক বিথী রানী মণ্ডল বলেন, 'এবারের আসরে ব্রাজিল সবার থেকে এগিয়ে। খেলাটা অসাধারণ ছিল। প্রতিটি খেলোয়াড় নিজেদের সর্বোচ্চ দিয়ে খেলেছে। আমরা জয়লাভ করেছি, এটাই বড় কথা। ঈশ্বরের কাছে নেইমারের দ্রুত সুস্থতা কামনা করছি। পরের ম্যাচগুলো প্রিয় দল ব্রাজিল আরও ভালো খেলবে বলে আশা করছি।'

আর্জেন্টিনার সমর্থক তবে ব্রাজিলের ম্যাচে সুইজারল্যান্ডের সমর্থন করা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের শিক্ষার্থী মো. মেহেদী হাসান বলেন, 'আজকের খেলায় আমি মন থেকে চেয়েছিলাম ব্রাজিল জয় পাক। ব্রাজিলের মতো দল বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেলে বিশ্বকাপ আমেজ হারাবে। আমরা ব্রাজিলের সঙ্গে খুব ভালো খেলেই জয়লাভ করব বলে আশাবাদী।'

আরও পড়ুন:
দুই পরিবর্তন নিয়ে মাঠে ব্রাজিল
ঘানার জয়ে কোরিয়ার নক আউট স্বপ্নে হোঁচট
ছয় গোলের রোমাঞ্চ উপহার দিল সার্বিয়া ও ক্যামেরুন
যুক্তরাষ্ট্রকে বিশ্বকাপ থেকে বের করে দেয়ার আহ্বান ইরানের
যে স্টেডিয়ামে ব্রাজিল-সুইজারল্যান্ড ম্যাচ

মন্তব্য

খেলা
Before the match Messi was warned by the Polish defender

ম্যাচের আগে মেসিকে পোলিশ ডিফেন্ডারের হুঁশিয়ারি

ম্যাচের আগে মেসিকে পোলিশ ডিফেন্ডারের হুঁশিয়ারি বল দখলের লড়াই করছেন লিওনেল মেসি। ছবি: এএফপি
আর্জেন্টিনার সামনে এই ম্যাচে জয় ভিন্ন পথ খোলা নেই। যদি পোলিশদের বিপক্ষে ড্র হয়, তবে আর্জেন্টিনাকে যেতে হবে কঠিন সমীকরণের মধ্য দিয়ে। অন্যদিকে পোল্যান্ডের শেষ ম্যাচটি ড্র করলেও চলবে।

জমে উঠেছে বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বের লড়াই। ইতোমধ্যেই ফ্রান্স, ব্রাজিল ও পর্তুগাল নিশ্চিত করেছে নক আউট পর্ব। এদিকে লাতিন আমেরিকার হট ফেভারিট আর্জেন্টিনার ভাগ্য ঝুলে আছে নিজেদের শেষ ম্যাচের ওপর।

গ্রুপপর্বের শেষ ম্যাচে ইউরোপিয়ান জায়ান্ট পোল্যান্ডের বিপক্ষে জয় পেলেই লিওনেল মেসিদের মিলবে শেষ ১৬-এর টিকিট।

আর্জেন্টিনার সামনে এই ম্যাচে জয় ভিন্ন পথ খোলা নেই। যদি পোলিশদের বিপক্ষে ড্র হয়, তবে আর্জেন্টিনাকে যেতে হবে কঠিন সমীকরণের মধ্য দিয়ে। অন্যদিকে পোল্যান্ডের শেষ ম্যাচটি ড্র করলেও চলবে।

শেষ ১৬-এর দৌড়ে টিকে থাকার সেই ম্যাচে বুধবার মাঠে নামবে আর্জেন্টিনা।

আর্জেন্টিনার বাঁচা-মরার সেই ম্যাচের আগে লিওনেল মেসিকে রীতিমতো হুঁশিয়ারি দিয়ে রাখলেন পোল্যান্ডের ডিফেন্ডার মেতুজ ভিতেজকা। মেসিকে আটকানোর মন্ত্র খুঁজে পেয়েছেন বলে সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন তিনি।

মেসির পায়ে এক সেকেন্ডের জন্যও বল রাখতে দিতে নারাজ পোলিশ এই ডিফেন্ডার। ম্যাচের দিন সেই প্রচেষ্টাই চালাবে সবাই মিলে এমনটাই জানান তিনি।

মেতুজ বলেন, ‘ওর খেলার ধরন সম্পর্কে আমরা জানি। আমরা এই ম্যাচে ভালো প্রস্তুতি নিয়েই নামব৷ আবারও বলছি, এই ম্যাচে আমাদের কাজই হবে মেসির পায়ে এক সেকেন্ডও বল রাখতে না দেয়া।’

তিনি আরও বলেন, ‘এটাতে কোনো সন্দেহ নেই যে মেসি বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড়৷ তার খুব কাছাকাছি আপনাকে থাকতে হবে আর তাকে কোনো জায়গা দেয়া যাবে না। সে এমন একজন খেলোয়াড় যে সব সময়ে সুযোগ তৈরি করার চেষ্টা করতে থাকে। তাকে আটকানোর জন্য প্রতি মিনিটে আপনার নজর রাখতে হবে।’

আরও পড়ুন:
উরুগুয়েকে শঙ্কায় ফেলে শেষ ষোলোতে পর্তুগাল
কাসেমিরোর গোলে শেষ ষোলোতে ব্রাজিল
ঘানার জয়ে কোরিয়ার নক আউট স্বপ্নে হোঁচট
ছয় গোলের রোমাঞ্চ উপহার দিল সার্বিয়া ও ক্যামেরুন

মন্তব্য

খেলা
Portugal in the last 16 by putting Uruguay in danger

উরুগুয়েকে শঙ্কায় ফেলে শেষ ষোলোতে পর্তুগাল

উরুগুয়েকে শঙ্কায় ফেলে শেষ ষোলোতে পর্তুগাল রোনালডোর গোল উদযাপন। ছবি: এএফপি
২-০ গোলে পর্তুগালের বিপক্ষে হারতে হয়েছে উরুগুয়েকে। এতে করে বিশ্বকাপের শেষ ষোলো নিশ্চিত হলো ক্রিশ্চিয়ানো রোনালডোর দলের। অন্যদিকে হারের কারণে এখন পর্তুগালের শঙ্কা রয়েছে দ্বিতীয় রাউন্ডে খেলা নিয়ে। নিজেদের শেষ ম্যাচে ঘানাকে হারাতে না পারলে সেখানেই শেষ হয়ে যাবে লুইস সুয়ারেজ-কাভানিদের বিশ্বকাপ মিশন।

উরুগুয়ের বিপক্ষে পর্তুগালের ম্যাচটা পর্তুগিজদের জন্য খুব একটা চিন্তার কারণ না হলেও অনেকটাই ডু অর ডাই ছিল উরুগুইয়ানদের জন্য। কিন্তু নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচেও জয়ের দেখা পেল না দুইবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা।

২-০ গোলে পর্তুগালের বিপক্ষে হারতে হয়েছে তাদের। এতে করে বিশ্বকাপের শেষ ষোলো নিশ্চিত হলো ক্রিশ্চিয়ানো রোনালডোর দলের। অন্যদিকে হারের কারণে এখন পর্তুগালের শঙ্কা রয়েছে দ্বিতীয় রাউন্ডে খেলা নিয়ে। নিজেদের শেষ ম্যাচে ঘানাকে হারাতে না পারলে সেখানেই শেষ হয়ে যাবে লুইস সুয়ারেজ-কাভানিদের বিশ্বকাপ মিশন।

উরুগুয়ের বিপক্ষে বেশ কিছু পরিবর্তন এনে দল সাজান পর্তুগালের কোচ ফার্নান্দো সান্তোস। আগের ৫ ম্যাচে জয় পেতে কিছুটা বেগ পেতে হলেও এই ম্যাচের শুরু থেকেই উরুগুয়েকে চেপে ধরে রোনালডো অ্যান্ড কোং।

বারবার আক্রমণে গিয়েও শেষ পর্যন্ত সফলতার মুখ দেখছিলেন না রোনালডো। ১৮ মিনিটের মাথায় বক্সের বাইরে থেকে ফ্রিকিক নেন রোনালডো। কিন্তু সেই শট কর্নার হয়ে গেলে সুযোগ হাতছাড়া হয় পর্তুগিজদের।

প্রথমার্ধের বেশির ভাগ সময় বল নিজেদের দখলে রেখেছিল পর্তুগাল। অন্যদিকে উরুগুয়ে বল পেলেই বের করে আনার চেষ্টা করছিল কাঙ্ক্ষিত গোল। কিন্তু প্রথমার্ধে গোলের দেখা মেলেনি কারোই।

বিরতি থেকে ফিরে আক্রমণের ধার বাড়ায় পর্তুগিজরা। আর সেই সুবাদে ৫৪ মিনিটের মাথায় ডেডলক ভাঙেন ব্রুনো ফার্নান্দেজ।

গোল হজম করে ম্যাচে ফিরতে মরিয়া হয়ে পড়ে উরুগুয়ে। ম্যাচের শুরু থেকে সুয়ারেজ একাদশে না থাকলেও ৭৩তম মিনিটে মাঠে নামেন তিনি। আর নেমেই চলে যান সরাসরি আক্রমণে।

বেশ কিছু সুযোগ সৃষ্টি হলেও ফিনিশিংয়ের অভাবে মিলছিল না গোল। উল্টো অতিরিক্ত সময়ের তৃতীয় মিনিটে আরও এক গোল হজম করে বসে উরুগুয়ে।

নিজেদের ডি বক্সের ভেতর পর্তুগালের এক ফুটবলারকে শুয়ে পড়ে ট্যাকল করতে গিয়ে হাতে বল লাগান জিমেনেজ। আর তাতেই পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। সেখান থেকে সফল স্পট কিকে ব্যবধান দুই গুণের পাশাপাশি জয় সুনিশ্চিত করে পর্তুগাল।

আরও পড়ুন:
কাসেমিরোর গোলে শেষ ষোলোতে ব্রাজিল
ঘানার জয়ে কোরিয়ার নক আউট স্বপ্নে হোঁচট
ছয় গোলের রোমাঞ্চ উপহার দিল সার্বিয়া ও ক্যামেরুন

মন্তব্য

খেলা
Brazil in the last sixteen with the goal of Casemiro

কাসেমিরোর গোলে শেষ ষোলোতে ব্রাজিল

কাসেমিরোর গোলে শেষ ষোলোতে ব্রাজিল দলের হয়ের জয়সূচক গোল করছেন ব্রাজিলের মিডফিল্ডার কাসেমিরো। ছবি: টুইটার
সুইজারল্যান্ডকে ১-০ গোলে হারিয়ে বিশ্বকাপের শেষ ১৬ নিশ্চিত করেছে ব্রাজিল। দলের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন কাসেমিরো।

ফ্রান্সের পর দ্বিতীয় দল হিসেবে কাতার বিশ্বকাপের নক আউটে পোঁছে গেছে ব্রাজিল। টানা দ্বিতীয় জয়ে এমন কৃতিত্ব অর্জন করল সেলেকাওরা।

গ্রুপ-এফের ম্যাচে সুইজারল্যান্ডকে ১-০ গোলে হারিয়ে বিশ্বকাপের শেষ ১৬ নিশ্চিত করেছে ব্রাজিল। দলের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন কাসেমিরো।

সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে এটি ছিল বিশ্বকাপে ব্রাজিলের প্রথম জয়। এর আগে দুই দলের দুটি ম্যাচ ড্র হয়েছিল।

কাতারের নাইন সেভেন্টিফোর স্টেডিয়ামে জয়সূচক গোলের জন্য একেবারে শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত অপেক্ষায় থাকতে হয় ব্রাজিলিয়ানদের। ম্যাচের ৮৩ মিনিটে গোল করে দলের জয় নিশ্চিত করেন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের অভিজ্ঞ মিডফিল্ডার কাসেমিরো।

সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচের শুরুটা ভালো হয়নি ব্রাজিলের। ইনজুরির কারণে দলের সেরা তারকা নেইমার খেলতে পারেননি। ছিলেন না ডিফেন্ডার দানিলোও।

প্রথমার্ধে বেশ কয়েকবার চেষ্টা করলেও গোলমুখ খুলতে পারেনি তারা। অন্যদিকে বেশ কয়েকবার ব্রাজিলের দুর্গে হানা দিয়েছে সুইজারল্যান্ড। তবে গোলের দেখা পায়নি তারাও।

বরাবরের মতো আক্রমণাত্মক শুরু করে ব্রাজিল। ১৯ মিনিটে প্রথম সুযোগ তৈরি করে তারাই। লুকাস পাকেতার ফ্লিকে খুব ভালো জায়গায় বল পেয়ে যান রিচার্লিসন। একটুর জন্য তিনি ডি-বক্সে ভিনিসিউস জুনিয়রকে বল পাঠাতে পারেননি। ঠাণ্ডা মাথায় ক্লিয়ার করেন নিকো এলভেদি।

ম্যাচের ২৭তম মিনিটে ভিনিসিয়াস দারুণ চেষ্টা করেন। সুইস গোলের কাছে পৌঁছে গিয়েছিলেন তিনি। তার দুর্বল শট ঠেকিয়ে দলকে নিরাপদে রাখেন সুইজারল্যান্ডের গোলকিপার ইয়ান সমার।

৪৩তম মিনিটে বক্সের ভেতর রাফিনিয়া হেড করলেও লক্ষ্যভেদ করতে পারেননি। এতে করে গোলশূন্য থেকেই বিরতিতে যায় দল দুটি।

কাসেমিরোর গোলে শেষ ষোলোতে ব্রাজিল
ব্রাজিলের আক্রমণ ঠেকিয়ে দিচ্ছেন সুইজারল্যান্ডের গোলকিপার ইয়ান সমার। ছবি: এএফপি




দ্বিতীয়ার্ধের খেলা শুরু হলে আক্রমণের ধার বাড়ায় ব্রাজিল। ৫৫তম মিনিটে আরও একবার সুযোগ পায় সেলেকাওরা। এবার বল পেয়ে শট নিতে পারেননি রিচার্লিসন।

অবশেষে সুইসদের রক্ষণ ভেদ করে বল জালে জড়াতে সক্ষম হয় ব্রাজিল ৬৩ মিনিটে। কাসেমিরোর পাস থেকে গোল করেন ভিনিসিয়াস।

তবে অফসাইডের কারণে গোল বাতিল হয়ে গেলে আবারও নতুন করে শুরু করতে হয় পাঁচবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের। সুইজারল্যান্ডকে প্রেস করে মাঠের দখল নেয়ার সুফলটা এর কিছুক্ষণের মধ্যে পায় ব্রাজিল।

৮৩তম মিনিটে ব্রাজিলের হয়ে জয়সূচক গোলটি করেন কাসেমিরো। ভিনিসিয়াসের থেকে বল পেয়ে যান রদ্রিগো। তার বাড়ানো বলে চমৎকার শটে লক্ষ্যভেদ করেন কাসেমিরো।

ম্যাচ শেষ হওয়ার চার মিনিট আগে ব্যবধান বাড়ানোর সুযোগ পেয়েছিল ব্রাজিল। তবে রদ্রিগোর দুর্বল শট লক্ষ্যভেদ করতে না পারলে শেষ পর্যন্ত ১-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে তিতের দল।

নিজেদের শেষ ম্যাচে শুক্রবার রাত একটায় ক্যামেরুনের মুখোমুখি হবে ব্রাজিল। আর একই দিন সার্বিয়া খেলবে সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে।

আরও পড়ুন:
সুইসদের বিপক্ষে প্রথমার্ধে গোল পায়নি ব্রাজিল
দুই পরিবর্তন নিয়ে মাঠে ব্রাজিল
ঘানার জয়ে কোরিয়ার নক আউট স্বপ্নে হোঁচট

মন্তব্য

খেলা
Brazil did not score in the first half

সুইসদের বিপক্ষে প্রথমার্ধে গোল পায়নি ব্রাজিল

সুইসদের বিপক্ষে প্রথমার্ধে গোল পায়নি ব্রাজিল ব্রাজিলের আক্রমণ প্রতিহত করছেন সুইজারল্যান্ডের গোলকিপার ইয়ান সমার। ছবি: এএফপি
ম্যাচের শুরুটা ভালো হয়নি ব্রাজিলের। বেশ কয়েকবার চেষ্টা করলেও গোলমুখ খুলতে পারেনি তারা। অন্য দিকে বেশ কয়েকবার ব্রাজিলের দূর্গে হানা দিচ্ছে সুইজারল্যান্ড।

ফিফা বিশ্বকাপের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে দলের সুপারস্টার নেইমারের অনুপস্থিতি কিছুটা হলেও টের পাচ্ছে ব্রাজিল। সুইজারল্যান্ড এর বিপক্ষে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে প্রথমার্ধের খেলা শেষে গোলের দেখা পায়নি পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল।

কাতারের নাইন সেভেন্টিফোর স্টেডিয়ামে ম্যাচের শুরুটা ভালো হয়নি ব্রাজিলের। বেশ কয়েকবার চেষ্টা করলেও গোলমুখ খুলতে পারেনি তারা। অন্য দিকে বেশ কয়েকবার ব্রাজিলের দূর্গে হানা দিচ্ছে সুইজারল্যান্ড। তবে গোলের দেখা পায়নি তারাও।

বরাবরের মতো আক্রমণাত্মক শুরু করে ব্রাজিল। ১৯ মিনিটে প্রথম সুযোগ তৈরি করে তারাই। লুকাস পাকেতার ফ্লিকে খুব ভালো জায়গায় বল পেয়ে যান রিচার্লিসন। একটুর জন্য তিনি ডি-বক্সে ভিনিসিউস জুনিয়রকে বল পাঠাতে পারেননি। ঠাণ্ডা মাথায় ক্লিয়ার করেন নিকো এলভেদি।

ম্যাচের ২৭তম মিনিটে ভিনিসিয়াস দারুণ চেষ্টা করেন। সুইস গোলের কাছে পৌঁছে গিয়েছিলেন তিনি। তার দুর্বল শট ঠেকিয়ে দলকে নিরাপদে রাখেন সুইজারল্যান্ডের গোলকিপার ইয়ান সমার।

৪৩ তম মিনিটে বক্সের ভেতর রাফিনিয়া হেড করলেও লক্ষ্যভেদ করতে পারেননি। এতে করে গোলশূন্য থেকেই বিরতিতে যায় দল দুটি।

আরও পড়ুন:
তিতের বিশ্বাস নেইমারের বিশ্বকাপ শেষ হয়ে যায়নি
মেসির ওপর খেপেছেন মেক্সিকান বক্সার
নেইমারের জায়গায় খেলতে পারেন রদ্রিগো
নক আউটে ব্রাজিল নাকি সুইজারল্যান্ড
শেষ মুহূর্তে এসে কেন মাঠে নামেননি মরক্কোর গোলকিপার

মন্তব্য

p
উপরে