× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ পৌর নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য পডকাস্ট

খেলা
Bangladesh is coming down hoping to win in familiar conditions
hear-news
player
print-icon

পরিচিত কন্ডিশনে জয়ের আশায় নামছে বাংলাদেশ

পরিচিত-কন্ডিশনে-জয়ের-আশায়-নামছে-বাংলাদেশ
শেরে বাংলায় সতীর্থদের সঙ্গে অনুশীলনে বাংলাদেশ অধিনায়ক মুমিনুল হক। ছবি: এএফপি
দলে ইনজুরি আতঙ্ক থাকলেও জয়ের বিষয়ে আশাবাদী টাইগার অধিনায়ক মুমিনুল হক। ম্যাচের আগে সংবাদসম্মেলনে এমনটাই জানান তিনি।

মিরপুরের শেরে বাংলায় রাত পোহালে গড়াবে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট। সোমবার বাংলাদেশ সময় সকাল ১০টায় শুরু হবে ম্যাচ।

এখন পর্যন্ত ঘরের মাঠে লঙ্কানদের বিপক্ষে টেস্টে জয়ের দেখা পায়নি বাংলাদেশ। চট্টগ্রাম টেস্টে জয়ের আশা জাগিয়েও শেষ পর্যন্ত ড্র করে মাঠ ছাড়তে হয় মুমিনুল বাহিনীকে। মিরপুরের পরিচিত কন্ডিশনে জয় বাগিয়ে সিরিজ শেষ করতে চায় বাংলাদেশ।

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে পয়েন্ট টেবিলের খুব একটা সুবিধাজনক অবস্থানে নেই টাইগাররা। টেবিলের আটে অবস্থান তাদের। লঙ্কানদের অবস্থান টেবিলের পাঁচে। এই ম্যাচে দুই দলের সামনেই উন্নতির হাতছানি।

অতি গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে বাংলাদেশ শিবিরে হানা দিয়েছে ইনজুরি শঙ্কা। চোটের কারণে স্কোয়াডে নেই মেহেদী হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ। চোটে সিরিজ শেষ শরিফুল ইসলাম ও নাঈম হাসানেরও। যে কারণে কিছুটা ব্যাকফুটে থেকে মিরপুরে নামছে বাংলাদেশ।

অপরদিকে লঙ্কান শিবিরে নেই কোনো ইনজুরি আতঙ্ক। পুরো শক্তি নিয়েই বাংলাদেশকে মোকাবেলা করতে মাঠে নামছে সফরকারীরা।

দলে ইনজুরি আতঙ্ক থাকলেও জয়ের বিষয়ে আশাবাদী টাইগার অধিনায়ক মুমিনুল হক। ম্যাচের আগে সংবাদসম্মেলনে এমনটাই জানান তিনি।

মুমিনুল বলেন, ‘ভালো একটা সুযোগ আছে আমাদের জন্য। চট্টগ্রামের কথা চিন্তা না করে সব কিছু নতুন করে শুরু করতে হবে। ঢাকা টেস্টে যদি দলীয়ভাবে খেলতে পারি তাহলে সব দিক থেকেই এগিয়ে থাকব।’

মিরপুরের পরিচিত কন্ডিশনের ওপর ভরসা রাখছেন মুমিনুল। ৫দিনের ১৫ সেশনে পাওয়া যে কোনো সুযোগ কাজে লাগাতে চান তিনি।

মুমিনুল যোগ করেন, ‘জেতার সুযোগ সব সময় থাকে। সেটা মিরপুরে খেলি বা দেশের বাইরে। সুযোগটা কিভাবে নিচ্ছি সেটা হচ্ছে বড় ব্যাপার। কন্ডিশন চিন্তা করলে সুযোগ থাকা। এটা আমাদের জন্য আরেকটা সুযোগ জেতার।’

মিরপুরে বাংলাদেশ স্কোয়াডে দুটি পরিবর্তন মোটামুটি নিশ্চিত। নাঈম হাসানের জায়গায় খেলবেন মোসাদ্দেক সৈকত। আর দ্বিতীয় পেইসার হিসেবে একাদশে সুযোগ পেতে পারেন এবাদত হোসেন।

বাংলাদেশ একাদশ: তামিম ইকবাল, মাহমুদুল জয়, নাজমুল শান্ত, মুমিনুল হক, মুশফিকুর রহিম, সাকিব আল হাসান, লিটন দাস, মোসাদ্দেক সৈকত, তাইজুল ইসলাম, খালেদ আহমেদ ও এবাদত হোসেন।

আরও পড়ুন:
বোলিং কম্বিনেশন নিয়ে দ্বিধায় মুমিনুল
মুস্তাফিজের বিকল্প নেই বিসিবির হাতে
আইসিসি সভাপতি আসছেন রোববার

মন্তব্য

আরও পড়ুন

খেলা
The temporary gallery was broken by the storm in the Gaul Test

গল টেস্টে ঝড়, ভেঙে গেল অস্থায়ী গ্যালারি

গল টেস্টে ঝড়, ভেঙে গেল অস্থায়ী গ্যালারি গল স্টেডিয়ামে ভেঙে গেছে অস্থায়ী গ্র্যান্ডস্ট্যান্ড। ছবি: এএফপি
অস্ট্রেলিয়া দল সকালে মাঠে পৌঁছানোর সঙ্গে সঙ্গেই শুরু হয় প্রবল ঝড় ও বর্ষণ। প্রবল বাতাসের কারণে পিচ ঢাকতে মাঠের কর্মীদের বেগ পেতে হয়। স্ট্যান্ড ভেঙে গেলেও দর্শক শূন্য থাকায় ঘটেনি কোনো হতাহতের ঘটনা।

বৈরি আবহাওয়ার কারণে অস্ট্রেলিয়া ও শ্রীলঙ্কার মধ্যে প্রথম টেস্টের দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু হতে দেরি হচ্ছে। বৃহস্পতিবার সকালে প্রবল বর্ষণে গল আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামের একটি অস্থায়ী গ্যালারি ভেঙে পড়ে।

অস্ট্রেলিয়া দল সকালে মাঠে পৌঁছানোর সঙ্গে সঙ্গেই শুরু হয় প্রবল ঝড় ও বর্ষণ। প্রবল বাতাসের কারণে পিচ ঢাকতে মাঠের কর্মীদের বেগ পেতে হয়। স্ট্যান্ড ভেঙে গেলেও দর্শক শূন্য থাকায় ঘটেনি কোনো হতাহতের ঘটনা।

অস্ট্রেলিয়া-শ্রীলঙ্কা সিরিজের ধারাভাষ্যকার অ্যাডাম কলিন্স বৃহস্পতিবার এক টুইট বার্তায় লেখেন, ‘এখানের আবাহাওয়া এতটাই তীব্র যে একটি স্ট্যান্ড মাত্রই ভেঙে পড়েছে।’

স্থানীয় সময় দুপুর ২.৩০ মিনিটে খেলা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও পরে তা বাতিল করা হয়। ম্যাচ রেফারি বিকাল ৪ টায় মাঠ পরিদর্শনে যাবেন।

এর আগে, প্রথম দিন টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ২১২ রানে অলআউট হয়ে যায় শ্রীলঙ্কা। ৩ উইকেটে ৯৮ রান নিয়ে দিনের খেলা শেষ করেছিল ৩ উইকেটে ৯৮ রান তুলে।

দিনশেষে অজিদের পক্ষে খোয়াজা ৪৭ ও ট্র্যাভিস হেড ৬ রানে অপরাজিত আছেন। প্রথম দিনের খেলা শেষে ১১৪ রানে পিছিয়ে আছে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া।

আরও পড়ুন:
টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতল অস্ট্রেলিয়া
শ্রীলঙ্কাকে উড়িয়ে বড় জয় অস্ট্রেলিয়ার
অবশেষে শ্রীলঙ্কায় যাচ্ছে অস্ট্রেলিয়া 
পূর্ণশক্তি নিয়ে শ্রীলঙ্কায় যাবে অস্ট্রেলিয়া
বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের কাছে হেরে সিরিজ শুরু শ্রীলঙ্কার

মন্তব্য

খেলা
Bumrah will captain India

ভারতের টেস্ট অধিনায়ক হচ্ছেন বুমরাহ

ভারতের টেস্ট অধিনায়ক হচ্ছেন বুমরাহ ভারতের জার্সিতে পেইসার জাসপ্রিত বুমরাহ। ছবি: এএফপি
ভারতে গত ৩৫ বছরে টেস্টে নেতৃত্ব দেননি কোনো পেসার। সে হিসেবে জাসপ্রিত বুমরাহ গড়তে যাচ্ছেন রেকর্ড।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত সপ্তাহে লেস্টারশায়ারের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়েন ভারতের অধিনায়ক রোহিত শর্মা। ধারণা করা হচ্ছিল শুক্রবার ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্টর আগে সুস্থ হয়ে উঠবেন তিনি, তবে এখনই আশা ছাড়ছে না টিম ম্যানেজমেন্ট।

শুক্রবার ম্যাচ শুরুর আগে আবারও টেস্ট করা হবে রোহিতের। তার অনুপস্থিতিতে এজবাস্টনে দলের নেতৃত্ব দেবেন জাসপ্রিত বুমরাহ।

ভারতে গত ৩৫ বছরে টেস্টে নেতৃত্ব দেননি কোনো পেসার। সে হিসেবে বুমরাহ গড়তে যাচ্ছেন রেকর্ড।

পেসার হিসেবে ভারতকে সবশেষ নেতৃত্ব দিয়েছিলেন কপিল দেব। ১৯৮৭ সালে তিনি দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি নেন।

গত সপ্তাহে লেস্টারশায়ারের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচের দ্বিতীয় দিনে করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন রোহিত। বর্তমানে তিনি আছেন আইসোলেশনে।

ভারতের খেলাধুলাবিষয়ক সাইট ক্রিকউইকে বুধবার দলের প্রধান কোচ রাহুল দ্রাবিড় বলেন, ‘আমাদের মেডিক্যাল টিম রোহিতকে পর্যবেক্ষণ করছে। তাকে এখনও বাদ দেয়া হয়নি। তাই আমরা তাকে পর্যবেক্ষণে রেখেছি।

‘আমাদের হাতে এখনও অনেকটা সময় আছে। আজ (বৃহস্পতিবার) রাতে তার একটি পরীক্ষা হবে এবং আগামীকাল সকালেও। তারপরে আমরা সিদ্ধান্ত নেব।’

শ্রীলঙ্কা সিরিজের আগে প্রেস কনফারেন্সে বুমরাহ বলেছিলেন, ভারতের নেতৃত্ব কাঁধে নেয়ার সুযোগ হলে তিনি সংকোচ বোধ করবেন না।

তিনি বলেছিলেন, ‘যেকোনো পরিস্থিতিতে সুযোগ দেয়া হলে আমি এটি সম্মানের সঙ্গে গ্রহণ করব। আমি কখনোই দূরে সরে যাব না, তবে নিজে থেকে অধিনায়কত্ব চাইছি না।’

অধিনায়কত্বের অভিজ্ঞতা না থাকা সত্ত্বেও বুমরাহ বলেছিলেন, তিনি নেতৃত্বের দায়িত্ব পালনে আত্মবিশ্বাসী। কারণ তিনি ভারত দল ও আইপিএলের দল মুম্বাই ইন্ডিয়ানসে স্ট্রাইক বোলার ছিলেন।

তিনি বলেছিলেন, ‘আমাকে যে ভূমিকায় দেয়া হোক না কেন, সর্বোচ্চ দক্ষতার সঙ্গে খেলি। আপনি যখন দলের জ্যেষ্ঠ সদস্য হবেন, তখন এমনিতেই অধিনায়কের মতো দায়িত্ব চলে আসবে।

'অধিনায়কত্ব কেবল একটি পদ যা আপনার নামের সঙ্গে থাকে। অধিনায়কত্ব পান বা না পান, জ্যেষ্ঠ খেলোয়াড়দের এমনিতেই দলের প্রতি অনেক দায়িত্ব থাকে।’

আরও পড়ুন:
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বললেন বিশ্বকাপজয়ী মর্গান
‘ওয়ার্নের টেস্টে’ স্পিন শক্তি বাড়াচ্ছে অস্ট্রেলিয়া
টেস্টের পর দ্রুত টি-টোয়েন্টিতে মনোযোগ দিতে চান সাকিব
উইন্ডিজের কাছে সিরিজ হেরে বাংলাদেশের হারের সেঞ্চুরি
সেন্ট্রাল জোনের বিসিএলের জোড়া শিরোপা উদযাপন

মন্তব্য

খেলা
Sri Lanka did not have a good start in the batting disaster Australia

শ্রীলঙ্কার বিপর্যয়ের পর ৩ উইকেট হারাল অস্ট্রেলিয়া

শ্রীলঙ্কার বিপর্যয়ের পর ৩ উইকেট হারাল অস্ট্রেলিয়া অজিদের উইকেট শিকারের পর লঙ্কান ক্রিকেটারদের উদযাপন। ছবি: এএফপি
প্রথম দিন ব্যাট করতে নেমে অজিদের বোলিং তোপে ২১২ রানে গুটিয়ে যায় শ্রীলঙ্কা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দিনশেষে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ৩ উইকেট হারিয়ে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৯৮ রান।

টি–টোয়েন্টি ও ওয়ানডে সিরিজের পর দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের মুখোমুখি হয়েছে শ্রীলঙ্কা ও অস্ট্রেলিয়া। প্রথম টেস্টের প্রথম দিন ব্যাট করতে নেমে অজিদের বোলিং তোপে ২১২ রানে গুটিয়ে যায় শ্রীলঙ্কা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দিনশেষে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ৩ উইকেট হারিয়ে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৯৮ রান।

শ্রীলঙ্কার গল আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে বুধবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিন্ধান্ত নেন স্বাগতিক অধিনায়ক দিমুথ করুনারত্নে। লঙ্কান দুই ওপেনারের উদ্বোধনী জুটিতে আসে ৩৮ রান।

এরপর কুশল মেন্ডিস, ধনঞ্জয়া ডি সিলভা, দিনেশ চান্ডিমালের ব্যর্থতায় ৯৭ রানে লঙ্কানরা হারায় ৫ উইকেট। এরপর নিরোশান ডিকভেলার ৫৮ ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউসের ৩৯ রানের সাহায্যে ২১২ রান তুলতে সমর্থ হয় শ্রীলঙ্কা।

স্বাগতিকদের বিপক্ষে অজি স্পিনাররা দাপট দেখিয়েছেন। নেইথান লায়ন একাই শিকার করেন ৫ উইকেট। মিচেল সোয়েপসন তুলে নেন ৩ উইকেট। এ ছাড়া মিচেল স্টার্ক ও প্যাট কামিন্স একটি করে উইকেট নেন।

ব্যাট করতে নেমে ৪৭ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েন উসমান খোয়াজা ও ডেভিড ওয়ার্নার। রমেশ মেন্ডিসের বোলিংয়ে ওয়ার্নার ফেরেন ২৪ বলে ২৫ রান করে। ১৯ বলে ১৩ রান করে একই বোলারের শিকারে পরিণত হন মার্নাস লাবুশেইন।

এরপর নিরোশান ডিকভেলার থ্রোয়ে রানআউট হয়ে স্টিভ স্মিথ ফিরলে ধাক্কা খায় সফরকারীরা।

দিনশেষে খোয়াজা ৪৭ ও ট্র্যাভিস হেড ৬ রানে অপরাজিত আছেন। প্রথম দিনের খেলা শেষে ১১৪ রানে পিছিয়ে আছে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া।

আরও পড়ুন:
‘ওয়ার্নের টেস্টে’ স্পিন শক্তি বাড়াচ্ছে অস্ট্রেলিয়া
ফিকার প্রথম নারী সভাপতি অজি ক্রিকেটার লিসা

মন্তব্য

খেলা
Donalds advice to keep Taskin at bay

তাসকিনকে আগ্রাসন ধরে রাখার পরামর্শ ডনাল্ডের

তাসকিনকে আগ্রাসন ধরে রাখার পরামর্শ ডনাল্ডের বাংলাদেশ ওয়ানডে দলের জার্সিতে তাসকিন আহমেদ। ছবি: এএফপি
তাসকিনকে গতি ও আগ্রাসন অব্যাহত রাখার পরামর্শ কোচের। দলের সঙ্গে অনুশীলন শেষে বুধবার ভোরে তাসকিন এমনটা জানান।

ইনজুরির কারনে গত এপ্রিল থেকে দলের বাইরে বাংলাদেশের পেইসার তাসকিন আহমেদ। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ দিয়ে দলে ফিরেছেন তিনি। টি-টোয়েন্টি সিরিজের আগে দলের সঙ্গে অনুশীলন করতে পেরে খুশি তাসকিন।

ক্রিকেট থেকে দূরে থাকলেও, তাসকিনের বোলিংয়ে আগ্রাসী মনোভাবটাই দেখতে চান বাংলাদেশের পেইস বোলিং কোচ অ্যালান ডনাল্ড। তাসকিনকে গতি ও আগ্রাসন অব্যাহত রাখার পরামর্শ কোচের। দলের সঙ্গে অনুশীলন শেষে বুধবার ভোরে তাসকিন এমনটা জানান।

তিনি বলেন, ‘ইনজুরি থেকে ফেরার পর আমার দায়িত্ব সম্পর্কে তার সঙ্গে কথা বলেছি। তিনি আমাকে এটাই বুঝিয়েছেন যে, আমি যে ধরনের বোলার আমার দায়িত্ব হচ্ছে গতি ও আগ্রাসন।’

তিনি যোগ করেন, “উনি আমাকে বলেছেন যে, ‘কয়েক ম্যাচে তুমি অনেক রান দেবে আবার এমন দিন আসবে যখন তুমি একাই উইকেট নিয়ে ম্যাচ জিতিয়ে দিবে। কিন্তু তোমার দায়িত্ব থেকে নিজেকে সরাবে না। তোমার যেটা রোল, সেটাতেই তুমি ফোকাস থাকো। দিন যত যাবে, ছন্দ আরও ভাল হবে।”’

দীর্ঘদিন পর দলের সাথে অনুশীলন করে সবকিছুই ভালো লাগছে বলেন তাসকিন। তার প্রত্যাশা টেস্টের ব্যর্থতা কাটিয়ে সীমিত ওভারের সিরিজে বাংলাদেশ কামব্যাক করবে।

তিনি বলেন, ‘দুর্ভাগ্যজনকভাবে টেস্ট সিরিজটা আমাদের ভালো যায়নি। ভুলগুলো নিয়ে কাজ করতে হবে, তবে শুধু এটা নিয়ে বসে থাকা যাবে না। এই মুহূর্তে আমরা টি-টোয়েন্টি সিরিজটার দিকেই তাকিয়ে আছি। চেষ্টা করব ভালো খেলে দেশকে জয় উপহার দিতে।’

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে কোনো টেস্ট না খেললেও, ২টি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলেছেন তাসকিন। ওয়ানডেতে ১ উইকেট থাকলেও, টি-টোয়েন্টিতে শূন্য।

আরও পড়ুন:
সোহান, শান্ত ও খালেদের উন্নতি, পেছালেন সাকিব
উইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে ছুটি চান সাকিব
টেস্টের পর দ্রুত টি-টোয়েন্টিতে মনোযোগ দিতে চান সাকিব

মন্তব্য

খেলা
Shakib slowed down Sohan Shant and Khaleds improvement

সোহান, শান্ত ও খালেদের উন্নতি, পেছালেন সাকিব

সোহান, শান্ত ও খালেদের উন্নতি, পেছালেন সাকিব উইন্ডিজের বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে সোহান ও সাকিব। ছবি: এএফপি
খালেদের ৯ ধাপ, নুরুলের ১৪ ও শান্তর ১১ ধাপ উন্নতি হয়েছে। ব্যাটিং তালিকায় ৬ ধাপ ও অলরাউন্ডারদের তালিকায় এক ধাপ পিছিয়েছেন সাকিব।

আইসিসি টেস্ট র‌্যাংকিংয়ে ব্যাটিং ও বোলিংয়ে উন্নতি হয়েছে বাংলাদেশের পেইসার খালেদ আহমেদ, উইকেটকিপার নুরুল হাসান সোহান ও ব্যাটার নাজমুল হোসেন শান্তর। তবে অলরাউন্ডারদের তালিকায় অবনতি হয়েছে বাংলাদেশ অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের।

খালেদের ৯ ধাপ, নুরুলের ১৪ ও শান্তর ১১ ধাপ উন্নতি হয়েছে। ব্যাটিং তালিকায় ৬ ধাপ ও অলরাউন্ডারদের তালিকায় এক ধাপ পিছিয়েছেন সাকিব।

সদ্য শেষ হওয়া ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দুই ম্যাচের সিরিজের শেষটিতে বল হাতে ৫ উইকেট নেন খালেদ। র‍্যাঙ্কিংয়ে নয় ধাপ এগিয়ে ৮৮তমস্থানে জায়গা করে নিয়েছেন খালেদ।

টেস্ট বোলারদের তালিকায় বাংলাদেশের পক্ষে সেরা অবস্থানে আছেন স্পিনার তাইজুল ইসলাম। ২৭ তম অবস্থানে আছেন এ স্পিনার। আর শীর্ষে আছেন অস্ট্রেলিয়ার প্যাট কামিন্স।

সেইন্ট লুসিয়া টেস্টের ব্যাট হাতে দুই ইনিংসে ২৬ ও ৪২ রান করেন শান্ত। ১১ ধাপ এগিয়ে ৮৮তম অবস্থানে আছেন তিনি। টেস্টের প্রথম ইনিংসে ৭ রানে ফিরলেও, দ্বিতীয় ইনিংসে অনবদ্য ৬০ রান করেন নুরুল। র‌্যাংকিংয়ে ১৪ ধাপ এগিয়ে ৬৪তম অবস্থানে আছেন তিনি।

ব্যাটিংয়ে অবনতি হয়েছে অধিনায়ক সাকিবের। ৬ ধাপ পিছিয়েছে ৩৯তম স্থানে নেমে গেছেন তিনি।

বাংলাদেশের পক্ষে সেরা অবস্থানে আছেন লিটন দাস। তার অবস্থান ১৩। ব্যাটারদের শীর্ষে ইংল্যান্ডের জো রুট।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অ্যান্টিগা টেস্ট শেষে অলরাউন্ডারদের তালিকায় দ্বিতীয়স্থানে উঠেছিলেন সাকিব। কিন্তু সেইন্ট লুসিয়া টেস্টে নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি তিনি। যে কারণে তৃতীয়স্থানে নেমে গেছেন তিনি। শীর্ষে আছেন রভিন্দ্র জাদেজা।

আরও পড়ুন:
উইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে ছুটি চান সাকিব
টেস্টের পর দ্রুত টি-টোয়েন্টিতে মনোযোগ দিতে চান সাকিব
উইন্ডিজের কাছে সিরিজ হেরে বাংলাদেশের হারের সেঞ্চুরি

মন্তব্য

খেলা
To be successful in the Tests we need to be tough Siddons

টেস্ট ক্রিকেটের চাপের মধ্যেই শিখতে ও শেখাতে হবে: সিডন্স

টেস্ট ক্রিকেটের চাপের মধ্যেই শিখতে ও শেখাতে হবে: সিডন্স বাংলাদেশ জাতীয় দলের ব্যাটিং কোচ জেমি সিডন্স। ছবি: সংগৃহীত
বাংলাদেশের ব্যাটারদের শুরুটা দারুণ করলেও শেষ পর্যন্ত ধরে খেলতে পারছেন না বলে মনে করছেন ব্যাটিং কোচ জেমি সিডন্স।

সাউথ আফ্রিকা, শ্রীলঙ্কা ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজে কোনো টেস্টে জয় নেই বাংলাদেশের। শেষ ৩ সিরিজের ৬টি টেস্ট ম্যাচের সবগুলো হারতে হয়েছে ব্যাটিং ব্যর্থতায়। দলের এমন পারফরম্যান্সে হতাশ টাইগার সমর্থকরা।

পরপর তিন সিরিজে ক্লিনসুইপের শিকার লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। বিশ্বের অন্য যে কোনো দেশের চেয়ে কম সংখ্যক ম্যাচ খেলে শততম টেস্ট হারের স্বাদ পেয়েছে বাংলাদেশ।

দেশের এমন পারফরম্যান্সের পর বাংলাদেশ জাতীয় দলের ব্যাটিং কোচ জেমি সিডন্স নিজের মতামত ব্যাক্ত করে বুধবার নিজের ফেসবুকে পোস্ট করেন।

বাংলাদেশের ব্যাটারদের শুরুটা দারুণ করলেও শেষ পর্যন্ত ধরে খেলতে পারছেন না বলে মনে করছেন ব্যাটিং কোচ জেমি সিডন্স।

তিনি লেখেন, ‘সোহান দুইবার ষাটের বেশি রান করেছেন। লিটন, তামিম এবং শান্ত বড় স্কোরের ইঙ্গিত দিলেও শেষ পর্যন্ত তারা সফল হয়নি।’

সিডন্সের মতে টেস্ট ক্রিকেটে উন্নতির জন্য হতে হবে আরও কঠোর। তিনি যোগ করে বলেন, ‘ম্যাচের শেষের দিকে আমাদের বোলাররা দারুণ খেলেছে। খালেদ প্রথমবার পাঁচ উইকেট নিয়েছে। টেস্ট ক্রিকেট খুবই কঠিন। যে কারণে সফল হতে হলে আরও শক্ত হতে হবে আমাদের।’

টেস্ট ক্রিকেটে সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশের খারাপ খেলছে বলেও মনে করেন সিডন্স। তিনি বলেন, ‘দুটি টেস্ট ম্যাচেই আমরা খুব খারাপ খেলেছি, তা এড়িয়ে যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই।

‘প্রচুর মন্তব্য আসছে। বাস্তবতা হলো টেস্ট ক্রিকেটের উত্তাপ ও ​​চাপের মধ্যে খেলোয়াড়দের শিখতে ও শেখাতে হবে। এটা লুকানোর কিছু নেই। উন্নতির জন্য আমরা এটা নিয়ে কাজ করছি।’

আরও পড়ুন:
প্রথম ঘণ্টায় জয়ের উইকেট হারাল বাংলাদেশ
সেইন্ট লুসিয়ায় ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ, একাদশে মুমিনুলের বদলে এনামুল
অ্যান্টিগার চেয়ে সহজ পিচ প্রত্যাশা সাকিবের
ফার্স্ট ক্লাসের অভিজ্ঞতা শক্তি জোগাচ্ছে বিজয়কে
উইন্ডিজ সিরিজ থেকে ছিটকে গেলেন সাইফউদ্দিন

মন্তব্য

খেলা
India made a clean sweep in Ireland in the T20 series

টি-টোয়েন্টি সিরিজে আয়ারল্যান্ডকে ক্লিনসুইপ ভারতের

টি-টোয়েন্টি সিরিজে আয়ারল্যান্ডকে ক্লিনসুইপ ভারতের আয়ারল্যান্ডের উইকেট শিকারের পর ভারতের উদযাপন। ছবি: সংগৃহীত
টি-টোয়েন্টিতে ভারতের চতুর্থ সর্বোচ্চ ২২৫ রান তাড়া করতে নেমে আয়ারল্যান্ড ২২১ রান সংগ্রহ করে। এতে সিরিজের শেষ ম্যাচে ৪ রানে জয় পেয়েছে হার্দিক পান্ডিয়ার দল।

আইসিসি টি-টোয়েন্টি র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ দল ভারতকে কঠিন পরীক্ষা দিয়ে জিততে হয়েছে ১৪তম দল আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে।

টি-টোয়েন্টিতে ভারতের চতুর্থ সর্বোচ্চ ২২৫ রান তাড়া করতে নেমে আয়ারল্যান্ড ২২১ রান সংগ্রহ করে। এতে সিরিজের শেষ ম্যাচে ৪ রানে জয় পেয়েছে হার্দিক পান্ডিয়ার দল।

দুই ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথমটিতে ৭ উইকেটের জয় পায় সফরকারী ভারত। দ্বিতীয় ম্যাচ জয়ে ২-০তে সিরিজ জিতে আইরিশদের ক্লিনসুইপ করে দক্ষিণ এশিয়ার দেশটি।

আয়ারল্যান্ডের ডাবলিনে দ্য ভিলেজ স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন অধিনায়ক হার্দিক পান্ডিয়া।

ব্যাট করতে নেমে দিপক হুদার ৫৭ বলের ১০৪ রানের ঝোড়ো ইনিংসে ভর করেই ভারত পাহাড়সম ২২৫ রান টার্গেট দেয় আইরিশদের। প্রথম ম্যাচে ৪৭ রানে অপরাজিত ইনিংস খেলে দলকে জেতানোর পর এবার ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন হুদা।

তার সঙ্গে দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে ১৭৬ রান যোগ করেন সানজু স্যামসন। তার ব্যাট থেকে আসে ৪২ বলে ৭৭ রানের মারকুটে ইনিংস।

স্যামসন ও হুদা আউট হলে সুরিয়াকুমার ইয়াদভ ৫ বলে ১৫ এবং অধিনায়ক হার্দিক পান্ডিয়া ৯ বলে ১৩ রান করেন।

দিনেশ কার্তিক, হার্শাল প্যাটেল ও অক্ষর প্যাটেল আউট হন শূন্য রানে।

আয়ারল্যান্ডের পক্ষে মার্ক অ্যাডায়ার শিকার করেন তিন উইকেট। জশ লিটল ও ক্রেইগ ইয়ং নেন দুটি করে উইকেট।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে আইরিশরাও কম যায়নি। ভারতের মতো দলের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টিতে ২২৫ রান তাড়া করে ২২১ করে হার মানাটা জয়ের সমান।

পাহাড়সম লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে পল স্টার্লিং ও অধিনায়ক অ্যান্ডি ব্যালবার্নি ৫ ওভার ৪ বলে ৭২ রান তুলে জয়ের স্বপ্ন দেখাতে শুরু করেন স্বাগতিকদের। ১৮ বল খেলে ৪০ রান করে আউট হন স্টার্লিং।

গ্যারেথ ডেলানি শূন্য রানে আউট হলে ব্যালবার্নি ও হ্যারি টেকটর দলীয় সংগ্রহকে টেনে নিতে থাকেন, তবে দলীয় ১১৭ রানে অধিনায়ক ব্যালবার্নি ফিরেন ৩৭ বলে ৬০ রান করে।

নতুন ব্যাটার লরকান টুকার ৫ রান করে আউট হলে বিপর্যয়ে পড়ে আয়ারল্যান্ড।

পরে টেকটর ও জর্জ ডকরেল জয়ের বন্দরের দিকে নিয়ে যেতে থাকেন দলকে। ১৭ ওভার শেষে আয়ারল্যান্ডের রান দাঁড়ায় ৪ উইকেটে ১৮৯।

জেতার জন্য শেষ ১৮ বলে প্রয়োজন ৩৭ রান, টি-টোয়েন্টিতে যা মোটেও অসম্ভব নয়, তবে ১৮তম ওভারের প্রথম বলেই টেকটর আউট হলে জয়ের আসা ছেড়ে দিতে হয় আইরিশদের। এ যাত্রায় তার ব্যাট থেকে আসে ৩৯ রান।

তারপরও ডকরেল ও মার্ক আডায়ার চেষ্টা করেন দলকে জয় উপহার দিতে। ম্যাচ নিয়ে যান শেষ বল পর্যন্ত। শেষ বলে ছক্কা হাঁকাতে পারলেই জিতে যেত তারা, কিন্তু উমরান মালিকের করা শেষ বলে ১ রানের বেশি নিতে পারেনি আয়ার‌ল্যান্ড।

এতে করে ২০ ওভার শেষে ২২১ রানেই থামতে হয় আইরিশদের। ডকরেল ও আডায়ার দুজনই থাকেন অপরাজিত।

ভারতের পক্ষে সবাই খরুচে বোলিং করেছে, তবে মিতব্যয়ী ছিলেন বাঁহাতি স্পিনার অক্ষর প্যাটেল। দুই ওভারে দিয়েছেন ১২ রান।

উমরান মালিক চার ওভার বোলিংয়ে ৪২ রান খরচায় নিয়েছেন এক উইকেট।

সিরিজ ও ম্যাচসেরার পুরস্কার পেয়েছেন ভারতের ব্যাটার দিপক হুদা।

আরও পড়ুন:
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বললেন বিশ্বকাপজয়ী মর্গান
নোবেল শান্তি পুরস্কারের সম্ভাব্য তালিকায় AltNews-এর জুবায়ের
‘ওয়ার্নের টেস্টে’ স্পিন শক্তি বাড়াচ্ছে অস্ট্রেলিয়া
টেস্টের পর দ্রুত টি-টোয়েন্টিতে মনোযোগ দিতে চান সাকিব
উইন্ডিজের কাছে সিরিজ হেরে বাংলাদেশের হারের সেঞ্চুরি

মন্তব্য

p
উপরে