× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ পৌর নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য

খেলা
Shakib is playing in Chittagong Test
hear-news
player

চট্টগ্রাম টেস্টে খেলছেন সাকিব

চট্টগ্রাম-টেস্টে-খেলছেন-সাকিব অনুশীলনে সতীর্থদের সঙ্গে সাকিব আল হাসান। ছবি: বিসিবি
চট্টগ্রাম টেস্টে খেলার জন্য সাকিবের সামনে বাধা ছিল শুধু ফিটনেস টেস্টে উতরে যাওয়া। শনিবার সেই বাধা পার করে সাকিব জানান দিলেন, লঙ্কানদের বধের মিশনের জন্য প্রস্তুত তিনি।

সব জল্পনাকল্পনার অবসান ঘটিয়ে চট্টগ্রাম টেস্টে খেলছেন দেশসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

জাতীয় দলের টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুল হক শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি জানিয়েছেন।

চট্টগ্রাম টেস্টে খেলার জন্য সাকিবের সামনে বাধা ছিল শুধু ফিটনেস টেস্টে উতরে যাওয়া। শনিবার সেই বাধা পার করে সাকিব জানান দিলেন, লঙ্কানদের বধের মিশনের জন্য প্রস্তুত তিনি।

এর আগে সাউথ আফ্রিকা সিরিজের মাঝপথে পারিবারিক কারণে দেশে ফিরে এসেছিলেন দেশসেরা এই অলরাউন্ডার। শ্রীলঙ্কা সিরিজে খেলার কথা থাকলেও সেখানে বাদ সাধে করোনা।

করোনা নেগেটিভ হয়েছেন সাকিব শুক্রবারই। বোর্ডের মেডিক্যাল ইউনিট তাকে খেলার সবুজ সংকেত দিলেও বাদ সাধেন হেড কোচ রাসেল ডমিঙ্গো ও বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

করোনা-পরবর্তী সাকিবের ফিটনেস ইস্যুর কথা ভেবে সিরিজের প্রথম টেস্টে তাকে রাখতে চাননি এ দুজন, কিন্তু সব বাধা পেরিয়ে নিজের ফিটনেসের প্রমাণ দিয়ে সাকিব নিশ্চিত করলেন লঙ্কা সিরিজের প্রথম থেকেই নিজের খেলার বিষয়টি।

১৫ মে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে গড়াবে সিরিজের প্রথম ম্যাচ। এরপর ২৩ মে হবে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট।

আরও পড়ুন:
রিয়েলিটি শোয়ে অন্যরকম সাকিব
সুরক্ষা-বলয় থেকে বেরিয়ে শুটিংয়ে সাকিব
ফাইনালের আগে পেটের পীড়ায় সাকিব
র‍্যাঙ্কিংয়ে পেছালেন সাকিব ও মুস্তাফিজ
সাকিবের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিল আইপিএলের দুই দল

মন্তব্য

আরও পড়ুন

খেলা
Mushfiqur scored a century after 19 innings

২ বছর পর টেস্ট সেঞ্চুরি মুশফিকের

২ বছর পর টেস্ট সেঞ্চুরি মুশফিকের ক্যারিয়ারের অষ্টম সেঞ্চুরি পূর্ণ করেছেন মুশফিকুর রহিম। ছবি: বিসিবি
সেঞ্চুরি করতে মুশফিক খেলেছেন ২৭০ বল। তার ব্যাটেই চার শ পেরিয়ে ছুটছে বাংলাদেশ। চা বিরতির সময় মুশফিক ১০৪ ও তার সঙ্গী নাঈম হাসান ৪ রান নিয়ে খেলছিলেন। টাইগারদের রান ৬ উইকেটে ৪৩৬।

জাতীয় দলের জার্সি গায়ে টেস্ট ক্রিকেটে ২০২০ সালের নভেম্বরে সবশেষ সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছিলেন জাতীয় দলের উইকেকিপার ব্যাটার মুশফিকুর রহিম। এরপর জাতীয় দলের হয়ে ১৯ ইনিংসে মাঠে নামলেও সেঞ্চুরির দেখা পাননি মিস্টার ডিপেন্ডেবল।

সাম্প্রতিক পারফরম্যান্সের কারণে সমালোচনা শুনতে হয়েছে। রিভার্স সুইপ খেলতে গিয়ে দৃষ্টিকটু আউট হওয়ায় তাকে নিয়ে হয়েছে জোর আলোচনা। এমনকি গুঞ্জনও ওঠে স্বেচ্ছায় খেলা ছেড়ে দেয়ার আহ্বান করা হয়েছে তাকে নিয়ে।

সব সমালোচনার জবাব মুশফিক দিলেন ব্যাট হাতে। দুর্দান্তভাবে ফিরলেন স্বরূপে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টেস্টের চতুর্থ দিনে মুশফিক দেখা পান অধরা শতকের।

প্রায় দুই বছর পর সেঞ্চুরির দেখা পেলেন মুশফিক। ইনিংসের হিসেবে সেটি ১৯ ইনিংস পর।

যেই ব্যাটিং দৃঢ়তা নিয়ে প্রশ্নবিদ্ধ করা হয় ডানহাতি এই ব্যাটারকে, চট্টগ্রাম টেস্টে মুশফিক দেখালেন সেই দৃঢ়তার নমুনা। উইকেট কামড়ে ধরে ব্যাটিং করেছেন পুরো একটা দিন।

ক্যারিয়ারের অষ্টম টেস্ট সেঞ্চুরি করতে মুশফিক হাঁকিয়েছেন মাত্র ৪টি চার। ছিল না কোনো ওভার বাউন্ডারি। একই সঙ্গে ছিল না বাজে কোনো শট খেলার নজির। প্রতিটি বল উইকেট সামলে খেলেছেন তিনি।

সেঞ্চুরি করতে মুশফিক খেলেছেন ২৭০ বল। তার ব্যাটেই চার শ পেরিয়ে ছুটছে বাংলাদেশ। চা বিরতির সময় মুশফিক ১০৪ ও তার সঙ্গী নাঈম হাসান ৪ রান নিয়ে খেলছিলেন। টাইগারদের রান ৬ উইকেটে ৪৩৬।

আরও পড়ুন:
তামিমের বদলে লিটনকে নিয়ে শেষ সেশনে বাংলাদেশ
তিন বছর পর তামিমের সেঞ্চুরি
তামিম-জয়ের ব্যাটে দুর্দান্ত বাংলাদেশ
বিশ্ব ফার্নান্দোর কনকাশন বদলি কাসুন রাজিথা
৫ বছর পর টেস্টে শতরানের উদ্বোধনী জুটি

মন্তব্য

খেলা
Bangladesh got the lead over Shakib Mushfi

মুশফিকের ব্যাটে ৪০০ ছাড়াল বাংলাদেশ

মুশফিকের ব্যাটে ৪০০ ছাড়াল বাংলাদেশ বাংলাদেশকে লিড এনে দেন মুশফিক ও সাকিব। ছবি: বিসিবি
বিরতির পর টানা দুই উইকেট হারালেও মুশফিকুর রহিম ও সাকিব আল হাসানের ব্যাটে ভর করে লিড নেয় স্বাগতিকরা।

চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম ইনিংসে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে লিড নিয়েছে বাংলাদেশ। চতুর্থ দিনের দ্বিতীয় সেশনে লিড পায় টাইগাররা। বিরতির পর টানা দুই উইকেট হারালেও মুশফিকুর রহিম ও সাকিব আল হাসানের ব্যাটে ভর করে লিড নেয় স্বাগতিকরা।

তিন উইকেটে ৩১৮ রান নিয়ে চতুর্থ দিনের খেলা শুরু করে দিনের প্রথম থেকে লঙ্কান বোলারদের দেখেশুনে খেলছিলেন মুশফিক ও লিটন দাস।

এদিন মুশফিকের সামনে লক্ষ্য ছিল প্রথম বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে ৫ হাজারি ক্লাবে প্রবেশের সুযোগ। সেই সুযোগ হাতছাড়া করতে বেশ সময় নেননি অভিজ্ঞ এ ব্যাটার।

বুধবার চতুর্থ দিনের খেলার প্রথম ৩০ মিনিটে মুশফিক প্রবেশ করেন পাঁচ হাজার রানের ক্লাবে। সেই সঙ্গে দলকে টেনে নিয়ে যেতে থাকেন লিডের দিকে। এ সময় ধৈর্যশীল ব্যাটিংয়ের মাধ্যমে তাকে সঙ্গ দিয়ে দলকে এগিয়ে নেয়ার কাজে সাহায্য করেন লিটন দাস।

শেষ পর্যন্ত লঙ্কার চেয়ে ১২ রানে পিছিয়ে থেকে মধ্যাহ্ন বিরতিতে যায় বাংলাদেশ। আর সেই সঙ্গে পার করে দুর্দান্ত এক সেশন।

বিরতির পর বদলে যায় দৃশ্যপট। বিরতি থেকে ফেরার পর কাসুন রাজিথার ওভারের প্রথম বলে দিকভেলার হাতে ক্যাচ তুলে দেন ৮৮ রান করা লিটন।

লিটনের বিদায়ের পর আগের দিনের ইনজুরিতে পড়া তামিম নামেন মাঠে। ১৩৩ রানে অপরাজিত ছিলেন তিনি। মাঠে নেমে প্রথম বলে তাকে ফের ফিরতে হয় সাজঘরে। রাজিথার দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে স্টাম্প হারান তামিম।

দল তখন লিড থেকে মাত্র ১২ রান দূরে। এরপর মুশফিকুর রহিম ও সাকিব আল হাসানের ব্যাটে ভর করে লিড পায় বাংলাদেশ।

আরও পড়ুন:
তিন বছর পর তামিমের সেঞ্চুরি
তামিম-জয়ের ব্যাটে দুর্দান্ত বাংলাদেশ
বিশ্ব ফার্নান্দোর কনকাশন বদলি কাসুন রাজিথা
৫ বছর পর টেস্টে শতরানের উদ্বোধনী জুটি
কিপটে বোলিংয়ের পরিকল্পনায় সফল টাইগাররা

মন্তব্য

খেলা
After the break Liton Tamim returned one after another

পরপর ফিরলেন লিটন-তামিম

পরপর ফিরলেন লিটন-তামিম শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটারদের উইকেট উদযাপন। ছবি: এএফপি
৮ রানে ফেরেন লিটন আর ১৩৩ রানে তামিম। এর ফলে ৩৮৫ রানে পাঁচ ব্যাটারকে হারাল বাংলাদেশ।

৩ উইকেট হারিয়ে ৩৮৫ রানে তুলে মধ্যাহ্ন বিরতিতে গিয়েছিল বাংলাদেশ। বিরতি থেকে ফিরেই কাসুন রাজিথার ব্যাক টু ব্যাক আঘাতে সাজঘরের পথ ধরতে হয় তামিম অকবাল ও লিটন দাসকে। ৮৮ রানে ফেরেন লিটন আর ১৩৩ রানে তামিম। এর ফলে ৩৮৫ রানে পাঁচ ব্যাটারকে হারাল বাংলাদেশ।

তিন উইকেটে ৩১৮ রান নিয়ে চতুর্থ দিনের খেলা শুরু করে দিনের প্রথম থেকেই লঙ্কান বোলারদের দেখেশুনে খেলছিলেন মুশফিক ও লিটন।

এদিন মুশফিককে হাতছানি দিচ্ছিল প্রথম বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে ৫ হাজারি ক্লাবে প্রবেশের সুযোগ। সেই সুযোগ হাতছাড়া করতে বেশ সময় নেননি মুশি।

খেলা শুরুর ৩০ মিনিটের ভেতর প্রবেশ করেন পাঁচ হাজারি ক্লাবে। সেই সঙ্গে দলকে টেনে নিয়ে যেতে থাকেন লিডের দিকে। এ সময় ধৈর্যশীল ব্যাটিংয়ের মাধ্যমে তাকে সঙ্গ দিয়ে দলকে এগিয়ে নেয়ার কাজে সাহায্য করেন লিটন দাস।

শেষ পর্যন্ত ১২ রানে পিছিয়ে থেকে মধ্যাহ্ন বিরতিতে যায় বাংলাদেশ। আর সেই সঙ্গে পার করে দুর্দান্ত এক সেশন।

কিন্তু বিরতি থেকে ফিরেই বদলে যায় দৃশ্যপট। বিরতি থেকে ফেরার পর কাসুন রাজিথার ওভারের প্রথম বলেই দিকভেলার হাতে ক্যাচ তুলে দেন ৮৮ রান করা লিটন।

লিটনের বিদায়ের পর আগের দিনের ইনজুরিতে পড়া তামিম নামেন মাঠে। ১৩৩৩ রানে অপরাজিত ছিলেন তিনি। তবে মাঠে নেমে প্রথম বলেই তাকে ফের ফিরতে হয় সাজঘরে। রাজিথার দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে স্টাম্প হারান তামিম।

আর এতে চোখের পলকেই পাঁচ উইকেট নেই বাংলাদেশের।

আরও পড়ুন:
তামিমের বদলে লিটনকে নিয়ে শেষ সেশনে বাংলাদেশ
তিন বছর পর তামিমের সেঞ্চুরি
তামিম-জয়ের ব্যাটে দুর্দান্ত বাংলাদেশ
বিশ্ব ফার্নান্দোর কনকাশন বদলি কাসুন রাজিথা
৫ বছর পর টেস্টে শতরানের উদ্বোধনী জুটি

মন্তব্য

খেলা
Bangladesh towards large collection

বড় সংগ্রহের দিকে বাংলাদেশ

বড় সংগ্রহের দিকে বাংলাদেশ
মধ্যাহ্ন বিরতিতে যাওয়ার আগ পর্যন্ত স্বাগতিকদের সংগ্রহ ৩ উইকেটের খরচায় ৩৮৫ রান। প্রথম ইনিংসে লঙ্কানদের চেয়ে ১২ রানে পিছিয়ে আছেন টাইগাররা।

চট্টগ্রাম টেস্টের চতুর্থ দিনের প্রথম সেশন শ্রীলঙ্কাকে বড় সংগ্রহের ইঙ্গিত দিয়ে শেষ করেছে বাংলাদেশ। মধ্যাহ্ন বিরতিতে যাওয়ার আগ পর্যন্ত স্বাগতিকদের সংগ্রহ ৩ উইকেটের খরচায় ৩৮৫ রান। প্রথম ইনিংসে লঙ্কানদের চেয়ে ১২ রানে পিছিয়ে আছে টাইগাররা।

২২২ বল খেলে ৮৫ রানে অপরাজিত রয়েছেন মুশফিকুর রহিম। আর তাকে ১৮৮ বল খেলে ৮৮ রান করে সঙ্গ দিচ্ছেন লিটন দাস।

তিন উইকেটে ৩১৮ রান নিয়ে চতুর্থ দিনের খেলা শুরু করে দিনের প্রথম থেকেই লঙ্কান বোলারদের দেখেশুনে খেলছিলেন মুশফিক ও লিটন।

এদিন মুশফিককে হাতছানি দিচ্ছিল প্রথম বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে ৫ হাজারি ক্লাবে প্রবেশের সুযোগ। সেই সুযোগ হাতছাড়া করতে বেশ সময় নেননি মুশি।

খেলা শুরুর ৩০ মিনিটের ভেতর প্রবেশ করেন পাঁচ হাজারি ক্লাবে। সেই সঙ্গে দলকে টেনে নিয়ে যেতে থাকেন লিডের দিকে। এ সময় ধৈর্যশীল ব্যাটিংয়ের মাধ্যমে তাকে সঙ্গ দিয়ে দলকে এগিয়ে নেয়ার কাজে সাহায্য করেন লিটন দাস।

শেষ পর্যন্ত ১২ রানে পিছিয়ে থেকে মধ্যাহ্ন বিরতিতে যায় বাংলাদেশ। আর সেই সঙ্গে পার করে দুর্দান্ত এক সেশন।

এর আগে দিনের শুরুতে বৃষ্টির কারণে মাঠ ভেজা থাকায় ২৮ মিনিট দেরিতে খেলা শুরু হয়। যার কারণে ৩০ মিনিট পিছিয়ে দেয়া হয় মধ্যাহ্ন বিরতির সময়।

আরও পড়ুন:
তিন বছর পর তামিমের সেঞ্চুরি
তামিম-জয়ের ব্যাটে দুর্দান্ত বাংলাদেশ
বিশ্ব ফার্নান্দোর কনকাশন বদলি কাসুন রাজিথা
৫ বছর পর টেস্টে শতরানের উদ্বোধনী জুটি
কিপটে বোলিংয়ের পরিকল্পনায় সফল টাইগাররা

মন্তব্য

খেলা
Mushfiqur in Panch Hazari Club

পাঁচ হাজারি ক্লাবে মুশফিক

পাঁচ হাজারি ক্লাবে মুশফিক পাঁচ হাজারি ক্লাবে নাম লেখানোর পথে মুশফিকের একটি কভার ড্রাইভ। ছবি: এএফপি
রেকর্ডবুকে নাম তুলতে মুশফিকের দরকার ছিল ৬৮ রান। সাগরিকা টেস্টের তৃতীয় দিন ব্যাট করতে নেমে সেই প্রয়োজন কমিয়ে আনেন মুশি ১৫ রানে। তৃতীয় দিন শেষে তিনি অপরাজিত ছিলেন ৫৩ রানে।

ব্যাট হাতে খুব একটা ভালো সময় যাচ্ছিল না জাতীয় দলের তারকা উইকেটরক্ষক ব্যাটার মুশফিকুর রহিম। এ কারণে সমালোচকদের কাঠগড়ায় দাঁড় হতে হয়েছে বেশ কয়েকবার।

গুঞ্জন ওঠে জাতীয় দল থেকে স্বেচ্ছা অবসরের, তবে সব সমালোচনার জবাব মুশফিক দেন ব্যাট হাতেই।

নিজের ৮১তম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে দলকে টেনে নিয়ে গেছেন লিডের পথে। সেই সঙ্গে বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটার হিসেবে টেস্ট ক্রিকেটে ৫ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন ডানহাতি এই ব্যাটার।

রেকর্ডবুকে নাম তুলতে মুশফিকের দরকার ছিল ৬৮ রান। সাগরিকা টেস্টের তৃতীয় দিন ব্যাট করতে নেমে সেই প্রয়োজন কমিয়ে আনেন মুশি ১৫ রানে। তৃতীয় দিন শেষে তিনি অপরাজিত ছিলেন ৫৩ রানে।

সাগরিকা টেস্টের চতুর্থ দিনের প্রথম সেশনেই মুশি প্রবেশ করেন পাঁচ হাজারি ক্লাবে। এর মধ্য দিয়ে একমাত্র বাংলাদেশি ব্যাটার হিসেবে অনন্য এই মাইকফলক স্পর্শ করলেন তিনি।

মুশির ঠিক পরই পাঁচ হাজারি ক্লাবে ঢোকার অপেক্ষায় রয়েছেন জাতীয় দলের ওপেনার তামিম ইকবাল। দেশসেরা এই ওপেনারের পাঁচ হাজারি ক্লাবে ঢুকতে আর মাত্র ১৯ রান প্রয়োজন।

২০১৮ সালের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটার হিসেবে টেস্ট ক্রিকেটে ৪ হাজার রানের মালিক হন তামিম। একই বছর ফিরতি সফরে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম ইনিংসে দ্বিতীয় ব্যাটার হিসেবে এই ক্লাবে প্রবেশ করেছিলেন মুশফিক।

সেবার মুশির আগে তামিম মাইলফলক স্পর্শ করেন। এবার তামিমের আগে রেকর্ডবুকে নাম তোলেন ডানহাতি এই ব্যাটার।

রেকর্ডবুকে এবারও তামিমের সম্ভাবনা ছিল প্রথম ব্যাটার হিসেবে নাম লেখানোর, কিন্তু কবজির ইনজুরিতে তৃতীয় দিন চা বিরতির পর আর মাঠে নামা হয়নি বাঁহাতি এই ব্যাটারের। এ কারণে ৫ হাজারি ক্লাবে প্রবেশের অপেক্ষাটা দীর্ঘ হয়েছে তার।

আরও পড়ুন:
তামিম-জয়ের ব্যাটে দুর্দান্ত বাংলাদেশ
বিশ্ব ফার্নান্দোর কনকাশন বদলি কাসুন রাজিথা
৫ বছর পর টেস্টে শতরানের উদ্বোধনী জুটি
কিপটে বোলিংয়ের পরিকল্পনায় সফল টাইগাররা
শক্ত অবস্থানে থেকে দিন শেষ করল বাংলাদেশ

মন্তব্য

খেলা
The fourth day of the Sagarika Test started late

দেরিতে শুরু সাগরিকা টেস্টের চতুর্থ দিনের খেলা

দেরিতে শুরু সাগরিকা টেস্টের চতুর্থ দিনের খেলা বৃষ্টিতে ঢাকা জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামের উইকেট। ফাইল ছবি
মাঠ ভেজা থাকায় নির্ধারিত সময়ের ২৮ মিনিট পর শুরু হয়েছে খেলা। অর্থাৎ সকাল ১০টায় খেলা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও সেটি মাঠে গড়িয়েছে ১০টা ২৮ মিনিটে।

চট্টগ্রাম টেস্টের চতুর্থ দিন শুরুর আগেই হানা দিয়েছে বৃষ্টি। মাঠ ভেজা থাকায় নির্ধারিত সময়ের ২৮ মিনিট পর শুরু হয়েছে খেলা।

সকাল ১০টায় খেলা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও সেটি মাঠে গড়িয়েছে ১০টা ২৮ মিনিটে।

তৃতীয় দিন শেষে ৩ উইকেট হারিয়ে ৩১৮ রানের পুঁজি পেয়েছে টাইগাররা।

সফরকারীদের চেয়ে ৭৯ রানে পিছিয়ে রয়েছে স্বাগতিক দল। দিন শেষে ৫৩ রানে অপরাজিত রয়েছেন মুশফিকুর রহিম। ৫৪ রানে তাকে সঙ্গ দিচ্ছেন লিটন দাস।

এর আগে টসে জিতে ব্যাট করতে নেমে প্রথম ইনিংসে ৩৯৭ রানের পুঁজি পায় শ্রীলঙ্কা। দলের হয়ে ১৯৯ রান করেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস।

বাংলাদেশের হয়ে ছয়টি উইকেট পান নাঈম হাসান। তিনটি নেন সাকিব আল হাসান। একটি যায় তাইজুল ইসলামের ঝুলিতে।

আরও পড়ুন:
বিশ্ব ফার্নান্দোর কনকাশন বদলি কাসুন রাজিথা
৫ বছর পর টেস্টে শতরানের উদ্বোধনী জুটি
কিপটে বোলিংয়ের পরিকল্পনায় সফল টাইগাররা
শক্ত অবস্থানে থেকে দিন শেষ করল বাংলাদেশ
১৫ মাস পর ফিরে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং নাঈমের

মন্তব্য

খেলা
Villiers and Gayle receive Hall of Fame awards

আইপিএলের ‘হল অফ ফেইম’ পেলেন ভিলিয়ার্স-গেইল

আইপিএলের ‘হল অফ ফেইম’ পেলেন ভিলিয়ার্স-গেইল রয়েল চ্যালেঞ্জার বেঙ্গালুরুতে ব্যাটিং করছেন গেইল ও ভিলিয়ার্স। ফাইল ছবি
দক্ষিণ আফ্রিকান লিজেন্ড ডি ভিলিয়ার্স ২০১১ থেকে ২০২১ সাল পর্যন্ত বেঙ্গালুরুতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে, আর বাঁহাতি গেইল এই ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে খেলেছেন ছয় বছর, ২০১১ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত।

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে সম্মাননা দেয়ার জন্য রয়েল চ্যালেঞ্জার বেঙ্গালুরু প্রথমবারের মত চালু করল ‘হল অফ ফেইম’। আইপিএলকে জনপ্রিয় করার পেছনে এবি ডি ভিলিয়ার্স ও ক্রিস গেইলের অবদানকে সম্মান দিতেই দলের সাবেক অধিনায়ক বিরাট কোহলি এ ঘোষণা দেন।

মঙ্গলবার প্রথম আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি হিসেবে ‘হল অব ফেইম’ স্থান পেলো টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের মারকুটে দুই ব্যাটার। আরসিবির হয়েও দীর্ঘদিন খেলেছেন দুই তারকা।

ফ্র্যাঞ্চাইজির ওয়েবসাইটে কোহলি বলেন, ‘এবি তার উদ্ভাবন, বুদ্ধিমত্তা ও খেলাধুলা দিয়ে ক্রিকেটকে সত্যিই পরিবর্তন করেছেন, যা আরসিবির সাহসী খেলার দর্শনকে সংজ্ঞায়িত করে।’

আইপিএলের শুরু থেকেই এই দুই হার্ড হিটার ব্যাটার যেভাবে দর্শকদের মাতিয়ে রেখেছেন তার ব্যাখ্যা দিয়ে কোহলি বলেন, ‘আপনাদের দুজনের জন্য এটি করতে পারা আমার জন্য সত্যিই বিশেষ কিছু। আমি ১১ বছর এবিডির সঙ্গে খেলেছি। ৭ বছর ক্রিস গেলের সঙ্গে খেলেছি। দুজনের সঙ্গেই যাত্রা হয়েছিল ২০১১ সাল থেকে। দুজনেই দারুণ পারফর্মার।’

দক্ষিণ আফ্রিকান লিজেন্ড ডি ভিলিয়ার্স ২০১১ থেকে ২০২১ সাল পর্যন্ত বেঙ্গালুরুতে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করেছে, আর বাঁহাতি গেইল এই ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে খেলেছেন ছয় বছর, ২০১১ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত।

সাবেক ফ্র্যাঞ্চাইজি আরসিবি থেকে এই সম্মান পেয়ে গর্বিত দুই তারকা।

বিশেষ সম্মান পেয়ে আপ্লুত গেইল এবং ডি’ভিলিয়ার্স দুজনেই। ডি ভিলিয়ার্স বলছেন, ‘সত্যি কথা বলতে অভাবনীয় অনুভূতি হচ্ছে। আমি এখন ক্রিকেটের বাইরে, এই সম্মান পেয়ে আমি আবেগঘন হয়ে পড়েছি।’

ক্রিস গেইল বলেন, ‘আমি আরসিবিকে ধন্যবাদ জানাব। আমি সবসময় আরসিবিকে আমার হৃদয়ের কাছে রাখব।’

আরও পড়ুন:
ইনজুরিতে আইপিএল শেষ কামিন্সের
খরুচে মুস্তাফিজের দিনে হারল দিল্লি
আইপিএল ক্যারিয়ারে ফিজের দ্বিতীয় সেরা বোলিং
মুস্তাফিজের খরুচে বোলিংয়ের পর হারল দিল্লি
মুস্তাফিজদের দলে করোনার হানা

মন্তব্য

উপরে