রিকার্ভের পুরুষ ও নারী ইভেন্টে ব্রোঞ্জ বাংলাদেশের

রিকার্ভের পুরুষ ও নারী ইভেন্টে ব্রোঞ্জ বাংলাদেশের

ব্রোঞ্জ জেতা বাংলাদেশের তিন নারী আর্চার দিয়া সিদ্দিকী, বিউটি রায় ও নাসরিন আক্তার। ছবি: বাসস

রিকার্ভ নারীদের টিম ইভেন্টে ভিয়েতনামকে ৫-৩ সেটে হারিয়ে ব্রোঞ্জ জেতে বাংলাদেশ। পুরুষদের টিম ইভেন্টে কাজাখস্তানকে ৬-২ সেটে হারিয়ে ব্রোঞ্জ জয় করে স্বাগতিক দল।

এশিয়ান আর্চারিতে বাংলাদেশের হয়ে প্রথম পদক জিতে ইতিহাস গড়লেন তিন নারী আর্চার দিয়া সিদ্দিকী, নাসরিন আক্তার ও বিউটি রায়। ২২তম এশিয়ান আর্চারি চ্যাম্পিয়নশিপ ২০২১ এর পঞ্চম দিন বুধবার তাদের হাত ধরে প্রথম পদকের দেখা পায় বাংলাদেশ।

সকালে বাংলাদেশ আর্মি স্টেডিয়ামে রিকার্ভ নারীদের টিম ইভেন্টে ভিয়েতনামকে ৫-৩ সেটে হারিয়ে ব্রোঞ্জ জেতে বাংলাদেশ।

এশিয়ান আর্চারিতে বাংলাদেশের হয়ে প্রথম পদক জয়ে উচ্ছ্বসিত আর্চাররা। ভিয়েতনামের বিপক্ষে ম্যাচের শুরু থেকেইআত্মবিশ্বাসী ছিলেন বলে সংবাদমাধ্যমকে জানান দিয়া।

তিনি বলেন,‘আমাদের তিন জনের মধ্যে একটা আত্মবিশ্বাস ছিল। অনেক খুশি যে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের মত আসরে এই প্রথম ব্রোঞ্জ মেডেল এল। আমরা ফাইনালে উঠেছি ও তিন জন মিলেই ব্রোঞ্জ জিতেছি।’

আসরের পঞ্চম দিনে বাংলাদেশের সাফল্য সেখানেই থেমে থাকেনি। একই ইভেন্টে কিছুক্ষণ পর পুরুষরা পদকের দেখা পান।

রিকার্ভ পুরুষদের টিম ইভেন্টে কাজাখাস্তানকে ৬-২ সেটে হারিয়ে ব্রোঞ্জ জিতে নেন বাংলাদেশের রোমান সানা, হাকিম আহমেদ রুবেল ও রামকৃষ্ণ সাহা।

বাংলাদেশ এর আগে বিশ্বকাপে পদক জয় করেছে, সরাসরি অলিম্পিকে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে। তবে এশিয়ান আর্চারিতে এবারই এলো পদক।

পদক জয়ের পর বাংলাদেশের সেরা আর্চার রোমান সানা বলেন ভারত বা কোরিয়ার মতো শক্তিশালী না হলেও তারা উন্নতি করছেন। ডাচ কোচ মার্টিন ফ্রিডরিখকে সাফল্যের কৃতিত্ব দেন সানা।

বলেন, ‘ফ্রিডরিখ আসার পর থেকে আমরা আরও আত্মবিশ্বাসী হয়েছি। অনেকগুলো টুর্নামেন্ট খেলছি। আগেও বলেছি যে, পদক জেতার এবার বড় সুযোগ রয়েছে। সে স্বপ্নটা পূরণ করতে পেরেছি ও লক্ষ্য অর্জন করতে পেরেছি। এই আসরে এই প্রথম পদক জিতেছি যা আমাদের ক্রীড়াঙ্গনের জন্য বড় একটা সাফল্য।’

রিকার্ভের মিক্সড ডাবলসের টিম ইভেন্টে স্বর্ণ জয়ের সম্ভাবনা আছে বাংলাদেশের। ফাইনালে কোরিয়ার বিপক্ষে খেলবেন বাংলাদেশের দিয়া ও হাকিম রুবেল।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

মন্তব্য

মেরিনার্সকে হারিয়ে লিগ জমিয়ে দিল আবাহনী

মেরিনার্সকে হারিয়ে লিগ জমিয়ে দিল আবাহনী

আবাহনীর বিপক্ষে মেরিনার্সের বল দখলের লড়াই। ছবি: সংগৃহীত

পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা দলকে রোমাঞ্চকরভাবে হারিয়ে শিরোপা জেতার লড়াইয়ে টিকে রইল ঢাকা আবাহনী। মওলানা ভাসানী জাতীয় হকি স্টেডিয়ামে বৃহস্পতিবার লিগের সুপার ফাইভের ম্যাচে মেরিনার্সকে ৪-৩ গোলে হারায় আবাহনী।

হকিতে জমে উঠেছে লিগের শিরোপার লড়াই। ড্র বা জিতলেই চ্যাম্পিয়ন এমন যখন হিসেব তখন বড় ধাক্কা খেল মেরিনার ইয়াংস ক্লাব। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা দলকে রোমাঞ্চকরভাবে হারিয়ে শিরোপা জেতার লড়াইয়ে টিকে রইল ঢাকা আবাহনী।

মওলানা ভাসানী জাতীয় হকি স্টেডিয়ামে বৃহস্পতিবার লিগের সুপার ফাইভের ম্যাচে মেরিনার্সকে ৪-৩ গোলে হারায় আবাহনী।

আগের ম্যাচে মোহামেডানকে হারিয়ে শিরোপা লড়াইয়ে দারুণ ভাবে ফেরে আবাহনী। বৃহস্পতিবার আকাশী-নীল জার্সিধারীদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দাঁড়ায় মেরিনার্সের বিপক্ষে ম্যাচটি। এ যাত্রায়ও সফল দেশের শীর্ষস্থানীয় দলটি।

আবাহনীকে বিপক্ষে ড্র করলে এক ম্যাচ হাতে রেখে প্রিমিয়ার ডিভিশন হকি লিগের শিরোপা ঘরে তুলতো মেরিনার্স। সোহানুর রহমান সোহানের হ্যাটট্রিকে সে পথেই ছিল তারা। তবে শেষ দুই মিনিটের নাটকে অপেক্ষা বাড়ল তাদের।

ম্যাচের মাঝে রেফারির সিদ্ধান্ত নিয়ে যথারীতি অসন্তোষ। খেলা বন্ধও থাকল আধা ঘণ্টারও বেশি সময়। মাঠের লড়াইও হলো জমজমাট।

সপ্তম মিনিটে বৃত্তের বাইরে থেকে বিয়র্ন কেলারমানের হিট সরাসরি ঠিকানা খুঁজে পেলে গোল দেন রেফারি। কিন্তু প্রশ্ন ওঠে কেলারমানের শট বৃত্তের ভেতর থাকা রোমান সরকারের স্টিক ছুঁয়ে গেছে কিনা।

রিভিউয়ে দেখা যায়, রোমানের স্টিক স্পর্শ করেনি বল। বাতিল হয় গোল। এই সিদ্ধান্তের জেরে খেলা বন্ধ থাকে আধ ঘণ্টারও বেশি সময়। পুনরায় খেলা শুরুর পরপরই পেনাল্টি স্ট্রোক থেকে আবাহনীকে এগিয়ে নেন কেলারমান।

সমতায় ফিরতে খুব একটা সময় নেয়নি মেরিনার্স। ম্যাচের ১৫ মিনিটের পেনাল্টি কর্নার থেকে গোল করে তারা। মিলন হোসেনের পুশ সুখজিৎ সিং স্টপ করার পর সোহানের হিট ঠিকানা খুঁজে নেয়। তিন মিনিট পর পেনাল্টি কর্নারে থেকে সরাসরি গোল না পেলেও আক্রমণ থেকে ব্যবধান বাড়ান সোহান।

ম্যাচের ২৫তম মিনিটে মরিস আলফনসোর গোলে সমতায় ফিরে আবাহনী। একটু পর প্রতিপক্ষের স্বস্তি কেড়ে নেয় মেরিনার্স। পেনাল্টি কর্নার থেকে লক্ষ্যভেদ করে হ্যাটট্রিক পূরণ করেন সোহানুর।

চতুর্থ কোয়ার্টারের শেষ দিকে মেরিনার্সকে চাপে রাখে আবাহনী। পেনাল্টি কর্নার থেকে লক্ষ্যভেদ করেন খোরশেদুর রহমান। শেষ বাঁশি বাজার মাত্র দুই সেকেন্ড আগে পিসি পায় আবাহনী। তা থেকেই লক্ষ্যভেদ করেন খোরশেদ।

দুর্দান্ত এক জয়ের আনন্দে মেতে ওঠে আকাশী-নীল দলের সমর্থকরা।

নিজেদের শেষ ম্যাচে শনিবার মোহামেডান স্পোর্টিংয়ের মুখোমুখি হবে মেরিনার্স। ওই ম্যাচে ড্র করলে শিরোপা জিতবে তারা। হারলেও সুযোগ থাকবে। সেক্ষেত্রে প্লে-অফের প্রতিপক্ষের বিপক্ষে জিততে হবে।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

১৬ ডিসেম্বর ঢাকায় হচ্ছে না ভারত-পাকিস্তান দ্বৈরথ

১৬ ডিসেম্বর ঢাকায় হচ্ছে না ভারত-পাকিস্তান দ্বৈরথ

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের দৃশ্য। ছবি: এএফপি

নিরাপত্তাজনিত কারণ দেখিয়ে ম্যাচটি পেছানোর আবেদন করেছিল বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন (বাহফে)। তাদের ডাকে সাড়া দিয়েছে এশিয়ান হকি কনফেডারেশন। ফলে পিছিয়ে যাচ্ছে ম্যাচটি। তবে কবে মাঠে গড়াবে ম্যাচটি তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি।

বিজয় দিবসের দিন ১৬ ডিসেম্বর এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ হওয়ার কথা ছিল ঢাকায়। নিরাপত্তাজনিত কারণ দেখিয়ে ম্যাচটি পেছানোর আবেদন করেছিল বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন (বাহফে)। তাদের ডাকে সাড়া দিয়েছে এশিয়ান হকি কনফেডারেশন।

ফলে পিছিয়ে যাচ্ছে ম্যাচটি। তবে কবে মাঠে গড়াবে ম্যাচটি তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি।

বুধবার রাতে বিষয়টি জানিয়েছেন বাহফের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ হক।

তিনি বলেন, ‘বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে অংশ নিতে অনেক দেশের রাষ্ট্রপ্রধান ১৬ ডিসেম্বর ঢাকায় থাকবেন। যে কারণে ভারত ও পাকিস্তানের মতো দুই দলের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা দেয়া কঠিন।

‘এ জন্যই আমরা ওই দিনের তিনটি ম্যাচ পিছিয়ে দেয়ার অনুরোধ করেছিলাম। এশিয়ান হকি ফেডারেশন আমাদের আবেদনে সাড়া দিয়েছে।’

ঢাকায় ১৪ ডিসেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ষষ্ঠ আসর। চলবে ২২ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

এ আন্তর্জাতিক আসরে অংশ নেবে বাংলাদেশ, জাপান, ভারত, পাকিস্তান, দক্ষিণ কোরিয়া ও মালয়েশিয়া। টুর্নামেন্টের সবগুলো ম্যাচ হবে মওলানা ভাসানী জাতীয় হকি স্টেডিয়ামে।

২১ ডিসেম্বর হবে দুটি সেমি-ফাইনাল। পঞ্চম স্থান নির্ধারণী ম্যাচও হবে একই দিনে। ২২ ডিসেম্বর হবে ফাইনাল।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

মোহামেডানকে হারিয়ে আবাহনীর মধুর প্রতিশোধ

মোহামেডানকে হারিয়ে আবাহনীর মধুর প্রতিশোধ

গোলের পর আবাহনীর উদযাপন। ছবি: সংগৃহীত

১৪টি পেনাল্টি কর্নার ও একটি পেনাল্টি স্ট্রোকেও আবাহনীকে হারাতে পারেনি মতিঝিলের ঐতিহ্যবাহী দলটি। অপরদিকে সুযোগ যা এসেছে তার অধিকাংশই কাজে লাগাতে পেরেছে আবাহনী। সে সুবাদে মঙ্গলবার প্রিমিয়ার ডিভিশন হকি লিগের সুপার ফাইভের ম্যাচে ৪-২ গোলে জিতে গেছে আবাহনী।

ম্যাচের রেজাল্ট বলছে ৪-২ ব্যবধানে আবাহনীর কাছে হেরেছে মোহামেডান। তবে ডমিনেটিং খেলেছে সাদা-কালো শিবির।

১৪টি পেনাল্টি কর্নার আর একটি পেনাল্টি স্ট্রোকের সুযোগ পেয়েও আবাহনীকে হারাতে পারেনি মতিঝিলের ঐতিহ্যবাহী দল মোহামেডান।

অপরদিকে সুযোগ যা এসেছে তার অধিকাংশই কাজে লাগাতে সফল হয়েছে আবাহনী। তারই পরিপ্রেক্ষিতে মওলানা ভাসানী জাতীয় হকি স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার প্রিমিয়ার ডিভিশন হকি লিগের সুপার ফাইভের ম্যাচে ৪-২ গোলে জিতে গেছে আবাহনী।

এ জয়ে প্রথম লেগের ডার্বিতে ৪-০ ব্যবধানের হারের মধুর প্রতিশোধ নিয়েছে তারা।

ম্যাচের শুরুটা গোল দিয়ে করেছে আবাহনী। প্রথম পেনাল্টি কর্নারটাই কাজে লাগিয়েছে শিতুল-খোরশেদরা। মোহাম্মদ রিজওয়ানের পুশ ডাচ খেলোয়াড় ইয়ান ভাগস স্টপ করার পর দারুণ ড্রাগ ফ্লিকে বল লক্ষ্যে পাঠান খোরশেদুর রহমান।

পরপর আরও দুটি পেনাল্টি কর্নারের সুযোগ নষ্ট করার পর সমতায় ফেরে মোহামেডান। সুনীল সোমারপিতের পুশে সারোয়ার হোসেন স্টপ করার পর পেইয়াতের শট সঠিক নিশানা খুঁজে পায়।

সমতায় দুলতে থাকা ম্যাচটিতে আবারও লিড নেয় আবাহনী। এবার ম্যাচের ২৮ মিনিটে ডি-বক্সের ভেতর থেকে নেয়া কেলারমানের হিটে ওঁৎ পেতে থাকা আরশাদ হোসেনের স্টিক ছুঁয়ে বল ঠিকানা খুঁজে পেলে স্কোর বাড়ে আবাহনীর।

পিছিয়ে পড়া মোহামেডান যখন সমতায় ফিরতে মরিয়া তখন আরেকটি ধাক্কা দেয় আবাহনী। এবার ম্যাচের ৩৪তম মিনিটে পাওয়া দ্বিতীয় পেনাল্টি কর্নার থেকে খোরশেদের গোলে ব্যবধান ৩-১ করে ফেলে আকাশি-নীলরা।

তার ঠিক পাঁচ মিনিট পর পেনাল্টি স্ট্রোক পেয়ে যায় মোহামেডান। কিন্তু লিড নেয়ার সুবর্ণ সুযোগটি হাতছাড়া হয় তাদের। পেইয়েতের শট দারুণ ডাইভে রুখে দিয়ে আবাহনীকে রক্ষা করেন গোলকিপার আবু সাইদ নিপ্পন।

থেমে থাকেনি মোহামেডানের আক্রমণ। তৃতীয় ও চতুর্থ কোয়ার্টারে বলা চলে আবাহনীর ওপর দাপট নিয়ে খেলে মোহামেডান।

তৃতীয় কোয়ার্টারের শেষ দিকে পিসি থেকে পেইয়াতের লক্ষ্যভেদে জমে ওঠে ম্যাচ। ৩-২ ব্যবধান ম্যাচ তখন মোড় নেয় কঠিন উত্তেজনায়।

কিন্তু ম্যাচের অন্তিম মুহূর্তে ৫৮ মিনিটে পাল্টা আক্রমণে কোলামানের গোলে ম্যাচটা আচমকাই ৪-২ করে ফেলে আবাহনী। এখানেই মূলত শেষ হয়ে যায় মোহামেডানের ফেরার আশা।

শেষ পর্যন্ত জয়ের উল্লাসে মেতে মাঠ ছাড়ে আবাহনী।

১৪ ম্যাচে ৩৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলে দ্বিতীয় স্থানে আছে তারা। এক ম্যাচ কম খেলা মোহামেডান ৩৩ পয়েন্ট নিয়ে আছে তৃতীয় স্থানে। ২ ম্যাচ কম খেলে ৩৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে মেরিনার্স।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

চাঁদপুরে শুরু অনূর্ধ্ব ১৯ জাতীয় যুব কাবাডি

চাঁদপুরে শুরু অনূর্ধ্ব ১৯ জাতীয় যুব কাবাডি

টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে মতলব উত্তর উপজেলা দল মুখোমুখি হয় শাহরাস্তি উপজেলা দলের। ছবি: নিউজবাংলা

উদ্বোধনী খেলায় মতলব উত্তর উপজেলা দল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে শাহরাস্তি উপজেলা দলের সঙ্গে। খেলায় মতলব উত্তর উপজেলা দলকে ৩৫-১৫ পয়েন্টে হারিয়েছে শাহরাস্তি উপজেলা দল। কাবাডি প্রতিযোগিতায় চাঁদপুরের ৮টি থানা দল অংশগ্রহণ করে।

চাঁদপুরে শুরু হয়েছে অনূর্ধ্ব ১৯ আইজিপি কাপ জাতীয় যুব কাবাডি প্রতিযোগিতা। মঙ্গলবার সকালে চাঁদপুর স্টেডিয়ামে বেলুন উড়িয়ে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ।

উদ্বোধনী খেলায় মতলব উত্তর উপজেলা দল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে শাহরাস্তি উপজেলা দলের সঙ্গে। খেলায় মতলব উত্তর উপজেলা দলকে ৩৫-১৫ পয়েন্টে হারিয়েছে শাহরাস্তি উপজেলা দল। কাবাডি প্রতিযোগিতায় চাঁদপুরের ৮টি থানা দল অংশ গ্রহণ করে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ বলেন, ‘করোনায় দীর্ঘদিন চাঁদপুরে খেলাধুলা হয়নি। বর্তমানে করোনা অনেকটা কমে গেছে। এখন আগের খেলাধুলা চলমান রাখা হবে। খেলার মাধ্যমে উৎসবমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়। সুস্থ থাকার জন্য খেলাধুলা প্রয়োজন।

তিনি আরও যোগ করেন, ‘মোবাইল, মাদকাসক্তি, কিশোর গ্যাং মুক্ত যুব সমাজ গড়ে তুলতে বেশি করে খেলাধুলার আয়োজন করতে হবে। এই আয়োজন থেকে নতুন দিনের তারকা খেলোয়াড় বেরিয়ে আসবে বলে বিশ্বাস করি।’

পুলিশ সুপার মো. মিলন মাহমুদের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা বাবুসহ অন্যরা।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

ঢাকায় ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ পেছানোর আবেদন বাহফের

ঢাকায় ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ পেছানোর আবেদন বাহফের

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের মুহূর্ত। ছবি: এএফপি

নিরাপত্তা ইস্যুতে এশিয়ান হকি কনফেডারেশনের কাছে ম্যাচটি পিছিয়ে অন্য কোনো দিনে নেয়ার আবেদন করেছে দেশের হকির সর্বোচ্চ অভিভাবক সংস্থা। সোমবার সন্ধ্যায় নিউজবাংলাকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ হক।

ঢাকায় ১৪ ডিসেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ষষ্ঠ আসর। সূচি অনুযায়ী ১৬ ডিসেম্বর হওয়ার কথা ছিল ভারত-পাকিস্তান ম্যাচটি। এ ম্যাচ পেছাতে চায় বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন (বাহফে)।

নিরাপত্তা ইস্যুতে এশিয়ান হকি কনফেডারেশনের কাছে ম্যাচটি পিছিয়ে অন্য কোনো দিনে নেয়ার আবেদন করেছে দেশের হকির সর্বোচ্চ অভিভাবক সংস্থাটি।

নিউজবাংলাকে সোমবার সন্ধ্যায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ হক।

তিনি বলেন, ‘যেহেতু ১৬ ডিসেম্বর আমাদের বিজয় দিবস, এ দিন দেশজুড়ে নিরাপত্তার জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যস্ত থাকবে ও একই সঙ্গে বঙ্গভবন ব্যস্ত থাকবে। যেহেতু বঙ্গভবন আমাদের স্টেডিয়ামের পাশে, তাই এ দিন এই অঞ্চলে চলাফেরা নিয়ে কড়াকড়ি থাকবে। সে জন্য আমরা ম্যাচটি পেছানোর আবেদন করেছি।’

করোনাভাইরাসের জন্য কয়েক দফা পেছানো হয় চ্যাম্পিয়নস ট্রফি। শেষ পর্যন্ত আগামী ১৪ থেকে ২২ ডিসেম্বর পর্যন্ত ঢাকায় আয়োজন করার সূচি চূড়ান্ত করা হয়।

এ আন্তর্জাতিক আসরে অংশ নেবে বাংলাদেশ, জাপান, ভারত, পাকিস্তান, দক্ষিণ কোরিয়া ও মালয়েশিয়া। টুর্নামেন্টের সবগুলো ম্যাচ হবে মওলানা ভাসানী জাতীয় হকি স্টেডিয়ামে।

বিজয় দিবসে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে হকি ম্যাচ আয়োজন না করতে আহ্বান জানিয়েছিল বিভিন্ন মহল। এর মধ্যেই ম্যাচের সূচি পরিবর্তনের আহ্বান এলো।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

কোরিয়ার শ্রেষ্ঠত্বে শেষ হলো এশিয়ান আর্চারি

কোরিয়ার শ্রেষ্ঠত্বে শেষ হলো এশিয়ান আর্চারি

কোরিয়ার আর্চারকে পদক পরিয়ে দিচ্ছেন বাংলাদেশ আর্চারি ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক কাজী রাজীব উদ্দীন আহমেদ চপল। ছবি: বাসস

ইভেন্টের ১০টি স্বর্ণের ৯টিই জিতেছে কোরিয়া। ১টি স্বর্ণপদক জিতেছে ভারত। স্বাগতিক বাংলাদেশ ১টি রৌপ্য ও ২টি ব্রোঞ্জসহ মোট ৩টি পদক জিতেছে।

কোরিয়ার শ্রেষ্ঠত্বের মধ্য দিয়ে শেষ হলো সাত দিনের ২২তম এশিয়ান আর্চারি চ্যাম্পিয়নশিপ ২০২১। বাংলাদেশ আর্চারি ফেডারেশনের আয়োজনে এবারের আসরে মোট ১৬টি দেশ অংশগ্রহণ করে।

যার মধ্যে যৌথভাবে তৃতীয় স্থান লাভ করেছে স্বাগতিক বাংলাদেশ ও কাজাখস্তান। দ্বিতীয় হয়েছে ভারত।

১০টি ইভেন্টের পদকের জন্য লড়াই করেন ১২২ জন আর্চার। ইভেন্টের ১০টি স্বর্ণের ৯টিই জিতেছে কোরিয়া। ১টি স্বর্ণপদক জিতেছে ভারত।

স্বাগতিক বাংলাদেশ ১টি রৌপ্য ও ২টি ব্রোঞ্জসহ মোট ৩টি পদক জিতেছে।

কোরিয়া ৯টি স্বর্ণ, ৩টি রৌপ্য, ৩টি ব্রোঞ্জসহ মোট ১৫টি পদক জয় করে। ভারত ১টি স্বর্ণ, ৪টি রৌপ্য ও ২টি ব্রোঞ্জসহ মোট ৭টি পদক জেতে।

স্বাগতিক বাংলাদেশ ১টি রৌপ্য ও ২টি ব্রোঞ্জসহ মোট ৩টি পদক জয় করেছে। কাজাখস্তানও একই সমান ১টি রৌপ্য ও ২টি ব্রোঞ্জসহ ৩টি পদক লাভ করে। এ ছাড়া ইরান ১টি রৌপ্য ও ১টি ব্রোঞ্জসহ মোট ২টি পদক জিতেছে।

স্বর্ণ না জিতলেও এশিয়ান আর্চারির আসরে এই প্রথম রৌপ্যপদক জিতেছে বাংলাদেশ। রিকার্ভ মিক্সড ডাবলস ইভেন্টে দিয়া সিদ্দিকী ও হাকিম আহমেদ রুবেলের হাত ধরে এসেছে স্বাগতিকদের সেরা সাফল্য।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন

স্বর্ণ হাতছাড়া হলো দিয়া-রুবেলের

স্বর্ণ হাতছাড়া হলো দিয়া-রুবেলের

বাংলাদেশের দুই আর্চার দিয়া সিদ্দিকী ও হাকিম রুবেল। ফাইল ছবি

রিকার্ভ মিক্সড ডাবলস ইভেন্টের ফাইনালে কোরিয়ার কাছে ৫-১ সেট পয়েন্টে হেরে গেছেন বাংলাদেশের দুই আর্চার দিয়া সিদ্দিকী ও হাকিম আহমেদ রুবেল। স্বর্ণ না জিতলেও এশিয়ান আর্চারির আসরে এই প্রথম রৌপ্য পদক জিতেছে বাংলাদেশ।

এশিয়ান আর্চারির ফাইনালে রৌপ্য পদক জিতে সন্তুষ্ট থাকতে হলো বাংলাদেশকে। রিকার্ভ মিক্সড ডাবলস ইভেন্টের ফাইনালে কোরিয়ার কাছে ৫-১ সেট পয়েন্টে হেরে গেছেন বাংলাদেশের দুই আর্চার দিয়া সিদ্দিকী ও হাকিম আহমেদ রুবেল।

স্বর্ণ না জিতলেও এশিয়ান আর্চারির আসরে এই প্রথম রৌপ্য পদক জিতেছে বাংলাদেশ। দিয়া ও রুবেলের হাত ধরে এসেছে আসরের সেরা সাফল্য।

বাংলাদেশে আয়োজিত ২২ তম এশিয়ান আর্চারির টুর্নামেন্টের শেষ দিনের খেলা অনুষ্ঠিত হয় আর্মি স্টেডিয়ামে। শুক্রবার দিনের তৃতীয় ইভেন্ট রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে স্বর্ণের লড়াইয়ে নামেন বাংলাদেশের দিয়া-রুবেল জুটি ও কোরিয়ার রিউ সু জুং-লি সিউং ইউন জুটি।

ফাইনালে কোরিয়ান প্রতিপক্ষের সঙ্গে পেরে ওঠেননি বাংলাদেশের জুটি। রৌপ্য পদক নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয় তাদের।

বুধবার রিকার্ভ দলগত মহিলা ও পুরুষ ইভেন্টে ব্রোঞ্জ পদক জিতে এশিয়ান আসরে প্রথমবারের মত পদক তলিকায় নাম লেখায় বাংলাদেশের আর্চাররা।

আরও পড়ুন:
ভারতকে হারিয়ে রিকার্ভ মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে বাংলাদেশ
এশিয়ান আর্চারির রিকার্ভ একক থেকে বিদায় সানা ও দিয়ার
এশিয়ান আর্চারির কোয়ালিফায়ারে নবম সানা

শেয়ার করুন