× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য পডকাস্ট বাংলা কনভার্টার নামাজের সময়সূচি আমাদের সম্পর্কে যোগাযোগ প্রাইভেসি পলিসি

খেলা
Legspin is not in Bangladeshs plan for the World Cup
google_news print-icon

বিশ্বকাপে বাংলাদেশের পরিকল্পনায় নেই লেগস্পিন

বিশ্বকাপে-বাংলাদেশের-পরিকল্পনায়-নেই-লেগস্পিন
মুশফিকুর রহিমের সঙ্গে উইকেট উদযাপন করছেন আমিনুল ইসলাম। ফাইল ছবি
বৃহস্পতিবার দল ঘোষণার পর সংবাদ সম্মেলনে বিসিবি প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন জানান, বিশ্বকাপের মূল পরিকল্পনায় নেই লেগস্পিন।

বাংলাদেশের বিশ্বকাপের মূল পর্বে জায়গা করে নেয়ার লড়াই শুরু হচ্ছে ১৭ অক্টোবর। বিশ্বকাপের জন্য ১৫ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। এই ১৫ জনের সঙ্গে স্ট্যান্ডবাই রাখা হয়েছে পেইসার রুবেল হোসেন ও লেগস্পিনার আমিনুল ইসলামকে।

স্ট্যান্ডবাই থাকা আমিনুল ইসলামকে ছাড়া মূল দলে নেই কোনো লেগস্পিনার। বিশ্বকাপের মঞ্চে বাংলাদেশ যাচ্ছে লেগস্পিনার ছাড়া।

ইংল্যান্ড, সাউথ আফ্রিকা, অস্ট্রেলিয়ার মতো দলগুলোতে যেখানে মূল দলে রাখা হয়েছে লেগস্পিনার, সেখানে টাইগারদের লেগস্পিনার যাচ্ছেন স্ট্যান্ড বাই হিসেবে।

বৃহস্পতিবার দল ঘোষণার পর সংবাদ সম্মেলনে বিসিবি প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন জানান, বিশ্বকাপের মূল পরিকল্পনায় নেই লেগস্পিন।

তিনি বলেন, ‘লম্বা সময় কিন্তু সে অসুস্থ ছিল। সেখান থেকে সে ফিরে এসেছে। তারপরও ওকে আমরা নিয়ে যাচ্ছি। আমরা যে পরিকল্পনায় খেলব সেখানে তাকে বসানো যাচ্ছে না। তাই তাকে মূল দলে রাখা যায়নি।’

এদিকে টানা কয়েকটি সিরিজ দলের সঙ্গে থেকেও খেলার সুযোগ পাননি জাতীয় দলের পেইসার রুবেল হোসেন। চলতি বছরের মার্চে সবশেষ নিউজিল্যান্ড সিরিজে খেলেন রুবেল। এরপর দলের সঙ্গে থাকলেও একাদশে আর ডাক পাননি অভিজ্ঞ এই পেইসার।

মিনহাজুল জানান দলের কম্বিনেশনে বেশি পরিবর্তন আনতে ইচ্ছুক নয় টিম ম্যানেজমেন্ট। তবে অভিজ্ঞ খেলোয়াড় হওয়ায় বিকল্প হিসেবে রাখা হয়েছে রুবেলকে।

মিনহাজুল বলেন, ‘সবাইকে ১১ জনের মধ্যে খেলানো মুশকিল। দল যখন ভাল খেলতে থাকে তখন একাদশ বদল করতে চায় না ম্যানেজমেন্ট। তো ধারাবাহিক ভাবে ওই ১১ জনের ওপরই বিশ্বাস রাখা হয়। সেই হিসাবে রুবেল ম্যাচ পায়নি। কিন্তু সে অভিজ্ঞ ও সিনিয়র ক্রিকেটার। নিজেকে যেভাবে তৈরি রেখেছে তাতে যখন দরকার হবে আমরা ওর সেরা সার্ভিসটা পাব।’

আরও পড়ুন:
বিশ্বকাপ স্কোয়াডকে তামিমের অভিনন্দন
প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপে ছয় টাইগার
চমক ছাড়া বিশ্বকাপের ১৫ সদস্যের দল
যেকোনো উইকেটে বল করতে প্রস্তুত নাসুম
মাহেদীর সঙ্গে জুটি উপভোগ করেন নাসুম

মন্তব্য

আরও পড়ুন

খেলা
Stokes rare feat in Test history

টেস্ট ইতিহাসে বিরল কীর্তি স্টোকসের

টেস্ট ইতিহাসে বিরল কীর্তি স্টোকসের
হাঁটুর পুরনো ইনজুরির কারনে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে বোলিং করেননি স্টোকস। টেস্টে ইংল্যান্ড দলে ছয় বা সাত নম্বরে ব্যাটিং করতে নামেন স্টোকস। টপ-অর্ডারের দৃঢ়তায় ব্যাটিং করার সুযোগই পাননি তিনি।

১৪৬ বছরের টেস্ট ইতিহাসে বিরল কীর্তি গড়লেন ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বেন স্টোকস।

শনিবর লর্ডসে শেষ হওয়া আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের একমাত্র টেস্টে ব্যাটিং-বোলিং ও উইকেটরক্ষক হিসেবে কোনো কিছুতেই অবদান না রেখে ম্যাচ জয় করা বিশ্বের প্রথম অধিনায়ক হলেন স্টোকস।

হাঁটুর পুরনো ইনজুরির কারণে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে বোলিং করেননি স্টোকস। টেস্টে ইংল্যান্ড দলে ছয় বা সাত নম্বরে ব্যাটিং করতে নামেন স্টোকস। টপ-অর্ডারের দৃঢ়তায় ব্যাটিং করার সুযোগই পাননি তিনি।

প্রথম ইনিংসে ৪ উইকেটে ৫২৪ রান করে ইংল্যান্ড। চতুর্থ উইকেট পতনের পরই ইনিংস ঘোষনা করে ইংল্যান্ড। এজন্য আর ব্যাট হাতে নামতে হয়নি তাকে। দলে উইকেটরক্ষকের দায়িত্ব পালন করছেন জনি বেয়ারস্টো।

তাই ব্যাটিং-বোলিং ও উইকেটরক্ষকের দায়িত্ব পালন না করে অধিনায়কত্বের দায়িত্ব পালন করেও ম্যাচ ফি থেকে ১৬ হাজার পাউন্ড আয় করেছেন স্টোকস।
স্টোকসের এমন বিরল কীর্তির টেস্টে তিন দিনেই আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ১০ উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয় ইংল্যান্ড।

পায়ের পাতার ইনজুরির কারণে গত মাসে শেষ হওয়া ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) বেশিরভাগ ম্যাচই খেলতে পারেননি স্টোকস।

আগামী ১৬ জুন থেকে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে অ্যাশেজ শুরু করবে ইংল্যান্ড। আসন্ন সিরিজে বোলিং করার ব্যাপারে আশাবাদী স্টোকস। সূত্র: বাসস

আরও পড়ুন:
দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে ১ লাখ ডলার পাচ্ছে বাংলাদেশ
কঠিন পরিস্থিতিতে দলের জয়ে খুশি পাপন
আফগানিস্তান ক্রিকেট দল আসছে ১০ জুন

মন্তব্য

খেলা
Kohli mourns the train accident in Odisha

ওড়িশায় ট্রেন দুর্ঘটনায় কোহলির শোক

ওড়িশায় ট্রেন দুর্ঘটনায় কোহলির শোক ভারত জাতীয় দলের ব্যাটার বিরাট কোহলি। ছবি: আইসিসি
বিশ্বের অন্যতম সেরা ব্যাটার টুইটে লিখেন, ‘ওড়িশায় মর্মান্তিক ট্রেন দুর্ঘটনার খবর শুনে ব্যথিত। স্বজন হারানো পরিবারগুলোর জন্য আমার সমবেদনা ও প্রার্থনা। একই সঙ্গে আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।’

ভারতের ওড়িশার বালেশ্বরে শুক্রবার সন্ধ্যায় ট্রেন দুর্ঘটনায় প্রাণহানির ঘটনায় শনিবার শোক প্রকাশ করেছেন দেশটির জাতীয় দলের ব্যাটার বিরাট কোহলি।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টু্ইটারে এক পোস্টে কোহলি শোক জানান।

বিশ্বের অন্যতম সেরা ব্যাটার টুইটে লিখেন, ‘ওড়িশায় মর্মান্তিক ট্রেন দুর্ঘটনার খবর শুনে ব্যথিত। স্বজন হারানো পরিবারগুলোর জন্য আমার সমবেদনা ও প্রার্থনা। একই সঙ্গে আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।’

স্থানীয় সময় শুক্রবার সন্ধ্যায় ভারতের সাম্প্রতিক ইতিহাসের অন্যতম প্রাণঘাতী ট্রেন দুর্ঘটনায় পড়ে বেঙ্গালুরু-হাওড়া সুপারফাস্ট এক্সপ্রেস, শালিমার-চেন্নাই সেন্ট্রাল করমন্ডল এক্সপ্রেস ও মালবাহী একটি ট্রেন।

ওড়িশার মুখ্যসচিব জানান, কলকাতা থেকে ২৫০ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং ওড়িশার রাজধানী ভুবনেশ্বর থেকে ১৭০ কিলোমিটার উত্তরে শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এতে ২৩৮ জন নিহত ও প্রায় ৯০০ জন আহত হন।

আরও পড়ুন:
কলকাতা থেকে চেন্নাইগামী ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত অন্তত ৫০
অমিত শাহর সফরের আগে মণিপুরে সহিংসতায় নিহত ৫
বিরোধীদের বর্জনের মধ্যে পার্লামেন্ট ভবন উদ্বোধন মোদির
মহারাষ্ট্রে বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত ৭
২০০০ রুপির নোট বদলে নেয়া যাবে যেভাবে

মন্তব্য

খেলা
Bangladesh is getting 1 lakh dollars from the second Test Championship

দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে ১ লাখ ডলার পাচ্ছে বাংলাদেশ

দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে ১ লাখ ডলার পাচ্ছে বাংলাদেশ বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। ফাইল ছবি/বিসিবি
৯ দলের দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে সব মিলিয়ে ৩ দশমিক ৮ মিলিয়ন ডলার প্রাইজমানি নির্ধারণ করেছে আইসিসি। এর মধ্যে ১ লাখ ডলার পাবে বাংলাদেশ। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম আসরেও প্রাইজমানির পরিমাণ একই ছিল।

আগামী ৭ জুন ইংল্যান্ডের ওভালে দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে মুখোমুখি হবে ভারত ও অস্ট্রেলিয়া। এ ম্যাচ দিয়ে পর্দা নামবে দ্বিতীয় আসরের।

ফাইনালের আগে দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ২০২১-২৩ চক্রের প্রাইজমানি ঘোষণা করেছে ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। খবর বাসসের।

৯ দলের দ্বিতীয় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে সব মিলিয়ে ৩ দশমিক ৮ মিলিয়ন ডলার প্রাইজমানি নির্ধারণ করেছে আইসিসি। এর মধ্যে ১ লাখ ডলার পাবে বাংলাদেশ। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম আসরেও প্রাইজমানির পরিমাণ একই ছিল।

এবারের আসরের চ্যাম্পিয়ন দল পাবে ১ দশমিক ৬ মিলিয়ন ডলার। রানার্স-আপ দল পাবে ৮ লাখ ডলার। টেবিলের শীর্ষ দুই দল হিসেবে ফাইনালের টিকিট পায় ভারত ও অস্ট্রেলিয়া।

টেবিলের তৃতীয় স্থানে থকা দক্ষিণ আফ্রিকা পাবে ৪ লাখ ৫০ হাজার ডলার। চতুর্থ স্থানের দল ইংল্যান্ড পাবে ৩ লাখ ৫০ হাজার ডলার।

সিরিজের শেষ ম্যাচ পর্যন্ত টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের দৌড়ে ছিল শ্রীলংকা। শেষ পর্যন্ত ফাইনালের টিকিট পেতে ব্যর্থ হয় তারা। টেবিলের পঞ্চম স্থানে থাকায় ২ লাখ ডলার পাচ্ছে লঙ্কানরা।

টেবিলের ষষ্ঠ থেকে নবমস্থানে থাকা দলগুলো সমান এক লাখ ডলার করে পাবে। ষষ্ঠ থেকে নবমস্থানে থাকা দলগুলো হলো গেল আসরের চ্যাম্পিয়ন নিউজিল্যান্ড, পাকিস্তান, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও বাংলাদেশ।

প্রথম আসরের ফাইনালে ভারতকে ৮ উইকেটে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলো নিউজিল্যান্ড।

এবার টেবিলের ষষ্ঠ স্থানে কিউইরা। সপ্তম ও অষ্টমস্থান আছে যথাক্রমে পাকিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

টেবিলের নবম ও শেষস্থানে থেকে আসর শেষ করেছে বাংলাদেশ।

আরও পড়ুন:
কঠিন পরিস্থিতিতে দলের জয়ে খুশি পাপন
আফগানিস্তান ক্রিকেট দল আসছে ১০ জুন
পাকিস্তানের কাছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হার
ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের কোচ স্যামি
শ্রীলঙ্কার কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজও হারল বাংলাদেশ

মন্তব্য

খেলা
Papon is happy with the teams victory in difficult circumstances

কঠিন পরিস্থিতিতে দলের জয়ে খুশি পাপন

কঠিন পরিস্থিতিতে দলের জয়ে খুশি পাপন নাজমুল হাসান পাপন। ছবি: সংগৃহীত
পাপন বলেন, ‘দুর্দান্ত পারফরমেন্স ছিল। খেলোয়াড়রা সত্যিই ভালো খেলেছে। কিন্তু তাদের মনোভাবের জন্য আমি বিশেষভাবে খুশি। তাদের মধ্যে কখনও হেরে যাবার মনোভাব ছিল না। কঠিন পরিস্থিতিতে ম্যাচ জিতেছে তারা। এটি আমাদের আত্মবিশ্বাস বাড়াবে।’

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে জয়ের ধারা অব্যাহত রাখায় দলের পারফরমেন্সে খুশি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। বিশেষ করে কঠিন পরিস্থিতিতে ম্যাচ জয়ের কারণে বেশি খুশি হয়েছেন তিনি। তার মতে, এমন পরিস্থিতি বিশ্বকাপের আগে দলের আত্মবিশ্বাসকে আরও শক্তিশালী করবে।

বৃহস্পতিবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শারীরিক প্রতিবন্ধী ক্রিকেটের ফাইনাল ম্যাচের পর পুরস্কার বিতরণ শেষে তিনি এ সব কথা বলেন। খবর বাসসের

পাপন বলেন, ‘দুর্দান্ত পারফরমেন্স ছিল। খেলোয়াড়রা সত্যিই ভালো খেলেছে। কিন্তু তাদের মনোভাবের জন্য আমি বিশেষভাবে খুশি। তাদের মধ্যে কখনও হেরে যাবার মনোভাব ছিল না। কঠিন পরিস্থিতিতে ম্যাচ জিতেছে তারা। এটি আমাদের আত্মবিশ্বাস বাড়াবে।’

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচের সিরিজ ২-০ ব্যবধানে জিতেছে বাংলাদেশ। প্রথমটি বৃষ্টিতে ভেস্তে যাবার পর দ্বিতীয়টিতে আয়ারল্যান্ডকে ৩ উইকেটে হারিয়ে সিরিজে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ। তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে ৫ রানের রোমাঞ্চকর জয়ে সিরিজ জিতে নেয় টাইগাররা।

পাপন বলেন, ‘আমার মনে হয় বৃষ্টি না হলে আমরা প্রথম ম্যাচও জিততে পারতাম। আমরা দ্বিতীয় ম্যাচে মানসিক শক্তি প্রদর্শন করেছি এবং হারের মুখ থেকে ম্যাচটি জিতেছি। মুশফিক, হৃদয়, শান্তরা পুরো সিরিজেই ভালো ব্যাটিং করেছে।’

দল নিয়ে জিজ্ঞাসা করা হলে একজন স্পিনার খেলাতেন বলে জানান তৃতীয় ম্যাচের আগে দেশে ফেরা পাপন। তিনি বলেন, ‘ব্যক্তিগতভাবে আমার মনে হয়েছে, ইনজুরির কারণে সাকিব আল হাসান না থাকায় তৃতীয় ম্যাচে আমাদের একজন স্পিনার দরকার ছিলো। আমরা প্রথম দুই ম্যাচে তিনজন স্পিনার নিয়ে খেলেছি এবং এরপর হঠাৎ করেই তৃতীয় ম্যাচে একজন স্পিনার খেলালাম।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমি মনে করি, তিনজন স্পিনার খেলালে আয়ারল্যান্ড এতদূর যেতে পারতো না। এটা ভালো যে শান্ত আমাদের গুরুত্বপূর্ণ সাফল্য এনে দিয়েছে। আমাকে জানানো হয়েছিলো, সে কিছু বোলিং করে তবে নিয়মিত স্পিনার নন। তারপরও কঠিন পরিস্থিতিতে ম্যাচ জিততে পেরেছি, এটা সত্যিই সন্তোষজনক।’

বিশ্বকাপ দল নিয়ে কিছুটা ধারণাও দিয়েছেন বিসিবি সভাপতি। শেষ দুই সিরিজে সুযোগ না পেলেও এখনও বিবেচনায় আছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ।

পাপন বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি, ব্যাটিং পজিশনে ১ থেকে ৬ নম্বর পর্যন্ত ঠিক হয়ে গেছে। পেস এবং স্পিন বিভাগও থিতু হয়ে গেছে। ধারাবাহিক পারফর্ম করলে ওপেনিংয়ে ফিরতে পারেন নাইম শেখ, এনামুল হক বিজয়রা। একমাত্র ৭ নম্বর জায়গাটা আমাদের মাথা ব্যথার কারণ হতে পারে। মাহমুদুল্লাহসহ অনেকেই এই পজিশনের জন্য রয়েছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘বর্তমানে এই পজিশনে ইয়াসির রাব্বিকে খেলিয়েছি। তবে আফিফ, মাহমুদুল্লাহ এমনকি মোসাদ্দেককেও এই পজিশনের জন্য বিবেচনা করা যেতে পারে। আমি নিশ্চিত না. এসব আমার অনুমান। ১৫ সদস্যের চূড়ান্ত দল নির্ধারণ করবেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু এবং ম্যাচের জন্য চূড়ান্ত একাদশ ঠিক করবেন অধিনায়ক।’

সামনের সময়গুলোতে বৃষ্টির সম্ভাবনা বেশি থাকায় এশিয়া কাপ আয়োজনের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছেন বলে জানান বিসিবি সভাপতি।

তিনি বলেন, ‘আমি জানতাম এখন পর্যন্ত এশিয়া কাপ নিয়ে পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে উত্তাপ রয়েছে। হাইব্রিড মডেল অনুসরণ করে কিছু ম্যাচ পাকিস্তানে এবং কিছু ম্যাচ দুবাইয়ে আয়োজন করা যেতে পারে। বাংলাদেশকে টুর্নামেন্ট আয়োজনের প্রস্তাব দেয়া হয়েছিলো কিন্তু আমরা না বলেছি। কারণ এখানে এ মাসগুলোতে বৃষ্টি হবে। যদি এটি টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট হয় তাহলে আমরা ঝুঁকি নিতে পারতাম কিন্তু এটি ওয়ানডে ফরম্যাটে হবে।’

আরও পড়ুন:
আফগানিস্তান ক্রিকেট দল আসছে ১০ জুন
পাকিস্তানের কাছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হার
ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের কোচ স্যামি

মন্তব্য

খেলা
Afghanistan cricket team is coming on June 10

আফগানিস্তান ক্রিকেট দল আসছে ১০ জুন

আফগানিস্তান ক্রিকেট দল আসছে ১০ জুন আফগানিস্তান ক্রিকেট দল। ফাইল ছবি
সফরে একটি টেস্ট, তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টি-টোয়েন্টিতে টাইগারদের মোকাবিলা করতে হবে আফগানদের।

আফগানিস্তান ক্রিকেট দল ১০ জুন বাংলাদেশ সফরে আসছে।

সফরে একটি টেস্ট, তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টি-টোয়েন্টিতে টাইগারদের মোকাবিলা করতে হবে আফগানদের।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) বুধবার বাংলাদেশ-আফগানিস্তানের দ্বিপক্ষীয় সিরিজের সূচি ঘোষণা করে। খবর বাসসের।

সূচি অনুযায়ী ১৪ জুন মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে একমাত্র টেস্ট দিয়ে খেলা শুরু হবে।

১৯ জুন ভারত সফরে যাবে আফগানিস্তান। ভারতের মাটিতে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলবে তারা।

পরে বাংলাদেশে ফিরে ৫, ৮ ও ১১ জুলাই ওয়ানডে খেলবে দুই দল। সব খেলাই চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে।

পরে সিলেটের মাটিতে ১৪ ও ১৬ জুলাই টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে টাইগাররা আফগানদের মোকাবিলা করবে।

এখন পর্যন্ত একবার টেস্ট ফরম্যাটে মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান।

২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরে চট্টগ্রামের মাটিতে হওয়া ঐ টেস্টে আফগানদের কাছে ২২৪ রানের বিশাল ব্যবধানে হেরেছিল বাংলাদেশ।

বাংলাদেশের সঙ্গে আফগানিস্তানের দুটি টেস্ট ও তিনটি টি-টোয়েন্টি খেলার কথা ছিল, কিন্তু ভারত সফরে যেতে একটি করে টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি বাতিল করার অনুরোধ করে আফগানিস্তান ক্রিকেট বোর্ড।

বিসিবি সেই অনুরোধ আমলে নিয়ে আফগানিস্তানের সফর সূচি সমন্বয় করে।

আরও পড়ুন:
পাকিস্তানের কাছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হার
ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের কোচ স্যামি
শ্রীলঙ্কার কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজও হারল বাংলাদেশ
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দ্বিতীয় ম্যাচে হারল নারী ক্রিকেট দল
৯ বছর পর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের মেয়েদের জয়

মন্তব্য

খেলা
Sammy is the coach of the West Indies cricket team

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের কোচ স্যামি

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের কোচ স্যামি ড্যারেন স্যামি। ছবি: সংগৃহীত
ড্যারেন স্যামিকে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে দলের কোচ নিয়োগ করা হয়েছে।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় ক্রিকেট দলের কোচের দায়িত্ব পেয়েছেন দেশটির সাবেক বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক ড্যারেন স্যামি।

তাকে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে দলের কোচ নিয়োগ করা হয়। আর আন্দ্রে কোলি টেস্ট ও ‘এ’ দলের কোচের দায়িত্ব পেয়েছেন।

ড্যারেন স্যামি ফিল সিমন্সের স্থলাভিষিক্ত হবেন। ফিল সিমন্স গত অক্টোবরে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্ব থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিদায়ের পর কোচের দায়িত্ব ছাড়েন।

এরপর ওয়েস্ট ইন্ডিজের অন্তবর্তীকালীন কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন কোলি।

স্যামির নেতৃত্বে ২০১২ ও ২০১৬ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

নতুন দায়িত্ব পেয়ে নিজেকে আবারও প্রমাণ করতে চান এ সাবেক ক্রিকেটার।

এক প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, ‘চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত এবং আমি উচ্ছ্বসিত। আমাদের খেলোয়াড়দের প্রতিভা কাজে লাগাতে চাই।’
তিনি আরও বলেন, ‘খেলোয়াড় থাকতে যেভাবে খেলেছি, সেভাবে দলকে এগিয়ে নিতে চাই। আমি সাফল্যের জন্য মরিয়া। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেটকে ভালোবাসি।’

জুন মাসে সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ খেলবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এ দিয়ে জাতীয় দলের হয়ে কোচিং ক্যারিয়ার শুরু করবেন স্যামি।

আর কোলির অ্যাসাইনমেন্ট ভারতকে ধরাশায়ী করা।

আরও পড়ুন:
শ্রীলঙ্কার কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজও হারল বাংলাদেশ
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দ্বিতীয় ম্যাচে হারল নারী ক্রিকেট দল
৯ বছর পর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের মেয়েদের জয়
বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত বাংলাদেশের প্রস্তুতি ম্যাচ
প্রথমবারের মতো এশিয়া কাপে নেপাল

মন্তব্য

খেলা
Bangladesh also lost the T20 series to Sri Lanka

শ্রীলঙ্কার কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজও হারল বাংলাদেশ

শ্রীলঙ্কার কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজও হারল বাংলাদেশ
শুক্রবার সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কার কাছে ৪৪ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। এতে টি-টোয়েন্টি সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জিতল শ্রীলঙ্কা।

ওয়ানডের পর শ্রীলঙ্কার কাছে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজও হারল বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল।

শুক্রবার সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কার কাছে ৪৪ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। এতে টি-টোয়েন্টি সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জিতল শ্রীলঙ্কা।

এর আগে ৬ উইকেটের জয় দিয়ে সিরিজ শুরু করেছিল বাংলাদেশ। দ্বিতীয় ম্যাচ ৭ উইকেটে জিতে সিরিজে সমতা আনে শ্রীলঙ্কা।

কলম্বোর সিংহলিজ স্পোর্টস ক্লাব গ্রাউন্ডে সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে শ্রীলঙ্কা। চতুর্থ ওভারের প্রথম বলে দলীয় ১৬ রানে শ্রীলঙ্কার উদ্বোধনী জুটি ভাঙ্গেন বাংলাদেশের লেগ স্পিনার রাবেয়া খান। এরপর সপ্তম ওভারে শ্রীলংকার অধিনায়ক চামারি আতাপাত্তুকে ৩২ রানে বিদায় করেন বাঁ-হাতি স্পিনার নাহিদা আকতার।

দশম ওভারের প্রথম বলে শ্রীলঙ্কার তৃতীয় উইকেটের পতন ঘটান আরেক লেগ স্পিনার ফাহিমা খাতুন। ৫৬ রানে ৩ ব্যাটারকে শিকার করে শ্রীলঙ্কার ওপর চাপ সৃষ্টি করেন বাংলাদেশের বোলাররা।

তবে চতুর্থ উইকেটে বাংলাদেশ বোলারদের উপর চড়াও হন শ্রীলঙ্কার হর্ষিতা সামারাবিক্রমা ও নিলাক্ষী ডি সিলভা। ৬৫ বলে ১০২ রান যোগ করেন তারা। সামারাবিক্রমা ও ডি সিলভার জোড়া হাফ-সেঞ্চুরিতে ২০ ওভারে ৩ উইকেটে ১৫৮ রানের লড়াকু সংগ্রহ পায় শ্রীলঙ্কা। বাংলাদেশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টিতে এটিই সর্বোচ্চ দলীয় রান শ্রীলঙ্কার।

৬টি চারে ৪২ বলে অপরাজিত ৫১ রান করেন সামারাবিক্রমা। ৪টি করে চার-ছক্কায় ৩৯ বলে অনবদ্য ৬৩ রান করেন ডি সিলভা। বাংলাদেশের রাবেয়া-নাহিদা ও ফাহিমা ১টি করে উইকেট নেন।

জবাবে দ্বিতীয় ওভারেই ওপেনার রুবিয়া হায়দারকে হারায় বাংলাদেশ। খালি হাতে ফিরেন তিনি। দ্বিতীয় উইকেটে ২৯ রানের জুটি গড়ে শুরুর ধাক্কা সামাল দেন ফারজানা হক ও সোবহানা মোস্তারি। ৫০ রানের মধ্যে বিদায় নেন তারা। ফারজানা ১০ ও মোস্তারি ২টি করে চার-ছক্কায় ২৫ বলে ৩০ রান করেন।

চতুর্থ উইকেটে অধিনায়ক নিগার সুলতানা ও মুরশিদা খাতুন ৩৩ রান যোগ করলেও বাংলাদেশের আস্কিং রেট ততক্ষণে ১২ ছাড়িয়ে যায়। ২টি চারে ৩৩ বলে ৩১ রানে থামেন নিগার। শেষ ৫ ওভারে দ্রুত রান তোলার প্রয়োজন পড়লেও সেটি করতে পারেনি তারা। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১১৪ রান করে ম্যাচ হারে বাংলাদেশ। শেষদিকে রিতু মনি ১১ ও মুরশিদা ৮ রান করেন।

তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে শ্রীলঙ্কার কাছে ১-০ ব্যবধানে হেরেছিল বাংলাদেশ। সিরিজের প্রথম দুই ওয়ানডে বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হয়। সূত্র: বাসস

আরও পড়ুন:
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দ্বিতীয় ম্যাচে হারল নারী ক্রিকেট দল
৯ বছর পর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের মেয়েদের জয়
বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত বাংলাদেশের প্রস্তুতি ম্যাচ

মন্তব্য

p
উপরে