20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
আমরাজ্যে এবার কমলা

চাঁপাইনবাবগঞ্জের মতিউর রহমানের বাগানের কমলা। ছবি: নিউজবাংলা

আমরাজ্যে এবার কমলা

সদর উপজেলার জামতলা এলাকায় ফলের বাগান গড়ে তুলেছেন মতিউর রহমান। খামারের নাম মনামিনা। তিন বছর আগে অস্ট্র্রেলিয়ান, চায়না ও ম্যান্ডারিন জাতের ৫০০ চারা রোপন করেন তিনি। গত বছর কিছু ফল আসে। এবার এসেছে বেশি।

আমের রাজ্য হিসেবে পরিচিত চাঁপাইনবাবগঞ্জে এবার নতুন অতিথি হয়ে এসেছে কমলা। একজন উদ্যোক্তা বেশ বড় আকারের বাগান গড়ে তুলেছেন। সেখানে এবার ফলন আশাবাদী করে তুলেছে ফল গবেষক ও কৃষি উদ্যোক্তাদের।

ওই বাগানের ফলন দেখে জেলায় কয়েক বছরের মধ্যে বাণিজ্যিকভাবে ফলটির ব্যাপক চাষের ব্যাপারে আশাবাদ তৈরি হয়েছে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলার ঝিলিম ইউনিয়নের আমনুরা-চাঁপাইনবাবগঞ্জ সড়কের পাশে জামতলা এলাকায় বিভিন্ন ফলের বাগান গড়ে তুলেছেন মতিউর রহমান। খামারের নাম মনামিনা।

মতিউর রহমান নিউজবাংলাকে বলছিলেন, এক সময় বরেন্দ্র এলাকায় শুধু একবার ধান হতো, তাও ছিল বৃষ্টির ওপর নির্ভরশীল। পরে যান্ত্রিক সেচ ব্যবস্থা চালু হলেও পানির স্তর ক্রমাগত নেমে যেতে লাগল। বিষয়টি ভেবে তিনি ফলবাগান গড়ে তোলার চেষ্টা শুরু করেন। এর ধারাবাহিকতায় পেয়ারা ও পরে মাল্টা বাগান গড়ে তোলেন। তার এই বাগানের সাফল্য ছড়িয়ে পড়েছে দেশব্যাপী। পেয়েছেন পুরস্কারও।

এবার মতিউর রহমানের বাগানে নতুন অতিথি কমলা। তিন বছর আগে অস্ট্র্রেলিয়ান, চায়না ও ম্যান্ডারিন জাতের ৫০০ চারা রোপন করেন তিনি।

গত বছর কিছু কিছু গাছে ফল এসেছিল। তবে এবার ফল এসেছে বেশি। থোকায় থোকায় ঝুলে থাকা কমলা যে কাউকেই প্রশান্তি এনে দেবে।

বাগান থেকে কমলা বিক্রি হচ্ছে ১৬০ টাকা দরে। মতিউর রহমানের আশা এ বছর তিনি পাঁচ লাখ টাকার কমলা বিক্রি করতে পারবেন। আগামী বছর তা গিয়ে ঠেকবে ২৫ লাখে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের কমলা

সম্প্রতি মতিউর রহমানের কমলা বাগান ঘুরে দেখেছেন কৃষি মন্ত্রণালয়ের উচ্চ পর্যায়ের একটি দল। কৃষি মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (গবেষণা) কমলা রঞ্জন দাশ আশা করছেন, আমদানি নির্ভরতা কাটিয়ে ফল উৎপাদনে বাংলাদেশ আরও বেশি সক্ষম হবে। এতে ফল আমদানিতে যে বিপুল পরিমাণ অর্থ খরচ করতে হয়, তা সাশ্রয় করা সম্ভব হবে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের কমলা

কেবল কমলা নয়, মতিউর উৎপাদন করছেন চারাও। আর তা বিক্রিও হচ্ছে ভালো। অর্থাৎ আমের পাশাপাশি কমলা চাষেও উৎসাহী হচ্ছে চাঁপাইনবাবগঞ্জবাসী। বাড়ির আঙ্গিনায় বেড়ে উঠছে গাছ, গড়ে উঠছে ছোট ছোট বাগান।

শেয়ার করুন

মন্তব্য