20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তি, সৌদি প্রবাসীসহ চারজনের নামে মামলা

প্রধান আসামি ফয়সাল শরীফ

প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তি, সৌদি প্রবাসীসহ চারজনের নামে মামলা

বুধবার দুপুরে বরগুনার পাথরঘাটা জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিমের আদালতে ‘জনস্বার্থে’ মামলাটি করেন পাথরঘাটা পৌরসভার বাসিন্দা রফিকুল ইসলাম কাকন। মামলা আমলে নিয়ে বিচারক সুব্রত মল্লিক পুলিশের তদন্ত ব্যুরোকে (পিবিআই) তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে ফেসবুকে কটূক্তির অভিযোগে বরগুনায় সৌদি প্রবাসীসহ চারজনের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার আবেদন হয়েছে।

বুধবার দুপুরে বরগুনার পাথরঘাটা জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিমের আদালতে ‘জনস্বার্থে’ মামলাটি করেন পাথরঘাটা পৌরসভার বাসিন্দা রফিকুল ইসলাম কাকন।

মামলা আমলে নিয়ে বিচারক সুব্রত মল্লিক পুলিশের তদন্ত ব্যুরোকে (পিবিআই) তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

আসামিরা হলেন, পাথরঘাটা উপজেলার কালমেঘা ইউনিয়নের সৈয়দ আহমেদ শরিফের ছেলে সৌদি আরব প্রবাসী ফয়সাল আহমেদ শরীফ, জিয়া শরীফ ও মাসুম শরীফ এবং নয়া মিয়া হাওলাদারের ছেলে ইমরান হোসাইন।

আরজিতে উল্লেখ করা হয়, ফয়সাল আহমেদ শরীফ দীর্ঘদিন ধরে সৌদি আরবে থাকছেন। সেখানে থেকে তিনিসহ অন্য আসামিরা সামাজিক মাধ্যমে বাংলাদেশ সরকার, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, আওয়ামী লীগের এমপি (সংসদ সদস্য)-মন্ত্রীসহ রাজনৈতিক নেতাদের বিরুদ্ধে দীর্ঘদিন ধরে বিদ্বেষ ও কটূক্তিমূলক পোস্ট করে আসছেন।

এ ছাড়া প্রধান অভিযুক্ত ফয়সাল শরীফ জঙ্গি সংগঠনে অর্থ সহায়তা করেন বলেও মামলায় অভিযোগ আনা হয়। অন্য আসামিদের মাধ্যমে ফয়সাল শরীফ বাংলাদেশ সরকার ও আওয়ামীলীগের বিরুদ্ধে পাথরঘাটাসহ বিভিন্ন এলাকায় প্রচারপত্র বিলি করাচ্ছেন বলেও বাদির অভিযোগ।

বাদি রফিকুল ইসলাম কাকন বলেন, ‘ফয়সাল শরীফ বাংলাদেশের নাগরিক হয়েও বিদেশে থেকে দেশের সরকার, সরকার প্রধান, এমপি-মন্ত্রীদের নিয়ে কটূক্তি করে যাচ্ছেন। এতে বহির্বিশ্বে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে। তাই আমি দেশের স্বার্থে মামলাটি করেছি।’

বাদি আরও বলেন, ‘মামলা করায় ইতোমধ্যেই আমাকে আসামিরা বিভিন্ন ভাবে হুমকি দিতে শুরু করেছেন। তাই আমি নিরাপত্তাহীনতায় আছি।’

পাথরঘাটা জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিমের আদালতের অতিরিক্ত সরকারি কৌঁসলি (এপিপি) মোঃ জাবির হোসেন বলেন, ‘আসামিরা যা করেছেন তাতে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে। তাই সৌদি প্রবাসী আসামিকে দেশে এনে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অপরাধের দৃষ্টান্তমুলক বিচার দাবি করছি।’

পাথরঘাটা জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিমের আদালতের বেঞ্চ সহকারী মোঃ কামাল হোসেন বলেন, মামলাটি আদালত পিবিআইকে তদন্তের জন্য নির্দেশ দিয়েছেন।

শেয়ার করুন