20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
বাঘাইছড়িতে পিসিপি নেতাকে গুলি করে হত্যা

রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়ি। ছবি: নিউজবাংলা

বাঘাইছড়িতে পিসিপি নেতাকে গুলি করে হত্যা

দুপুর দেড়টার দিকে জীবঙ্গছড়ায় গিয়ে একদল দুর্বৃত্ত পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের নেতা রতন চাকমাকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। ডান কাঁধের নিচে গুলি লেগে ঘটনাস্থলেই রতনের মৃত্যু হয়।

রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়িতে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের (পিসিপি) কাচালং কলেজের সাংগঠনিক সম্পাদক রতন চাকমা ওরফে রত্ন চাকমাকে গুলি করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে জীবঙ্গছড়ায় (বাবুপাড়া) এ হত্যার ঘটনা ঘটে বলে নিশ্চিত করেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান সুদর্শন চাকমা।

নিহত রতন দক্ষিণ পাবলাখালীর খেদারমারা ইউনিয়নের অন্ধ লাল চাকমার ছেলে।

হত্যার ঘটনায় সন্তু লারমার নেতৃত্বাধীন পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতিকে (জেএসএস) দায়ী করছে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (এমএন লারমা) কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও বাঘাইছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান সুদর্শন চাকমা।

তিনি বলেন, ‘এ হত্যার ঘটনায় সন্তু লারমা নেত্বত্বাধীন জেএসএসই জড়িত।’

তবে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির বাঘাইছড়ি থানা কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ত্রিদীপ চাকমা বলছেন, ‘‌মিথ্যা ও উদ্দেশ্যমূলকভাবে’ তাদের সংগঠনকে জড়ানো হচ্ছে।

স্থানীয়রা জানান, দুপুর দেড়টার দিকে জীবঙ্গছড়ায় গিয়ে একদল দুর্বৃত্ত রতন চাকমাকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। ডান কাঁধের নিচে গুলি লেগে ঘটনাস্থলেই রতনের মৃত্যু হয়।

ঘটনার পর থেকে ওই এলাকায় আতঙ্ক বিরাজ করছে।

খবর পাওয়া মাত্র ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আশরাফ উদ্দিন।

ওসি নিউজবাংলাকে বলেন, পুলিশ মঙ্গলবার বিকাল পর্যন্ত ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে পারেনি। আরও সময় লাগতে পারে।

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির বাঘাইছড়ি থানা কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ত্রিদীপ চাকমার অভিযোগ, বাঘাইছড়িতে দীর্ঘদিন ধরে এমএন লারমা গ্রুপ ও গণতান্ত্রিক ইউপিডিএফ গ্রুপ অবৈধ অস্ত্র নিয়ে মহড়া দিচ্ছে। সেখানে এবার জেএসএস মূল দলকে জড়ানো হচ্ছে।

শেয়ার করুন

মন্তব্য