20201002104319.jpg
কাদেরের স্বাক্ষর ‘জাল’: দিনাজপুরে মামলা

কাদেরের স্বাক্ষর ‘জাল’: দিনাজপুরে মামলা

অভিযোগে উল্লেখ করা হয়, কাদেরের স্বাক্ষর জাল করে নিজেকে দিনাজপুর জেলা কমিটির শিল্প ও বাণিজ্যবিষয়ক সম্পাদক দাবি করেন সোহাগ।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের স্বাক্ষর জালের অভিযোগে দিনাজপুরে এক ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে।

শুক্রবার রাতে কোতোয়ালি থানায় মামলাটি নথিভুক্ত হয়। এর আগে ওই দিন সকালে অভিযোগটি করেন দিনাজপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আজিজুল ইমাম চৌধুরী।

মামলায় আসামি করা হয়েছে দিনাজপুর সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী রবিউল ইসলাম সোহাগকে।

অভিযোগে উল্লেখ করা হয়, কাদেরের স্বাক্ষর জাল করে নিজেকে দিনাজপুর জেলা কমিটির শিল্প ও বাণিজ্যবিষয়ক সম্পাদক দাবি করেন সোহাগ। গত বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে সাংবাদিকদের সামনে ওবায়দুল কাদের স্বাক্ষরিত সিলযুক্ত কাগজ প্রদর্শন করেন তিনি।

মামলার বাদী আজিজুল ইমাম জানান, স্বাক্ষরের বিষয় নিশ্চিত হতে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে দেখা করেন। কাদের তাকে বলেন, ‘আমি জেলা আওয়ামী লীগের সুপারিশ বা মতামত ছাড়া কাউকে অন্তর্ভুক্ত করার গঠনতন্ত্রবিরোধী কর্মকাণ্ড করতে পারি না এবং এ ধরনের স্বাক্ষরিত কাগজ প্রদান করিনি। যদি সোহাগ এ ধরনের প্রদর্শন করে তবে ওই কাগজ সম্পূর্ণ জাল বলে গণ্য হবে।’

ফিজারকে উদ্ধৃত করে আজিজুল আরও বলেন, রবিউল ইসলাম সোহাগ নামে কাউকে চিনেন না বলেও জানান কাদের। এ ধরনের ভুয়া সিল-স্বাক্ষরযুক্ত কাগজ প্রদর্শন হয়ে থাকলে থানায় মামলার নির্দেশ দেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক।

আজিজুল জানান, ফিজারের পরামর্শে শুক্রবার তিনি অভিযোগটি করেন।

কোতোয়ালি থানার ওসি মোজাফফর হোসেন জানান, মামলাটি গুরুত্ব বিবেচনা করে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ধারায় রেকর্ড করা হয়। মামলার তদন্তভার কোতোয়ালি থানার পরিদর্শক (ইন্টিলিজেন্স) মাহবুবুর রহমানকে দেয়া হয়েছে। মামলার গুরুত্ব ও তদন্ত কার্যক্রম শুরু হয়ে গেছে। স্বাক্ষর ও সিল ভুয়া শনাক্ত হলে আসামির বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শেয়ার করুন