কীভাবে এলো সপ্তাহের ৭ দিনের নাম

কীভাবে এলো সপ্তাহের ৭ দিনের নাম

মিসরে পাঁচ গ্রহ, চাঁদ আর সূর্যের নামে হয় সাত দিনের নাম। রোমানরাও তাদের অনুসরণ করে। কিন্তু তোমরা এখন যে ইংরেজি নামগুলো জানো সেগুলো অ্যাংলো-স্যাক্সনদের থেকেই নেয়া হয়েছে।

স্কুলে ভর্তি হওয়ার পর পর যে কয়টা জিনিস মুখস্ত করতেই হয় তার মধ্যে সপ্তাহের সাত দিনের নামও আছে, তাই না?

কিন্তু তোমরা কি জানো, দিনগুলো কোথায় থেকে নাম পেল, কে দিলো তাদের এমন চমৎকার সব নাম? না জানলে চলো আজ জেনে নেই।

অনেক অনেক বছর আগের কথা। তখন তো ঘড়ি, ক্যালেন্ডার কিছুই ছিল না।

আমাদের চাঁদমামার চলাফেরা মানে চাঁদের গতিবিধি দেখে দিনক্ষণ ঠিক করত মানুষ। প্রথম দিনের চিকন চাঁদ, এরপর মাঝারি আকারের চাঁদ, কমলালেবুর মতো গোল চাঁদ দেখে দেখে একদল মানুষ ঠিক করল, আরে এটা দিয়ে তো দিন-তারিখ মনে রাখা যায়!

আবার আরেক দেশের লোকরা তাদের দেবতাদের নাম দিয়ে দিন মনে রাখার কথা ভাবল।

তবে শুরুতেই কিন্তু সাত দিনের সপ্তাহ ছিল না। নানারকম হিসাবনিকাশ ছিল।

মিসরীয় সভ্যতা, ব্যাবিলনীয় সভ্যতা, গ্রিক, রোমান ও অ্যাংলো-স্যাক্সন জাতির মানুষরা সপ্তাহের নাম নিয়ে কাজ শুরু করে। প্রথমে নামগুলো ঠিক হয় আকাশে দৃশ্যমান সাতটি উজ্জ্বল জ্যোতিস্কের নামে আর দেবদেবীর নামে।

মিসরে পাঁচ গ্রহ, চাঁদ আর সূর্যের নামে হয় সাত দিনের নাম। রোমানরাও তাদের অনুসরণ করে। কিন্তু তোমরা এখন যে ইংরেজি নামগুলো জানো সেগুলো অ্যাংলো-স্যাক্সনদের থেকেই নেয়া হয়েছে।

নামগুলো নিয়ে জানার ইচ্ছে আর চেপে রাখতে পারছো না, তাই না? এসো, ছোট্ট করে জানিয়ে দেই।

সপ্তাহের সাত দিনের নাম

সানডে বা রবিবার- গ্রিক পুরাণে সূর্য হচ্ছে দেবতা, আর স্যাক্সন ভাষায় তাকেই বলে হয় Sunne যা থেকে ইংরেজিতে এসেছে Sun। সান মানে সূর্য। আর বাংলায় রবি মানেও সেই সূয্যিমামাই। এই আমাদের রবিবার।

মানডে বা সোমবার- মানডে আসলে ছিল মুনডে। গ্রিক পুরাণে Seleness চাঁদের দেবী। রোমান ভাষায় চাঁদকে বলা হয় Moon। ব্যস হয়ে গেল মানডে!

টিউসডে বা মঙ্গলবার- গ্রিক পুরাণে Ares নামে এক দেবতা আছেন। রোমান ভাষায় তাকে বলা হয় Mars. Mars মানে কী বলো তো? মঙ্গলগ্রহ।

কিন্তু স্যাক্সনদের ধর্মবিশ্বাস অনুযায়ী তাদের দেবতা হলেন Tiu। সেখান থেকেই ইংরেজি Tuesday মানে মঙ্গলবার।

ওয়েডনেসডে বা বুধবার- রোমান পুরাণ বলে, ব্যবসা-বাণিজ্যের দেবতা হচ্ছেন Mercury। আর এই মার্কারি আমাদের বুধ গ্রহ। তবে স্যাক্সনদের দেবী Woden এর নাম থেকে এসেছে Woden’s Day আর সেখান থেকে Wednesday

থারসডে বা বৃহস্পতিবার- অ্যাংলো-স্যাক্সনরা বিশ্বাস করে, থর হলেন থান্ডার বা বজ্রপাতের দেবতা। সেখান থেকে তারা নাম দিয়েছে Thor’s day বা Thursday

আবার গ্রিক ভাষায় এই ‘বজ্রপাতের পিতা’ হচ্ছেন দেবতা জিউস। আর জিউস গ্রহকে আমরা চিনি রোমান পুরাণের ‘জুপিটার’ নামে। এই জুপিটার গ্রহই হচ্ছে আমাদের বৃহস্পতি গ্রহ।

ফ্রাইডে বা শুক্রবার- অ্যাংলো-স্যাক্সনদের কাছে সৌন্দর্যের দেবী হলেন ফ্রিগ, সেখান থেকেই এসেছে ইংরেজি ফ্রাই ডে নাম।

গ্রিক আফ্রোদিতি বা রোমান ভেনাস হচ্ছেন সৌন্দর্য ও প্রেমের দেবী। তার নামেই শুক্র গ্রহের নাম। এই সব মিলিয়েই আমাদের ফ্রাইডে আর শুক্রবার।

স্যাটারডে বা শনিবার- Saturn হলেন রোমান দেবতা। এই স্যাটার্ন থেকেই ইংরেজিতে এসেছে স্যাটারডে। স্যাটার্ন অথবা শনি গ্রহ থেকেই আমরা পেয়েছি শনিবার।

এবার বলো মজা লাগলো কি না? চন্দ্র সূর্য এবং গ্রহের সঙ্গে সাতদিনের নামের এত মিল জেনে আমার তো ভীষণ আনন্দ হয়েছিল।

তোমরা আর কী কী জানতে চাও তা নিউজবাংলাকে জানাতে ভুলো না কিন্তু।

তথ্যনির্দেশিকা:

১। https://roar.media/bangla/main/history/seven-days-name

২। চিলড্রেন্স নলেজ ব্যাংক

শেয়ার করুন

মন্তব্য