টিকা নিলে বিদেশে যেতে পারবেন সৌদি নাগরিকরা

টিকা নিলে বিদেশে যেতে পারবেন সৌদি নাগরিকরা

যুক্তরাষ্ট্র-যুক্তরাজ্যসহ ২০টি দেশ থেকে সরাসরি সৌদি আরবে প্রবেশ নিষিদ্ধ থাকছে নতুন সিদ্ধান্তেও। ছবি: এএফপি

সৌদি আরবে গত কয়েক মাসে কমপক্ষে এক ডোজ টিকা নিয়েছেন এক কোটি ১৫ লাখের বেশি মানুষ। ফলে সৌদি সরকারের নতুন নীতিমালার অধীনে তাদের সবাই বিদেশ ভ্রমণের যোগ্য হিসেবে বিবেচিত হবেন।

সৌদি আরব এক বছরের বেশি সময় পর নিজ নাগরিকদের জন্য বিদেশ ভ্রমণ নীতিমালা শিথিল করেছে। অবশ্য এজন্য শর্ত বেঁধে দিয়েছে দেশটির সরকার। করোনার টিকা নিলে তবেই দেশের বাইরে যাওয়ার অনুমতি পাবেন সৌদি নাগরিকরা।

করোনাভাইরাস সংক্রমণের প্রভাবে সৌদি নাগরিকদের বিদেশ ভ্রমণে প্রায় ১৪ মাস ধরে নিষেধাজ্ঞা চলছিল। করোনার টিকা গ্রহণের শর্তে সোমবার এ নিষেধাজ্ঞা শিথিল করে রিয়াদ।

বার্তা সংস্থা এপির প্রতিবেদনে বলা হয়, তিন কোটি মানুষের দেশ সৌদি আরব। সেখানে করোনাভাইরাস ও এর নতুন প্রজাতির সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কায় নাগরিকদের বিদেশ ভ্রমণ নিষিদ্ধ ছিল। ২০২০ সালের মার্চ মাস থেকে বলবৎ এ নিষেধাজ্ঞায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন পড়াশোনার জন্য বিদেশে বসবাসরত সৌদি শিক্ষার্থীসহ দেশটির বিপুলসংখ্যক নাগরিক।

গত কয়েক মাসে দেশটিতে কমপক্ষে এক ডোজ টিকা নিয়েছেন এক কোটি ১৫ লাখের বেশি মানুষ। ফলে সৌদি সরকারের নতুন নীতিমালার অধীনে তাদের সবাই বিদেশ ভ্রমণের যোগ্য হিসেবে বিবেচিত হবেন। এছাড়া করোনাভাইরাস থেকে সম্প্রতি সেরে উঠেছেন এমন ব্যক্তি এবং ভ্রমণবীমা থাকা ১৮ বছরের কমবয়সী সৌদি নাগরিকরা বিদেশ ভ্রমণের অনুমতি পাবেন।

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, দেশ ত্যাগের সময় স্বাস্থ্যবিষয়ক সরকারি অ্যাপ ‘তাওয়াক্কালনা’ ব্যবহার করে বিমানবন্দরের কর্মকর্তাদের কাছে নিজেদের স্বাস্থ্যের বিষয়ে তথ্য প্রদান করতে হবে সৌদি নাগরিকদের। আবার দেশে ফিরে আসার পর নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে তাদের এবং করোনা টেস্ট করাতে হবে।

গত বছর করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে মসজিদ বন্ধ রাখা, হজের পরিধি কমিয়ে আনা, সীমান্ত বন্ধ করাসহ বেশি কিছু কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছিল সৌদি সরকার। বিভিন্ন দেশের সঙ্গে সরাসরি ফ্লাইট পরিচালনা এখন পর্যন্ত সীমিত রয়েছে।

কায়রো, দুবাই, কুয়ালালামপুর, প্যারিস, এথেন্স, ফ্রাঙ্কফুর্ট, ওয়াশিংটন ও নিউইয়র্কসহ বিভিন্ন দেশের ৪৩টি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সৌদিয়া এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট চলাচল শুরু হয়েছে সোমবার থেকে।

তবে বিশেষ কারণ ছাড়া যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ফ্রান্সসহ ২০টি দেশ থেকে সরাসরি সৌদি আরবে প্রবেশ নিষিদ্ধই থাকছে।

সৌদি নাগরিকদের অবকাশ যাপনের জন্য জনপ্রিয় বাহরাইনে যাওয়ার একমাত্র সেতুপথটিও সোমবার খুলে দেয়া হয়েছে।

সৌদি আরবে এখন পর্যন্ত প্রায় সাড়ে চার লাখ মানুষের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। মৃত্যু হয়েছে সাত হাজারের বেশি মানুষের। আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন চিকিৎসাধীন প্রায় দেড় হাজার মানুষ।

আরও পড়ুন:
টিকা ছাড়া সৌদি গেলে নিজ খরচে কোয়ারেন্টিন
বিদেশ যেতে পারবেন টিকা নেয়া সৌদি নাগরিকরা

শেয়ার করুন

মন্তব্য