20201002104319.jpg
ইউরোপে বাড়ছে করোনা, মাদ্রিদে জরুরি অবস্থা

ইউরোপে বাড়ছে করোনা, মাদ্রিদে জরুরি অবস্থা

করোনা সংক্রমণের হার বেশি জার্মানির রাজধানী বার্লিন ও বাণিজ্যিক কেন্দ্র ফাঙ্কফুর্টে । এই দুই শহরে গত সাত দিনে এক লাখ মানুষের মধ্যে ৫০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

করোনা আক্রান্তের হার বেড়ে যাওয়ায় নতুন করে লকডাউন আরোপ করতে যাচ্ছে ইউরোপের দেশগুলো।

এদিকে গত এক সপ্তাহে ইউরোপে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের হার ২৮ শতাংশ বেড়েছে বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ফ্রান্স টোয়েন্টিফোর।

শুক্রবার স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদে নতুন করে আংশিক লকডাউনসহ জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে।

একই দিন জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা ম্যার্কেল সতর্ক করে বলেন, করোনা সংক্রমণের হার বেশি থাকা অঞ্চলগুলোকে ১০ দিন সময় দেয়া হবে। এর মধ্যে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে না এলে কঠোর ব্যবস্থা নিবে সরকার।

ম্যার্কেল বলেন, ‘বড় শহরগুলোতে আবার করোনা আঘাত হেনেছে। অনেক চেষ্টা করে করোনার প্রথম ধাক্কা নিয়ন্ত্রণ করা গেছে। দ্বিতীয় ধাক্কাও নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করা হবে। আগামী কয়েক সপ্তাহ বলে দেবে আসন্ন শীতে জার্মানি কীভাবে মহামারি সামলাবে।

করোনা সংক্রমণের হার বেশি জার্মানির রাজধানী বার্লিন ও বাণিজ্যিক কেন্দ্র ফাঙ্কফুর্টে । এই দুই শহরে গত সাত দিনে এক লাখ মানুষের মধ্যে ৫০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

নাগরিকেরা মার্চ ও এপ্রিলের  লকডাউন মেনে চললেও নতুন লকডাউন আরোপে বাধার মুখে পড়ছে ইউরোপের দেশগুলোর সরকার।

সম্প্রতি করোনা ঠেকাতে মাদ্রিদের কেন্দ্রীয় সরকার কাজ, স্কুল বা চিকিৎসা প্রয়োজন ছাড়া শহর ছাড়ার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করে।

কিন্তু শহরটির ডানপন্থী নাগরিক দল এর  বিরোধিতা করে । বৃহস্পতিবার সরকারি নিষেধাজ্ঞাটিকে নাগরিকদের মৌলিক অধিকার পরিপন্থী হিসেবে আখ্যায়িত করে আটকে দিয়েছে আঞ্চলিক আদালত।

দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী সালভাদর ইলা জানান, স্পেন সরকারে সংখ্যাগরিষ্ঠ সমাজতান্ত্রিক দল জরুরি অবস্থা ঘোষণা করবে। একইসঙ্গে রাজধানীর ৪৫ লাখ মানুষের ওপর আবারো নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হবে।

সারা বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা উল্লেখযোগ্য হারে বেড়েছে। এ সপ্তাহে  গড়ে প্রতিদিন তিন লাখ ১৫ হাজার মানুষ নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন।

শেয়ার করুন

মন্তব্য