করোনা

রাজশাহীতে উপসর্গ নিয়েই ৭ দিনে ৮৭ মৃত্যু

রাজশাহীতে উপসর্গ নিয়েই ৭ দিনে ৮৭ মৃত্যু

ফাইল ছবি

বিষয়টি নিশ্চিত করে রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতদের মধ্যে দুইজনের করোনা শনাক্ত হয়েছিল। বাকি ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে উপসর্গ নিয়ে।

রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে আরও ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে বুধবার সকাল ৮টার মধ্যে তাদের মৃত্যু হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতদের মধ্যে দুইজনের করোনা শনাক্ত হয়েছিল। বাকি ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে উপসর্গ নিয়ে। তাদের মধ্যে একজনের করোনা নেগেটিভও হয়েছিল।

মৃতদের মধ্যে নারী ৭ ও পুরুষ ১৩।

এ নিয়ে চলতি মাসের প্রথম সাত দিনে এখানে মারা গেলেন ১২১ জন। এদের মধ্যে করোনা পজিটিভ হয়ে মারা যান ৩৪ জন। বাকি ৮৭ জনের মৃত্যু হয় উপসর্গ নিয়ে।

মৃতদের মধ্যে রাজশাহীর ৭, পাবনার ৪, নওগাঁর ৩, নাটোর ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের ২ জন করে এবং কুষ্টিয়া ও মেহেরপুরের ১ জন করে রয়েছেন।

বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, মৃতদের ২০ জনের মধ্যে ১৪ জন ষাটোর্ধ্ব, দুইজন পঞ্চাশোর্ধ্ব, দুইজন চল্লিশোর্ধ্ব ও দুইজন ত্রিশোর্ধ্ব।

করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়ে এ হাসপাতালে ৬৬ নতুন রোগী ভর্তি হয়েছেন। এ সময় সুস্থ হয়ে ছাড়পত্র পেয়েছেন ৬৭ জন।

বর্তমানে করোনা বিশেষায়িত ইউনিটে ৪৫৪ শয্যার বিপরীতে ৪৭০ জন চিকিৎসা নিচ্ছেন।

মঙ্গলবার রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ ও রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের দুটি ল্যাবে ৫৬২ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১১৬ জনের দেহে করোনা পজিটিভ পাওয়া যায়।

রাজশাহী জেলার ৪৪৭ নমুনা পরীক্ষা করে ৯৮ জনের শরীরে করোনাভাইরাস পাওয়া গেছে। চাঁপাইনবাগঞ্জের ১১৬ জনের নমুনার মধ্যে ১৮ জনের পজেটিভ এসেছে।

আরও পড়ুন:
‘ডেল্টার চেয়েও প্রাণঘাতী ল্যাম্বডা ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়েছে ৩০ দেশে’
গাজীপুরে করোনায় আরও ৩ মৃত্যু 
বাংলাদেশের প্রতি কৃতজ্ঞতা মালদ্বীপের
‘আমার আব্বু কথা বলে না কেন’
করোনা: প্রয়োজন ছাড়া বের হলেই আটক, জরিমানা

শেয়ার করুন

মন্তব্য