ভূমিকম্পকে ঘিরে শেভরনের মাইন বিস্ফোরণ গুজব

ভূমিকম্পকে ঘিরে শেভরনের মাইন বিস্ফোরণ গুজব

সিলেটে শনিবার এক ঘণ্টায় অন্তত পাঁচবার ভূমিকম্প হয়েছে সিলেটে। ফাইল ছবি

ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া একটি দাবির সত্যতা খতিয়ে দেখতে নিউজবাংলা যোগাযোগ করে তেল ও গ্যাস কোম্পানি শেভরন এবং সিলেট সিটি করপোরেশনের সঙ্গে।

শনিবার সকাল থেকে সিলেটে দফায় দফায় ভূমিকম্পে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন নগরের বাসিন্দারা। এর মধ্যে রাতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে একটি গুজব, তাতে বলা হয়: সিলেটে ভূমিকম্প নয়, হয়েছে মাইন বিস্ফোরণ।

ওই ফেসবুক স্ট্যাটাসে লেখা হয়: ‘আমরা সবাই জানি আজকে সিলেটে পাঁচ অথবা সাতবার ভূমিকম্প হয়েছে, কিন্তু প্রকৃতপক্ষে একবারও ভূমিকম্প হয়নি, যে কম্পনটুকু হয়েছে সেটা হলো সিলেটস্থ শেভরন কোম্পানি তাদের থ্রি-ক এরিয়ায় মাইন বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে কূপ খননের জন্য, এ বিস্ফোরণের সময় সারা সিলেট শহর কেঁপে উঠেছে, আবহাওয়া অফিস ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া তা না জেনে এটাকে ভূমিকম্প হিসেবে প্রকাশ করতেছে।

‘কোনো পূর্বঘোষণা ছাড়া শেভরন উক্ত বিস্ফোরণ ঘটানোর কারণে আগামীকাল তাদের কর্তৃপক্ষকে জবাব দেয়ার জন্য ডাকা হয়েছে নগর ভবনে, জাতি আগামীকালই (রোববার) বিস্তারিত জানতে পারবে।’

এ দাবির সত্যতা খতিয়ে দেখতে নিউজবাংলা যোগাযোগ করে তেল ও প্রাকৃতিক গ্যাস কোম্পানি শেভরনসহ সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র এবং সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে।

শেভরন বাংলাদেশের যোগাযোগ ব্যবস্থাপক শেখ জাহিদুর রহমান বলেন, ‘ভূমিকম্প এবং যেকোনো দুর্যোগ মোকাবিলায় আমাদের নিজেদের প্রটোকল রয়েছে, এ ব্যাপারে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। আমাদের সিলেটের জালালাবাদ গ্যাস ফিল্ডের সঙ্গে ও বাংলাদেশের উত্তর-পূর্বে পরিচালিত তিনটি গ্যাসফিল্ডের কোথাও এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি এবং কোনো বিস্ফোরণ ঘটানোর আগে আমাদের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা সরকারি দপ্তরগুলোর কাছ থেকে অনুমতি নিয়ে থাকেন। আমরা সবাইকে জানাতে চাই, এমন গুজব প্রচার করবেন না।’

শেভরন কোম্পানির সিলেট লাক্কাতুরা এলাকায় খোঁজ নিয়েও জানা যায়, ভূমিকম্প শুরুর আগে বা পরে সেখানকার কর্মকর্তারা কোনো রকমের মাইন বিস্ফোরণের শব্দ শোনেননি।

এ ব্যাপারে সিলেট সিটি করপোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা আব্দুল আলিম শাহ নিউজবাংলাকে বলেন, ‘এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি। মেয়র নিজে শেভরন কোম্পানির সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। এ ছাড়া শেভরন কর্মকর্তাদের নগর ভবনে ডাকার তথ্যও মিথ্যা।’

সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক নিউজবাংলাকে বলেন, ‘শেভরন কোম্পানিকে আমি নগর ভবনে আসতে বলিনি। আমি নিজে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি এবং আমার সঙ্গে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকও উপস্থিত ছিলেন।

‘শেভরন আমাদের নিশ্চিত করেছে, তারা এমন কোনো কাজ করেনি। বিষয়টি গুজব এবং যারাই গুজব ছড়িয়েছে, তাদের বলব, এমন গুজব যেন আর না ছড়ানো হয়। তা না হলে আমরা গুজব রটনাকারীর বিরুদ্ধে সাইবার আইনে ব্যবস্থা নেব।’

সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ বলেন, ‘এটা গুজব। গতকাল রাত থেকে শেভরনের বিরুদ্ধে যা বলা হচ্ছে, সেটা ভিত্তিহীন। তারা (শেভরন) আমাদের নিশ্চিত করেছে, তারা এমন কোনো কার্যকলাপ করেনি বরং টানা কয়েক দফা ভূমিকম্পে তারা নিজেরাও শঙ্কিত।’

দেলোয়ার হোসেন নামে সিলেটের এক ব্যক্তি ফেসবুকে এ স্ট্যাটাস দেন। এরপর থেকেই বিষয়টি ভাইরাল হতে থাকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে।

যোগাযোগ করার জন্য দেলোয়ার হোসেনের কোনো ফোন নম্বর পাওয়া যায়নি।

এ ছাড়া শনিবার রাতে এই প্রতিবেদক তাকে ফেসবুকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট ও মেসেজ পাঠালেও তিনি কোনো উত্তর দেননি।

আরও পড়ুন:
দিনের পর রাতেও কাঁপল সিলেট
ভূমিকম্পে হেলে পড়েছে দুই ভবন
ফের ভূমিকম্পের শঙ্কায় সিটি করপোরেশনের জরুরি সভা
দুই ঘণ্টায় পাঁচ ভূমিকম্প কি শঙ্কার?
সিলেটে ভূমিকম্প আসলে কতবার?

শেয়ার করুন

মন্তব্য