সপরিবার করোনায় আক্রান্ত অভিনেতা নাসিম

সপরিবারে অভিনেতা নাসিম। ছবি সংগৃহীত

সপরিবার করোনায় আক্রান্ত অভিনেতা নাসিম

নাসিম বলেন, ‘আমি ও বাচ্চারা ভালো আছি। তবে আমার স্ত্রীর অবস্থা একটু ক্রিটিক্যাল। ডাক্তারের পরামর্শ মেনে চলছি।’

সপরিবার করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন অভিনয়শিল্পী সংঘের সাধারণ সম্পাদক ও ছোটপর্দার প্রিয় মুখ আহসান হাবিব নাসিম।

শুক্রবার রাতে নিউজবাংলাকে এ তথ্য নিজেই নিশ্চিত করেন নাসিম।

তিনি বলেন, ‘আমি ও বাচ্চারা ভালো আছি। তবে আমার স্ত্রীর অবস্থা একটু ক্রিটিক্যাল। ডাক্তারের পরামর্শ মেনে চলছি।’

এর আগে ফেসবুকে তার পারিবারিক ছবিসহ স্ট্যাটাস দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছেন, ডিরেক্টরস গিল্ড-এর সাবেক সাধারণ সম্পাদক এসএ হক অলিক।

তিনি লিখেছেন, ‘আর নিতে পারছি না, প্রিয় মানুষ আহসান হাবিব নাসিম ভাই সপরিবার করোনায় আক্রান্ত। সবাই সচেতন হই, এর কোনো বিকল্প নেই।

‘স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি, একে অপরের পাশে দাঁড়াই।’

এর আগে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ছোট ও বড়পর্দার অনেক তারকা। তাদের মধ্যে পুত্র, পুত্রবধূসহ আক্রান্ত হয়েছেন নায়িকা মৌসুমী। চিত্রনায়ক ফারুক ও চিত্রনায়িকা কবরী করোনায় আক্রান্ত হয়ে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন।

এ ছাড়া করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন আবুল হায়াত, এস এম মহসীন, আফসানা মিমি, গাজী রাকায়েতসহ অনেকে।

শেয়ার করুন

মন্তব্য

দুই প্রিমিয়ার, এক টিভিতেই শাকিবের ১৮ সিনেমা

দুই প্রিমিয়ার, এক টিভিতেই শাকিবের ১৮ সিনেমা

বীর সিনেমার পোস্টার (বাঁয়ে), আমি নেতা হবো সিনেমার দৃশ্যে শাকিব খান ও মিম। ছবি কোলাজ: নিউজবাংলা

টিভি প্রিমিয়ার হতে যাওয়া সিনেমা দুটি হলো বীর ও আমি নেতা হবো। দীপ্ত ও এটিএন বাংলায় প্রচার হবে সিনেমা দুটি।

ঈদে শাকিব খান বড় পর্দায় থাকবেন কিনা তা নিয়ে এখনও সংশয় থাকলেও ছোট পর্দায় থাকা নিয়ে কোনো সংশয় নেই ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় এ নায়কের। শুধু থাকছেনই না, কিং খান থাকছেন কিংয়ের মতোই।

শাকিব খান অভিনীত দুটি সিনেমা প্রিমিয়ার হচ্ছে দুটি টিভি চ্যানেলে । এছাড়া নাগরিক টিভিতে সাত দিনে দেখানো হবে শাকিব খানের ১৮টি সিনেমা।

টিভি প্রিমিয়ার হতে যাওয়া সিনেমা দুটির মধ্যে প্রথমটি হলো বীর । ঈদের দিন দুপুর ১টা ৩০ মিনিটে দীপ্ত টিভিতে প্রচার হবে সিনেমাটি। এটি পরিচালনা করেছেন কাজী হায়াৎ। অভিনয়ে আছেন শাকিব খান, বুবলি, মিশা সওদাগর।

প্রিমিয়ার হতে যাওয়া অন্য সিনেমাটি হলো আমি নেতা হবো। উত্তম আকাশ পরিচালিত শাকিব খান ও বিদ্যা সিনহা মিম অভিনীত সিনেমাটি প্রচার হবে এটিএন বাংলায় ঈদের দিন দুপুর ২টা ৪৫মিনিটে।

এছাড়া ঈদের দিন থেকে পরের সাত দিন নাগরিক টিভিতে প্রচার হচ্ছে ১৮টি সিনেমা। যার মধ্যে প্রথম ও দ্বিতীয় দিন দেখানো হবে বিয়ে বাড়ি, মাই নেম ইজ খান, তুমি স্বপ্ন তুমি সাধনা, আমাদের ছোট সাহেব, লাভ ম্যারেজ, রাজা বাবু, স্বামীর সংসার সিনেমাগুলো।

দুই প্রিমিয়ার, এক টিভিতেই শাকিবের ১৮ সিনেমা
দেশের শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। ছবি: সংগৃহীত

ঈদের তৃতীয় ও চতুর্থ দিন থাকবে ফুল নেব না অশ্রু নেব, হিটম্যান, হিরো- দ্য সুপারষ্টার, টাকার চেয়ে প্রেম বড়, স্বপ্নের বাসর, সবার উপরে প্রেম, পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনী-১

দুই প্রিমিয়ার, এক টিভিতেই শাকিবের ১৮ সিনেমা
বীর সিনেমার দৃশ্যে শাকিব খান ও বুবলী। ছবি: সংগৃহীত

পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনী-২, সবার ওপরে তুমি, মা আমার স্বর্গ, সন্তান আমার অহঙ্কার দেখানো হবে ঈদের পঞ্চম, ষষ্ঠ ও সপ্তম দিন।

এই তিনটি টিভি চ্যানেল ছাড়াও অন্যান্য টিভি চ্যানেলে শাকিব খান অভিনীত আরও অনেক সিনেমাই প্রচার হবে। সিনেমা হলে শাকিব খানের সিনেমা যদি না আসে, তাহলে ছোট পর্দাতেই দেশের শীর্ষ নায়কের সিনেমা দেখে আশা মেটাতে পারেন ভক্ত-দর্শকরা।

শেয়ার করুন

কবরী স্মরণে বিটিভির ‘আনন্দমেলা’

কবরী স্মরণে বিটিভির ‘আনন্দমেলা’

বিটিভির আনন্দমেলা আয়োজনে চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস। ছবি: সংগৃহিত

অনুষ্ঠানে কবরীর স্মরণে তারই সিনেমার কালজয়ী গান ‘সে যে কেনো এলো না’-এর সঙ্গে নাচ পরিবেশন করবেন অভিনেত্রী তারিন। এছাড়া বিশেষ পরিবেশনা নিয়ে হাজির থাকবেন চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস ও ছোট পর্দার তারকা মেহজাবিন চৌধুরী।

বিটিভির ঈদের জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘আনন্দমেলা’। প্রতি ঈদেই এই অনুষ্ঠানটি নিয়ে তুমুল আগ্রহ থাকে দর্শকদের।

বর্ণিল আয়োজনে সাজানো দর্শকপ্রিয় এ অনুষ্ঠানটি এবার পরিবেশিত হবে অভিনেত্রী কবরীর স্মরণে।

অনুষ্ঠানে কবরীর স্মরণে তারই সিনেমার কালজয়ী গান ‘সে যে কেনো এলো না’-এর সঙ্গে নাচ পরিবেশন করবেন অভিনেত্রী তারিন।

অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করবেন জনপ্রিয় দুই তারকা ফেরদৌস ও পূর্ণিমা।

বিশেষ পরিবেশনা নিয়ে হাজির থাকবেন চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস ও ছোট পর্দার তারকা মেহজাবিন চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে দুই বাংলার ছয়জন শিল্পী মিলে একটি গান করবেন। গানটিতে কণ্ঠ দিবেন বাংলাদেশের তপন চৌধুরী, কুমার বিশ্বজিৎ ও চন্দন সিনহা এবং ভারতের পশ্চিমবঙ্গের রাঘব চ্যাটার্জি, জয় সরকার ও উষা উত্থুপ।

কবির বকুলের কথায় গানটির সুর-সংগীতায়োজন করেছেন ইমন চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে ‘যতনে রাখিব’ শিরোনামে একটি গানে পারফরমেন্স করবেন ফোক সম্রাজ্ঞী মমতাজ বেগম। এছাড়াও এই আনন্দমেলা অনুষ্ঠানে গান গাইবেন বাউল শফি মন্ডল ও তার দল।

বিটিভির এই ঈদ ‘আনন্দমেলা’ অনুষ্ঠানটির প্রযোজনা করেছেন মাহফুজা আক্তার। এটি প্রচারিত হবে ঈদের দিন রাত ১০টার সংবাদের পর।

বিটিভির আনন্দমেলা আয়োজনে অভিনেত্রী তারিন। ছবি: সংগৃহিত

এই অনুষ্ঠানের শুটিং শেষ হয়েছে বলে বিটিভির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

প্রযোজক মাহফুজা আক্তার বলেন, ‘করোনাকালে চেষ্টা করেছি স্বাস্থ্যবিধি মেনেই অনুষ্ঠানটি শুটিং করার। এমন অবস্থায় সবাইকে নিয়ে অনুষ্ঠান সাজাতে একটু বেশিই বেগ পেতে হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘লকডাউনে দর্শকরা বাসায় থাকবেন। তাদের পূর্ণ বিনোদনের চিন্তা মাথায় রেখেই অনুষ্ঠানে বৈচিত্র্য আনার চেষ্টা করেছি। যেন অনুষ্ঠানটি তাদের কাছে উপভোগ্য হয়। আশা করছি, বরাবরের মতো এবারের আনন্দমেলাও দর্শকদের ভালো লাগবে।’

নতুন এই আনন্দমেলা ছাড়াও ঈদের আগের দিন রাত ১০টা ২০ মিনিটে বিটিভিতে প্রচারিত হবে আরও একটি আনন্দমেলা। যেটি বিগত কয়েক বছরে প্রচারিত হওয়া আনন্দমেলার সংকলন।

শেয়ার করুন

হাসপাতালে ভর্তি সন্ধ্যা রায়

হাসপাতালে ভর্তি সন্ধ্যা রায়

টালিউডের বর্ষীয়ান অভিনেত্রী ও সাবেক সাংসদ সন্ধ্যা রায়। ছবি: সংগৃহিত

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে ভারতীয় একাধিক সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, করোনার উপসর্গ থাকায় তাকে আইসোলেশন ওয়ার্ডে রাখা হয়েছে। করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা পাঠানো হয়েছে। উপসর্গ মেনেই প্রয়োজনীয় তার চিকিৎসা শুরু হয়েছে।

জ্বর ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন টালিউডের বর্ষীয়ান অভিনেত্রী ও সাবেক সাংসদ সন্ধ্যা রায়।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে ভারতীয় একাধিক সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, করোনার উপসর্গ থাকায় তাকে আইসোলেশন ওয়ার্ডে রাখা হয়েছে। করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা পাঠানো হয়েছে। উপসর্গ মেনেই প্রয়োজনীয় তার চিকিৎসা শুরু হয়েছে।

তবে তার অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে বলে জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

পঞ্চাশের দশকে অভিনয় জগতে পা রাখেন সন্ধ্যা রায়। বাংলা সিনেমার সাদা-কালো থেকে রঙিন যুগের দীর্ঘ সময় দাপটের সঙ্গে পর্দায় বিচরণ ছিল সন্ধ্যা রায়ের। ১৯৫৮ সালে মুক্তি পায় তার প্রথম সিনেমা অন্তরীক্ষ

তার আলোচিত সিনেমাগুলোর মধ্য রয়েছে, সত্যজিৎ রায়ের অশনি সংকেত এবং তরুণ মজুমদারের ঠগিনি

অন্যদিকে পুরোদস্তুর বাণিজ্যিক চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেছেন সন্ধ্যা রায়। দীর্ঘ অভিনয় জীবনে বাবা তারকনাথ, দাদার কীর্তি, ছোট বউ, মায়ামৃগ, বন্ধন, পলাতক, ফুলেশ্বরীসহ অজস্র জনপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন সন্ধ্যা রায়।

অভিনয়ের পাশাপাশি রাজনীতির ময়দানেও সমান সফল ছিলেন সন্ধ্যা রায়। ২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনে সাংসদ নির্বাচিত হয়েছিলেন। ২০১৯ সালে নির্বাচনে বয়সজনিত কারণে নিজেই সরে দাঁড়ান বর্ষীয়ান এই অভিনেত্রী।

শেয়ার করুন

নিজের গল্পে নায়ক নিশো, নায়িকা মেহজাবিন

নিজের গল্পে নায়ক নিশো, নায়িকা মেহজাবিন

নাটকের দৃশ্যে আফরান নিশো ও মেহজাবিন চৌধুরী। ছবি: সংগৃহীত

নিজের গল্প প্রসঙ্গে আফরান নিশো বলেন, ‘এবারের ঈদে বেশ কম কাজ করেছি। তার মধ্যে নিজের গল্প ভাবনার একটি নাটক আসছে। দর্শকদের প্রতিক্রিয়া দেখতে মুখিয়ে আছি। আশা করি, দর্শক ভিন্ন কিছু দেখতে পাবেন।’

ঢাকা শহরে মেরুন রঙের বাসে চলা দুই তরুণ-তরুণীর প্রেমের গল্প নিয়ে নাট্যনির্মাতা মাহমুদুর রহমান হিমি নির্মাণ করেছেন একক নাটক মেরুন। নাটকটির গল্প খ্যাতিমান অভিনেতা আফরান নিশোর।

বাসে চলা সেই প্রেমের গল্পের নায়কও তিনি। তার সঙ্গে জুটি বেঁধেছেন ছোট পর্দার জনপ্রিয় মুখ মেহজাবিন চৌধুরী। সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ খবর জানানো হয়।

নাটকটির গল্প প্রসঙ্গে নির্মাতা মাহমুদুর রহমান হিমি বলেন, ‘মেরুন হচ্ছে ভালোবাসার রঙ। এই রঙের বাসে প্রতিদিন একটি ছেলে একটি মেয়েকে অনুসরণ করে।

‘প্রথম দেখাতেই প্রেমে পরে যান দুজন দুজনার। সেই থেকে বাসের পেছনের সিট থেকে দুজনের প্রেমের পরিণতির গল্প বলা হয়েছে নাটকে। পুরো নাটকটি শুট করা হয়েছে একটি বাসে। নিশো ভাইয়ের এই গল্পকে একটা ভিজুয়াল রূপ দিতে পেরে ভালো লাগছে। আশা করি দর্শক গল্পটা উপভোগ করবেন।’

নিজের গল্প প্রসঙ্গে আফরান নিশো বলেন, ‘এবারের ঈদে বেশ কম কাজ করেছি। তার মধ্যে নিজের গল্প ভাবনার একটি নাটক আসছে। দর্শকদের প্রতিক্রিয়া দেখতে মুখিয়ে আছি। আশা করি, দর্শক ভিন্ন কিছু দেখতে পাবেন।’

অভ্র দ্বীপ্ত ব্যানার্জির চিত্রনাট্যে আফরান নিশো ও মেহজাবিন চৌধুরী ছাড়াও নাটকটিতে অভিনয় করেছেন ফরহাদ লিমন, রত্না খান, নিকুল কুমার বিশ্বাস, তামজিদ তন্মায় ও নিপুণ চৌধুরী।

জানা গেছে, ঈদের দ্বিতীয় দিন সন্ধ্যা ৭টা ৫০ মিনিটে নাটকটি প্রচার হবে বাংলাভিশিনে। একই সময় নাটকটি দেখা যাবে ভিজুয়াল সিন এন্টারটেইনমেন্টের ইউটিউব চ্যানেলে।

শেয়ার করুন

পার্লার ব্যবসায় সালাহউদ্দিন লাভলু!

পার্লার ব্যবসায় সালাহউদ্দিন লাভলু!

নাটকে কেন্দ্রীয় চরিত্রে সালাহউদ্দিন লাভলু ও মৌসুমী মৌ। ছবি: সংগৃহীত

১৩ বছর পর দুবাই থেকে দেশে ফেরা বন্ধু কচি খন্দকার বিউটি পার্লার চালু করার বুদ্ধি দেয় লাভলুকে। স্ত্রীর সঙ্গে এ বিষয়ে পরামর্শ করেন ভোলা। কুসুম প্রথমে রাজিও হয়।

নতুন ব্যবসায় নাম লেখালেন জনপ্রিয় অভিনেতা-নির্মাতা সালাহউদ্দিন লাভলু। তবে ব্যবসাটা কোনো রেস্টুরেন্ট বা ফ্যাশন হাউসের নয়, বিউটি পার্লারের! আসন্ন ঈদে প্রচারের জন্য নির্মিত একটি নাটকে নাপিত চরিত্রে অভিনয় করেছেন সালাউদ্দিন লাভলু।

নাটকের গল্পে দেখা যাবে, ভোলা সুপার সেলুন (প্রা.) লিমিটেডের মালিক ভুলু তালুকদার ওরফে ভোলা নাপিত। আশপাশের দশগ্রামে তার নামডাক। যদিও ‘নাপিত’ বললে ভীষণ ক্ষেপে যান তিনি। সবার চুল দাড়ি ছেটে সুন্দর করে দেন, তাই তার চাওয়া সবাই তাকে ডাকবে নরসুন্দর ভোলা।

১৩ বছর পর দুবাই থেকে দেশে ফেরা বন্ধু কচি খন্দকার বিউটি পার্লার চালু করার বুদ্ধি দেয় লাভলুকে। স্ত্রীর সঙ্গে এ বিষয়ে পরামর্শ করেন ভোলা। কুসুম প্রথমে রাজিও হয়।

কিন্তু একদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে কুসুম ভীষণ ক্ষিপ্ত হয় ভোলার ওপর। মোবাইলে কয়েকটা ভিডিও দেখিয়ে বলে, এসব করার জন্যই বিউটি পার্লার চালু করতে চায় ভোলা? রাগ করে চলে যায় বাপের বাড়ি।

শেষ পর্যন্ত কি কুসুম ফিরে আসে বাপের বাড়ি থেকে? ভোলা কি পারে বিউটি পার্লার চালু করতে?

‘কুসুম বিউটি পার্লার’ নামের নাটকটিতে ভোলার স্ত্রী কুসুম চরিত্রে দেখা যাবে উপস্থাপক ও অভিনেত্রী মৌসুমী মৌকে। নাটকটি রচনা করেছেন খায়রুল বাবুই, পরিচালনা করেছেন মেহেদী বিন আশরাফ। নাটকটি প্রচারিত হবে দীপ্ত টিভির ঈদ আয়োজনে।

শেয়ার করুন

জালিয়াতির মুখে স্বস্তিকা, পুলিশে অভিযোগ

জালিয়াতির মুখে স্বস্তিকা, পুলিশে অভিযোগ

টালিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়। ছবি: সংগৃহিত

ওই ব্যক্তির সঙ্গে কথোপকথনের স্ক্রিনশটও নিজের ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছেন স্বস্তিকা। সেখানে দেখা যাচ্ছে, একটি ওষুধের ৬টি ডোজের জন্য ৩০ হাজার টাকা দাম হাঁকিয়েছেন সে ব্যক্তি। শুধু তাই নয়, জানিয়েছেন অর্ধেক টাকা আগে দিতে হবে। অর্ধেক পরে।

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ ভয়াবহ প্রভাব ফেলেছে ভারতের ওপর। প্রতিদিনই বেড়েই চলেছে শনাক্ত ও মৃতের সংখ্যা। কোনোভাবেই পরিস্থিতি সামাল দেয়া যাচ্ছে না। হাসপাতালগুলোতে খালি নেই বেড; চরম সংকট অক্সিজেনের।

এমন সময়ে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ সাধ্যমতো সাহায্যের চেষ্টা করছেন ভুক্তভোগীদের।

বিভিন্নভাবে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন বলিউডের অনেক তারকা। এ থেকে ব্যতিক্রম নয় টালিউডও। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভরে উঠেছে সাধারণ মানুষের জন্য তাদের নানা রকম সাহায্যের পোস্টে।

কিন্তু সাহায্য করতে গিয়েই জালিয়াতি চক্রের মুখোমুখি হচ্ছেন কেউ কেউ। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম বলছে, অক্সিজেন, হাসপাতালের শয্যা, ওষুধ, কোভিড পরী‌ক্ষা, রোগীর চিকিৎসাসহ বিভিন্ন বিষয়ে জালিয়াতি হচ্ছে বলে জানা যাচ্ছে। অভিযোগ উঠেছে মানুষের বিপদের সুযোগ নিচ্ছেন অসাধুরা।

এমন জালিয়াতির সাক্ষী হলেন টালিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়ও। তবে বিষয়টি নিয়ে চুপ থাকেননি অভিনেত্রী। সরাসরি আইনের দ্বারস্থ হলেন এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে।

ওই ব্যক্তির সঙ্গে কথোপকথনের স্ক্রিনশটও নিজের ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছেন স্বস্তিকা।

সেখানে দেখা যাচ্ছে, একটি ওষুধের ৬টি ডোজের জন্য ৩০ হাজার টাকা দাম হাঁকিয়েছেন সে ব্যক্তি। শুধু তাই নয়, জানিয়েছেন, অর্ধেক টাকা আগে দিতে হবে। অর্ধেক পরে।

তবে এ নিয়ে অভিনেত্রী বিশেষ কিছু আর বলেননি।

সেই স্ক্রিনশটেই জানা গেল, দিল্লিবাসী এই ব্যক্তির নামে পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছেন অভিনেত্রী।

আর কেউ যেন ওই ব্যক্তির ফাঁদে না পড়েন সে কথা জানিয়ে তার নম্বর দিয়ে অভিনেত্রী সেখানে লিখেছেন, ‘এর থেকে দূরে থাকুন’।

শেয়ার করুন

বঞ্চিত শিশুদের বুফে দেখাল নায়ক-নায়িকা

বঞ্চিত শিশুদের বুফে দেখাল নায়ক-নায়িকা

নায়িকা অধরা (উপরে) ও বাপ্পীর সঙ্গে সুবিধা বঞ্চিত শিশুরা। ছবি: সংগৃহীত

চিত্রনায়িকা অধরা খান বলেন, ‘তারা সবসময় শুধু শুনে এসেছে বুফেতে যত ইচ্ছে, তত খাওয়া যায়। তাদের সেই ইচ্ছেটা পূরণ হলো। আমাদের সবার উচিত সুবিধাবঞ্চিত এসব শিশুর পাশে দাঁড়ানো।’

সুবিধাবঞ্চিত প্রায় দুইশ শিশুদের সঙ্গে অন্যরকম এক সন্ধ্যা কাটালেন চিত্রনায়িকা অধরা খান ও চিত্রনায়ক বাপ্পি চৌধুরী। বৃহস্পতিবার রাজধানীর ঢাকা উদ্যানে ‘সুইচ বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন’ আয়োজিত সুইচ তাহমিনা বানু বিদ্যানিকেতন নামের স্কুলের শিক্ষার্থীদের জন্য আয়োজন করা হয় ব্যতিক্রমী এই ইফতার।

যেখানে বাপ্পি-অধরা ছাড়াও এতে অংশ নেন পরিচালক সাজ্জাদ খান। সুবিধাবঞ্চিত বস্তির শিশুরা প্রথমবারের মতো পায় বুফে খাবারের স্বাদ। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

ঢাকা উদ্যানের বস্তির সুবিধাবঞ্চিত নিম্ন আয়ের মানুষদের নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে কাজ করছে সুইচ-বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন। সেখানকার বাচ্চাদের সমনাগরিক সুবিধা দিতে তাদের লেখাপড়াসহ সৃষ্টিশীল নানা অঙ্গনে সম্পৃক্ত করছে সংগঠনটি। তাদের অন্যতম পৃষ্ঠপোষক হিসেবে আছেন অধরা খান।

এ চিত্রনায়িকা বলেন, ‘এখানকার শিশুরা সমাজের আট-দশজনদের মতোই যেন বেড়ে ওঠে, এ জন্য কাজ করছে সংগঠনটি। বস্তির এ শিশুরাও প্রচণ্ড মেধাবী। তারা খুবই সুন্দর আর্ট করে। কেউ খেলাধুলায় ভালো।

‘তারা সবসময় শুধু শুনে এসেছে বুফেতে যত ইচ্ছে, তত খাওয়া যায়। তাদের সেই ইচ্ছেটা পূরণ হলো। আমাদের সবার উচিত সুবিধাবঞ্চিত এসব শিশুর পাশে দাঁড়ানো।’

বঞ্চিত শিশুদের বুফে দেখাল নায়ক-নায়িকা
বুফেতে ইফতার নিচ্ছে সুবিধা বঞ্চিত শিশুরা। ছবি: সংগৃহীত

অন্যদিকে, ইফতার শেষে বাচ্চাদের সঙ্গে সময় কাটান এই দুই তারকা। শিশুরা তাদের আঁকা ছবি উপহার হিসেবে দেয়।

সুইচ বাংলাদেশ ফাউন্ডেশনের অন্যতম সংগঠক মুস্তাফিজুর বলেন, ‘সমাজে উচ্চশ্রেণির মানুষদের প্রায়ই ভিড় থাকে বুফে খাবারের রেস্তোরাঁগুলোতে। তাদের সেই স্বাদটা দিতেই আমরা বুফে ইফতারের আয়োজন করেছি।’

শেয়ার করুন