20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
জোলির পরিচালনায় ডন ম্যাককুলিনের বায়োপিক

জোলির পরিচালনায় ডন ম্যাককুলিনের বায়োপিক

বিশ্বখ্যাত অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি এবার নির্মাণ করতে যাচ্ছেন বিখ্যাত আলোকচিত্রী ডন ম্যাককুলিনের বায়োপিক। ওয়ার ফটোগ্রাফার হিসেবে ডন ম্যাককুলিনের খ্যাতি বিশ্ব জোড়া। নাম চূড়ান্ত না হওয়া এই সিনেমায় ম্যাককুলিনের চরিত্রে অভিনয় করবেন ম্যাড ম্যাক্স খ্যাত অভিনেতা টম হার্ডি।

হলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি। এবার তিনি নির্মাণ করতে যাচ্ছেন বিখ্যাত আলোকচিত্রী ডন ম্যাককুলিনের বায়োপিক। ওয়ার ফটোগ্রাফার হিসেবে ডন ম্যাককুলিনের খ্যাতি বিশ্ব জোড়া।

নাম চূড়ান্ত না হওয়া এই সিনেমায় ম্যাককুলিনের চরিত্রে অভিনয় করবেন ম্যাড ম্যাক্স খ্যাত অভিনেতা টম হার্ডি। ম্যাককুলিনের আত্মজীবনী আনরিজনেবল বিহেভিয়র থেকে সিনেমার চিত্রনাট্য করবেন ২০১৪ সালে মুক্তি পাওয়া সিনেমা ’৭১-এর চিত্রনাট্যকার গ্রেগরি বার্ক।

অ্যাঞ্জেলিনা জোলি এর আগেও সিনেমা নির্মাণ করেছেন। যার মধ্যে অন্যতম ইন দ্য ল্যান্ড অব ব্লাড অ্যান্ড হানি, আনব্রোকেন, ফার্স্ট দে কিল মাই ফাদার। এই সিনেমাগুলোর প্রেক্ষাপট ছিল যুদ্ধ।

ওয়ার ফটোগ্রাফার ডন ম্যাককুলিন

লন্ডনে জন্ম নেয়া ডন ম্যাককুলিনের বয়স এখন ৮৫ বছর। ১৯৬৬ থেকে ১৯৮৪ সালের মধ্যে ম্যাককুলিন কাজ করতেন দ্য সানডে টাইমস ম্যাগাজিনে। তখন তার করা ভিয়েতনাম এবং উত্তর আয়ারল্যান্ডের সংকট বিষয়ক প্রতিবেদন তাকে এনে নেয় বিশেষ প্রশংসা।

ডন ম্যাককুলিনের তোলা ছবি

ডন ম্যাককুলিনের বায়োপিক নির্মাণ প্রসঙ্গে জোলি বলেন, ‘ডন ম্যাককুলিনের নির্ভীকতা ও মানবতার এক অনন্য সমন্বয় দেখে মুগ্ধ হয়েছি। একই সঙ্গে যুদ্ধের সত্য প্রকাশে তার সততা এবং ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে চেয়েছি।’

অভিনেতা টম হার্ডি

সিনেমাটি প্রসঙ্গে ডন ম্যাককুলিন বলেন, ‘জোলির ফার্স্ট দে কিল মাই ফাদার সিনেমাটি দেখেছিলাম কম্বোডিয়াতে। যুদ্ধ চলাকালিন সময়ে আমি সেখানে ছিলাম। পরিচালক হিসেবে সিনেমায় জোলির স্বচ্ছ উপস্থাপন দেখে আমি মুগ্ধ হয়েছি। মূলত সে কারণেই আমার সিনেমায় আগ্রহ হয়।’

ছবিটি প্রযোজনা করছে অভিনেতা টম হার্ডির প্রতিষ্ঠান হার্ডি সন এবং বেকার কোম্পানি।

শেয়ার করুন

মন্তব্য