20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
গোল্ডেন গ্লোব অ্যাওয়ার্ডে ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’

গোল্ডেন গ্লোব অ্যাওয়ার্ডে ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’

আগামী ৫ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় শুরু হবে এ প্রতিযোগিতা। এতে অংশ নিতে সম্প্রতি আমন্ত্রণ পেয়েছেন বলে সোমবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানিয়েছেন পরিচালক রুবাইয়াৎ হোসেন নিজেই।

৭৮তম গোল্ডেন গ্লোব অ্যাওয়ার্ড প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে যাচ্ছে রুবাইয়াৎ হোসেনের তৃতীয় সিনেমা ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’।

আগামী ৫ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় শুরু হবে এ প্রতিযোগিতা। এতে অংশ নিতে সম্প্রতি আমন্ত্রণ পেয়েছেন বলে সোমবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানিয়েছেন পরিচালক রুবাইয়াৎ হোসেন নিজেই।

খনা টকিজ ও ফরাসি প্রযোজক ফ্রাঙ্কোইস ডি’আর্তেমারের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত এ সিনেমা প্রতিযোগিতায় বেস্ট ফরেন ল্যাঙ্গুয়েজ ফিল্ম ক্যাটাগরিতে অংশ নেবে।

গত বছর ৭৭তম আসরে বিশ্বব্যাপী ৯৩টি সিনেমা এ ক্যাটাগরিতে অংশ নেয়। পুরস্কার জিতে নেয় দক্ষিণ কোরিয়ার সিনেমা ‘প্যারাসাইট’।

বাংলাদেশের পোশাক শিল্পকর্মীদের গল্প নিয়ে ২০১৯ সালে নির্মিত হয় ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’। সিনেমাটি শিমু নামের এক তরুণীকে ঘিরে, যিনি গ্রাম থেকে পালিয়ে ঢাকা এসে একটি পোশাক কারখানায় কাজ করেন। তার মাধ্যমে পোশাক কর্মীদের অধিকার আদায়ের গল্প দেখাতে চেয়েছেন নির্মাতা।

শিমু চরিত্রে অভিনয় করেছেন রিকিতা নন্দিনী শিমু। সিনেমাটি গোল্ডেন গ্লোবের মতো প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারছে- এ খবরে উচ্ছ্বসিত তিনি।

শিমু নিউজবাংলাকে বলেন, ‘এ সিনেমার সঙ্গে আমার অনেক দিনের যাত্রা। প্রথম থেকেই আমরা এটা নিয়ে অনেক সাফল্য পেয়েছি। অনেক ফেস্টিভ্যালে অংশ নিয়েছি।

‘কিন্তু গোল্ডেন গ্লোবের মতো বড় একটা জায়গায় যাওয়া সত্যিই ভাগ্যের ব্যাপার। আমাদের ডিরেক্টর রুবাইয়াৎ আপা অন্য রকম মানুষ। তিনিসহ সবার কাজের কষ্টের ফল এই সাফল্য।’

শিমুর সঙ্গে এ সিনেমায় আরো অভিনয় করেছেন সাহানা গোস্বামী, মোস্তফা মনোয়ার, নভেরা রহমান, ওয়াহিদা মল্লিক জলি ও শতাব্দী ওয়াদুদ।

শেয়ার করুন