20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
শিল্পকলায় ফিরছে নাটক

শিল্পকলায় ফিরছে নাটক

করোনা ভাইরাসের কারণে সাত মাস বন্ধ ছিল বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি। ২৩ অক্টোবর খুলছে এর তিনটি হল।

নাট্যপ্রেমীদের জন্য স্বস্তির খবর। যারা থিয়েটারে গিয়ে অভিনয় দেখতে পছন্দ করেন, তাদের আর খুব একটা অপেক্ষায় থাকতে হবে না।

শিল্পকলা একাডেমিতে নাটকের তিনটি হল খুলছে আগামী ২৩ অক্টোবর।

থিয়েটারের আগেই খুলবে মহড়ার হল। ১৫ অক্টোবরের পর খুলবে সেখানের তালা।

করোনা মহামারীর কারণে মার্চ থেকে বন্ধ গোটা একাডেমি।

সেখানে নাটক ছাড়া শিল্পকলার আর যেসব আয়োজন হয়, সেগুলো অবশ্য এখনই শুরু হচ্ছে না। কারণ, নাটক ছাড়া অন্য হলগুলো বন্ধই থাকবে।

খুলছে কেবল জাতীয় থিয়েটার হল, এক্সপেরিমেন্টাল হল ও স্টুডিও থিয়েটার হল। তবে করোনাকালে স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিবেচনায় থাকছে বিধি নিষেধ। হলগুলোর স্বাভাবিক দর্শক ধারণ ক্ষমতার এক-তৃতীয়াংশ ব্যবহার করতে হবে।

প্রাথমিকভাবে শুধু শুক্রবার ও শনিবার খোলা থাকবে হলগুলো। থিয়েটার দলগুলোর জন্য আরও সুখবর যে, করোনা পরিস্থিতিতে হল ব্যবহারে কোনো অর্থ খরচ করতে হবে না। বিনামূল্যে ভাড়া দেবে একাডেমি।

সম্প্রতি শিল্পকলা একাডেমি ও গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের সভায় হলগুলো খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী। উপস্থিত ছিলেন গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের মহাসচিব কামাল বায়োজিদ ও ফেডারেশনের অন্যান্য সদস্যরা।

সভায় সিদ্ধান্ত জানিয়ে লিয়াকত আলী লাকী বলেন, ’হলগুলোর দর্শক ধারণ ক্ষমতার এক-তৃতীয়াংশ ব্যবহার করার জন্য নতুন করে সিটগুলো সাজানো হবে। সাংস্কৃতিক বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী আমাদের হলগুলো বিনামূল্যে ব্যবহার করা যাবে।‘

কামাল বায়োজিদ বলেন, ‌‘থিয়েটার হলগুলো দীর্ঘ দিন পরে আগের রূপে ফিরে যাবে এ নিয়ে আমরা আনন্দিত।‘

সূত্রঃ ইউএনবি

শেয়ার করুন

মন্তব্য