× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য পডকাস্ট বাংলা কনভার্টার নামাজের সময়সূচি আমাদের সম্পর্কে যোগাযোগ প্রাইভেসি পলিসি

শিক্ষা
There will be no temporary examination of students till third class
google_news print-icon

তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত সাময়িক পরীক্ষা হবে না

তৃতীয়-শ্রেণি-পর্যন্ত-সাময়িক-পরীক্ষা-হবে-না
ছবি: সংগৃহীত
প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব ফরিদ আহাম্মদ বলেন, ‘তৃতীয় শ্রেণী পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের বইয়ের বোঝা থেকে মুক্ত করার চেষ্টা করছি। প্রথম থেকে তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত সাময়িক, দ্বিতীয় সাময়িক- এসব পরীক্ষা আর থাকবে না। নতুন শিক্ষাক্রম অনুযায়ী ধারাবাহিক মূল্যায়ন থাকবে।’

নতুন শিক্ষাক্রমের আলোকে প্রথম থেকে তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের প্রথম ও দ্বিতীয় সাময়িক পরীক্ষা থাকছে না। এর পরিবর্তে অ্যাপের মাধ্যমে ধারাবাহিক মূল্যায়ন করা হবে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব ফরিদ আহাম্মদ বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানান।

সচিবালয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সচিব বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের ধারাবাহিকভাবে মূল্যায়নের লক্ষ্যে একটি অ্যাপ তৈরি করা হয়েছে। শিক্ষার্থীরা যাতে দ্রুত মূল্যায়ন করতে পারে এ জন্য এনসিটিবি এই অ্যাপ করেছে।

তিনি বলেন, ‘তৃতীয় শ্রেণী পর্যন্ত শিশু শিক্ষার্থীদের বইয়ের বোঝা থেকে মুক্ত করার চেষ্টা করছি। সে কারণে ধারাবাহিক মূল্যায়ন হলো একজন শিক্ষার্থীর সামগ্রিক আচরণ পর্যবেক্ষণ করা। এটি হল মূল্যায়নের মাধ্যমে মূল্যায়ন।

‘মূল কথা হলো প্রথম থেকে তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত সাময়িক, দ্বিতীয় সাময়িক- এসব পরীক্ষা আর থাকবে না। মূল্যায়নের পদ্ধতি গতানুগতিক হবে না। নতুন শিক্ষাক্রম অনুযায়ী থাকবে ধারাবাহিক মূল্যায়ন।

প্রসঙ্গত, ২০২৩ সালে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ে নতুন শিক্ষাক্রম বাস্তবায়ন শুরু হয়। প্রথম, ষষ্ঠ ও সপ্তম শ্রেণিতে নতুন শিক্ষাক্রম শুরু হয়। নতুন করে দ্বিতীয়, তৃতীয়, অষ্টম ও নবম শ্রেণীতে চালু হয়েছে এই শিক্ষাক্রম। এরই আলোকে ২০২৭ সালে দ্বাদশ শ্রেণিতে বাস্তবায়িত হবে নতুন শিক্ষাক্রম।

মন্তব্য

আরও পড়ুন

শিক্ষা
The training camp of Barca Academy is starting again in the country

দেশে ফের শুরু হচ্ছে বার্সা অ্যাকাডেমির ট্রেনিং ক্যাম্প

দেশে ফের শুরু হচ্ছে বার্সা অ্যাকাডেমির ট্রেনিং ক্যাম্প ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনার মেধা অনুসন্ধানী প্রতিষ্ঠান বার্সা অ্যাকাডেমিতে তাদের নিজস্ব পদ্ধতির স্কুল মডেলের মাধ্যমে প্রশিক্ষণ ব্যবস্থা পরিচালিত হয়ে থাকে। ছবি: সংগৃহীত
আগামী ১৯ থেকে ২৩ জুন এ ক্যাম্প অনুষ্ঠিত হবে। আইএসডির পাশাপাশি অন্যান্য স্কুলের শিক্ষার্থীরাও এই ক্যাম্পে অংশ নিতে পারবে।

ইন্টারন্যাশনাল স্কুল ঢাকার (আইএসডি) ক্যাম্পাসে বার্সা অ্যাকাডেমির নির্ধারিত কোচের সরাসরি তত্ত্বাবধায়নে টানা দ্বিতীয়বারের মতো আয়োজিত হতে যাচ্ছে ট্রেনিং ক্যাম্প।

আগামী ১৯ থেকে ২৩ জুন এ ক্যাম্প অনুষ্ঠিত হবে। আইএসডির পাশাপাশি অন্যান্য স্কুলের শিক্ষার্থীরাও এই ক্যাম্পে অংশ নিতে পারবে।

ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনার মেধা অনুসন্ধানী প্রতিষ্ঠান বার্সা অ্যাকাডেমি শিক্ষার্থীদের ফুটবলের মাধ্যমে কেবল খেলোয়াড় হওয়ার প্রশিক্ষণই দেয় না, একইসঙ্গে ভালো মানুষ হিসেবেও গড়ে তোলার চেষ্টা করে। বার্সার তৈরি নিজস্ব পদ্ধতি দ্বারা অনুপ্রাণিত স্কুল মডেলের মাধ্যমে এ প্রশিক্ষণ ব্যবস্থা পরিচালিত হয়ে থাকে।

আইএসডি থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, দক্ষতা উন্নয়ন, দলগত কাজ ও খেলোয়াড়সুলভ মানসিকতার ওপর গুরুত্ব দিয়ে মেধাবী তরুণদের ফুটবলে দক্ষ ও আগ্রহী করে তোলার ক্ষেত্রে একটি প্রতিশ্রুতিশীল প্ল্যাটফর্ম হিসেবে ভূমিকা রাখছে আইএসডির বার্সা অ্যাকাডেমি ফুটবল ট্রেনিং ক্যাম্প। এতে সমাদৃত বার্সা পদ্ধতি (মেথডলজি) অবলম্বন করে অংশগ্রহণকারীদের জন্য প্রশিক্ষণ নিশ্চিত করবেন বার্সা অ্যাকাডেমির কোঅর্ডিনেটর ফ্রানসেস্ক পুইগডোমিনেক ও কোচ হেক্টর আলবিনানা। কোচদের দক্ষতা ও নির্দেশনা অংশগ্রহণকারীদের জন্য সহায়ক হবে এবং এই অভিজ্ঞতা স্মরণীয় হয়ে থাকবে।

বার্সা অ্যাকাডেমি ফুটবল ট্রেনিং ক্যাম্প সামগ্রিক উন্নয়নের ওপর গুরুত্ব আরেপ করে, যেখানে প্রতিটি খেলোয়াড়কে কেবল প্রায়োগিক দক্ষতা বাড়ালেই হয় না, পাশাপাশি দলগত কাজের গুরুত্ব, সততার সঙ্গে খেলা (ফেয়ার প্লে) এবং খেলার প্রতি মর্যাদার বিষয়টিও শিখতে হয়।

আইএসডি ও অন্যান্য স্কুলের ৬ থেকে ১৭ বছর বয়সী আগ্রহী শিক্ষার্থীরা এই ক্যাম্পে অংশ নিতে পারবে। বয়সভিত্তিক ৩টি গ্রুপে সেশনগুলো আয়োজিত হবে।

অনূর্ধ্ব ১১ বছর বয়সীদের জন্য সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত, অনূর্ধ্ব ১৪ বছর বয়সীদের জন্য বেলা সাড়ে ১২টা থেকে বেলা আড়াইটা পর্যন্ত এবং অনূর্ধ্ব ১৮ বছর বয়সীদের জন্য বেলা সাড়ে ৩টা থেকে বিকেল সাড়ে ৫টা পর্যন্ত সময় নির্ধারণ করা হয়েছে।

ক্যাম্পের জন্য এখনই নিবন্ধন করা যাবে। নিবন্ধনের সুযোগ থাকবে আগামী ২১ মে পর্যন্ত।

এ বিষয়ে আইএসডির অফিশিয়াল ফেসবুক পেইজ থেকে বিস্তারিত জানা যাবে।

আইএসডির শিক্ষার্থীরা https://forms.gle/CuvBXERyWwdvAuZa6 এই লিঙ্ক থেকে এবং অন্যান্য স্কুলের শিক্ষার্থীরা https://forms.gle/zv5rZDYUSdfg4xHD6 এই লিঙ্ক থেকে নিবন্ধন করতে পারবে।

আরও পড়ুন:
বার্সাকে ফাঁকি দিয়ে রিয়ালে ‘তুরস্কের মেসি’
মেসিকে দলে টানতে না পারলেও অন্য খেলোয়াড় কীভাবে কিনছে বার্সা

মন্তব্য

শিক্ষা
Online application for admission to XI starts on May 26

একাদশে ভর্তির অনলাইন আবেদন শুরু ২৬ মে

একাদশে ভর্তির অনলাইন আবেদন শুরু ২৬ মে অনলাইনে ভর্তির আবেদন করছে শিক্ষার্থীরা। প্রতীকী ছবি
একাদশ শ্রেণির ক্লাস শুরু হবে আগামী ৩০ জুলাই।

একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য অনলাইনে আবেদন গ্রহণ শুরু হবে আগামী ২৬ মে যা চলবে ১১ জুন পর্যন্ত। এসএসসির ফল যারা পুনর্নিরীক্ষণের আবেদন করবে, আবেদনের যোগ্য হলে তাদেরও এই সময়ের মধ্যে আবেদন করতে হবে বলে জানানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটি এবং ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক তপন কুমার সরকার স্বাক্ষরিত চিঠিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, (একাদশে ভর্তির জন্য) অনলাইনে আবেদন গ্রহণ শুরু হবে ২৬ মে আর শেষ হবে ১১ জুন। আবেদন যাচাই-বাছাই ও নিষ্পত্তি ১২ জুন থেকে ১৩ জুন। কেবল পুনঃনিরীক্ষণে ফলাফল পরিবর্তিত শিক্ষার্থীদের আবেদন গ্রহণ করা হবে ১২ ও ১৩ জুন। পছন্দক্রম পরিবর্তনের সময় ১২-১৩ জুন।

ঈদুল আজহা উপলক্ষে ১৪ থেকে ১৮ জুন পর্যন্ত অনলাইন সার্ভিস ও কল সেন্টার বন্ধ থাকবে বলেও চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

চিঠিতে উল্লিখিত তথ্যানুসারে, ঈদের ছুটির পর আগামী ২৩ জুন প্রথম পর্যায়ে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ফলাফল প্রকাশ করা হবে। ফল প্রকাশের পর থেকে ২৯ জুন পর্যন্ত শিক্ষার্থীরা নিশ্চায়ন করতে পারবে।

আগামী ৩০ জুন দ্বিতীয় পর্যায়ে আবেদন গ্রহণ শুরু হয়ে চলবে ২ মে পর্যন্ত। এছাড়া, পছন্দক্রম অনুযায়ী প্রথম মাইগ্রেশনের ফল প্রকাশ করা হবে ৪ জুলাই রাত ৮টায়।

দ্বিতীয় পর্যায়ের আবেদনের ফল প্রকাশ করা হবে ৪ জুলাই রাত ৮টায়। দ্বিতীয় পর্যায়ে শিক্ষার্থীর নির্বাচন নিশ্চায়ন ৫ জুলাই থেকে ৮ জুলাই রাত ৮টা পর্যন্ত।

তৃতীয় পর্যায়ে আবেদন গ্রহণ ৯ জুলাই শুরু হয়ে শেষ হবে ১০ জুলাই। পছন্দক্রম অনুযায়ী দ্বিতীয় মাইগ্রেশনের ফল প্রকাশ করা হবে ১২ জুলাই রাত ৮টায়।

তৃতীয় পর্যায়ে আবদেনের ফল প্রকাশ ১২ জুলাই রাত ৮টায়। তৃতীয় পর্যায়ে শিক্ষার্থীর নির্বাচন নিশ্চায়ন ১৩ থেকে ১৪ জুলাই। ভর্তি শুরু হবে ১৫ জুলাই এবং শেষ হবে ২৫ জুলাই। আর ক্লাস শুরু হবে ৩০ জুলাই।

গত ১২ মে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশের পর ১৫ মে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির নীতিমালা প্রকাশ করা হয়।

মন্তব্য

শিক্ষা
Top in the country in tHE Young University Rankings

টিএইচই ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‍্যাঙ্কিংয়ে দেশসেরা খুবি

টিএইচই ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‍্যাঙ্কিংয়ে দেশসেরা খুবি
যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিক্ষা সাময়িকী ‘টাইমস হায়ার এডুকেশন’ (টিএইচই)-এর বৈশ্বিক ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের দুটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় এবং দুটি প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় স্থান পেয়েছে।

টাইমস হায়ার এডুকেশনের বৈশ্বিক ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে বাংলাদেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে শীর্ষ স্থানে উঠে এসেছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় (খুবি)। যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিক্ষা সাময়িকী ‘টাইমস হায়ার এডুকেশন’ (টিএইচই)-এর গ্লোবাল র‌্যাঙ্কিংয়ে টানা দ্বিতীয়বার স্থান পাওয়ার পর এবার এই স্বীকৃতি মিলেছে।

সম্প্রতি এই র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করে টাইমস হায়ার এডুকেশন কর্তৃপক্ষ। র‌্যাঙ্কিংয়ে বৈশ্বিক তালিকায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় ৪০১-৫০০ এর মধ্যে রয়েছে। এটা বাংলাদেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে সবার শীর্ষে।

ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে বাংলাদেশ থেকে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়সহ দুটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় এবং দুটি প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় স্থান পেয়েছে।

গবেষণার মান, শিল্প, আন্তর্জাতিক দৃষ্টিভঙ্গি, গবেষণার পরিবেশ এবং শিক্ষাদান- এই পাঁচটি বিষয়ের ওপর ভিত্তি করে করা ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অর্জন করছে যথাক্রমে ৪৫ দশমিক ২, ১৭ দশমিক ১, ৪৩ দশমিক ৭, ১৪ দশমিক ৫ ও ২২ দশমিক ৭ শতাংশ।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্য অফিস অফ ইন্টারন্যাশনাল অ্যাফেয়ার্সের পরিচালক ও র‌্যাঙ্কিং কমিটির আহ্বায়ক প্রফেসর সেহরীশ খান বলেন, ‘খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন নিজেই একজন গবেষক। তিনি উপাচার্যের দায়িত্ব নেয়ার পর গবেষণায় বিশেষ গুরুত্ব দেন। গবেষণার জন্য যথোপযুক্ত পরিবেশ সৃষ্টিতেও উদ্যোগ নেন তিনি।’

তিনি আরও বলেন, ‘এ ছাড়া খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়কে আন্তর্জাতিক র‌্যাঙ্কিংয়ে নিয়ে যেতে নানা উদ্যোগ বাস্তবায়ন করেন ভিসি। এর ফলশ্রুতিতে টাইমস হায়ার এডুকেশন র‌্যাঙ্কিং, কিউএস র‌্যাঙ্কিংয়ের পর ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় স্থান পেয়েছে। এতে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান আরও সুদৃঢ় হয়েছে।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদ্দুস বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের সব ক্ষেত্রে পরিবর্তনের ছোঁয়া এখন দৃশ্যমান। বর্তমান উপাচার্যের বলিষ্ঠ নেতৃত্ব ও দূরদর্শিতায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় স্বপ্নের পথে ডানা মেলেছে। একের পর এক অর্জনে দেশে সুনাম ও ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হচ্ছে।

‘উপাচার্যের নেতৃত্বে শিক্ষার পাশাপাশি গবেষণা, প্রকাশনা, অবকাঠামো উন্নয়নে ব্যাপক অগ্রগতি সাধিত হয়েছে। এই ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকলে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অতি দ্রুত বাংলাদেশের সব বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে শ্রেষ্ঠ উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পরিণত হবে।’

উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন বলেন, ‘টানা দুবার টাইমস হায়ার এডুকেশন র‌্যাঙ্কিং এবং কিউএস র‌্যাঙ্কিংয়ে স্থান পাওয়ার পর এবার টাইমস হায়ার এডুকেশনের ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে মর্যাদাপূর্ণ অবস্থান পাওয়ায় গর্বিত খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার। গবেষণার প্রতি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের মনোনিবেশ ও আন্তরিকতার ফলে এ অর্জন সম্ভব হয়েছে।

‘বিশ্ববিদ্যালয়ের উৎকর্ষ সাধনে সবার অবদান রয়েছে। একাডেমিক ক্ষেত্রে শিক্ষক-শিক্ষার্থী এবং প্রশাসনিক ক্ষেত্রে কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখছেন। আমি আশা করি, অতিদ্রুত খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় দেশসেরা বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিণত হবে।’

প্রসঙ্গত, ‘টাইমস হায়ার এডুকেশন’ ২০১৯ সাল থেকে ওয়ার্ল্ড ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করে আসছে। যেসব সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের বয়স ৫০ বছর কিংবা তার চেয়ে কম, শুধু তাদের মধ্যে গুণগত মান বিবেচনায় ধরে এই র‌্যাঙ্কিং করা হয়। এবার সব মিলিয়ে বিশ্বের ৬৭৩টি বিশ্ববিদ্যালয় এই র‌্যাঙ্কিংয়ে স্থান করতে পেরেছে, যা বিগত বছর ছিল ৬০৫টি।

র‌্যাঙ্কিংয়ে বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর শিক্ষাদান, গবেষণা, জ্ঞান স্থানান্তর ও আন্তর্জাতিক দৃষ্টিভঙ্গির ১৮টি সূচক মানদণ্ড হিসেবে গণনা করেছে প্রতিষ্ঠানটি। এছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মৌলিক লক্ষ্য, পাঠদান ও গবেষণার মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলোও বিবেচনায় নেয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন:
মাদক সেবনের অপরাধে খুবির চার শিক্ষার্থী বহিষ্কার
জেলে থেকেও বেতন-ভাতা নেন খুবির নির্বাহী প্রকৌশলী
অধ্যাপক নিয়োগ নিয়ে খুবির সাবেক উপাচার্যের বিরুদ্ধে তদন্তে নামছে ইউজিসি
কনসার্টে মাদক সেবন, খুবির ৭ শিক্ষার্থীকে শোকজ
খুবির সাবেক দুই শিক্ষার্থীকে ২০ বছর করে কারাদণ্ড

মন্তব্য

শিক্ষা
SSC and equivalent exam result release date

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ কাল

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ কাল ফাইল ছবি।
সকাল ১০টায় গণভবনে মাধ্যমিক ও সমমান পরীক্ষার ফল ও ফলাফলের পরিসংখ্যান প্রধানমন্ত্রীর কাছে হস্তান্তর করা হবে। এরপর সকাল ১১টায় স্ব স্ব প্রতিষ্ঠান থেকে এবং অনলাইনে একযোগে ফল প্রকাশ করা হবে। এসএমএসের মাধ্যমেও ফল জানা যাবে।

চলতি বছরের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হচ্ছে আগামীকাল রোববার। সকাল ১০টায় গণভবনে মাধ্যমিক ও সমমান পরীক্ষা-২০২৪ এর ফল এবং ফলাফলের পরিসংখ্যান প্রধানমন্ত্রীর কাছে হস্তান্তর করা হবে।

সকাল ১১টায় স্ব স্ব প্রতিষ্ঠান থেকে এবং অনলাইনে একযোগে ফল প্রকাশ করা হবে। এসএমএসের মাধ্যমেও ফল জানা যাবে।

পরীক্ষার ফলাফল ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট wwwdhakaeducationboard.gov.bd-G Result-এ ক্লিক করে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের EIIN এন্ট্রি করে প্রতিষ্ঠানভিত্তিক রেজাল্ট শিট ডাউনলোড করা যাবে।

এছাড়া www.education boardresults.gov.bdbd ওয়েবসাইটে ক্লিক করে, রোল ও রেজিস্ট্রেশন নম্বরের মাধ্যমে রেজাল্ট শিট ডাউনলোড করা যাবে।

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের ১৫ ফেব্রুয়ারি এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয়ে শেষ হয় ১২ মার্চ। মোট ২০ লাখ ২৪ হাজার ১৯২ জন পরীক্ষার্থী এবারের পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে। সারাদেশের ৩ হাজার ৭০০ কেন্দ্রে ২৯ হাজার ৭৩৫টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা এই পরীক্ষায় অংশ নেয়।

আরও পড়ুন:
এসএসসির ফল ১২ মে

মন্তব্য

শিক্ষা
Jobi Vice Chancellors assurance of starting classes by July 15

১৫ জুলাইয়ের মধ্যে ক্লাস শুরুর আশ্বাস জবি উপাচার্যের

১৫ জুলাইয়ের মধ্যে ক্লাস শুরুর আশ্বাস জবি উপাচার্যের পরীক্ষাকেন্দ্র পরিদর্শন শেষ সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন জবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম। ছবি: নিউজবাংলা
জবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম বলেন, ‘জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়কে নিয়ে সবসময় আমার চিন্তা হয়। জুলাইয়ের মধ্যে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে নতুন শিক্ষাবর্ষের ক্লাস শুরুর পরিকল্পনা রয়েছে.…এর আগেই ভর্তি কার্যক্রম শেষ করতে চাই।’

২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি কার্যক্রম দ্রুত শেষ করে জুলাইয়ের মাঝামাঝি সময়ে নতুন শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরুর আশ্বাস দিয়েছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম।

শুক্রবার গুচ্ছ পদ্ধতির ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে নিউজবাংলাকে তিনি এসব কথা বলেন।

গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষার কোর কমিটির যুগ্ম আহ্বায়কের দায়িত্ব পালন করা জবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম বলেন, ‘জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়কে নিয়ে সবসময় আমার চিন্তা হয়। জুলাইয়ের মধ্যে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে নতুন শিক্ষাবর্ষের ক্লাস শুরুর পরিকল্পনা রয়েছে। চেষ্টা করব ১৫ জুলাই থেকে ক্লাস শুরু করতে। এর আগেই ভর্তি কার্যক্রম শেষ করতে চাই। এ লক্ষ্যে গুচ্ছের কোর কমিটিকে দ্রুত ভর্তি প্রক্রিয়া শেষ করার আহ্বান জানাব।’

এর আগে ২৭ এপ্রিল থেকে ‘এ’ ইউনিটের পরীক্ষার মধ্য দিয়ে গুচ্ছ ভর্তি প্রক্রিয়া শুরু হয়। পরবর্তীতে ৪ মে ‘বি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়। শুক্রবার ‘সি’ ইউনিটের প্রথম বর্ষের ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের ভর্তি পরীক্ষার মধ্য দিয়ে দেশের ২৪টি সাধারণ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণ শেষ হয়েছে।

এ দিন বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসসহ দুটি উপ-কেন্দ্রে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

গুচ্ছের ‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায় জবির উপ-কেন্দ্রগুলো ছিল উইলস লিটল ফ্লাওয়ার স্কুল অ্যান্ড কলেজ এবং ঢাকা গভর্নমেন্ট মুসলিম হাই স্কুল। জবি ক্যাম্পাসে ১২ হাজার ৫১৩জন, উইলস লিটল ফ্লাওয়ার স্কুল অ্যান্ড কলেজে ৩ হাজার ৪৮০ জন এবং ঢাকা গভর্নমেন্ট মুসলিম হাই স্কুলে ১ হাজার ২৪৫ জন পরীক্ষার্থীর আসন বিন্যাস করা হয়েছিল।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রের ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার সমন্বয়ক ও বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মঞ্জুর মোর্শেদ ভূইয়া বলেন, ‘জবি কেন্দ্রসহ বাকি দুটো কেন্দ্রে পরীক্ষা সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে সম্পন্ন হয়েছে। মোট পরীক্ষার্থীর ৮৭ শতাংশ উপস্থিত ছিল।’

গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা চলাকালে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রের বিভিন্ন হল পরিদর্শন করেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম।

এ সময় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো. হুমায়ুন কবীর চৌধুরী, বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মঞ্জুর মুর্শেদ ভূঁইয়া, ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ড. মো. আইনুল ইসলাম, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মো. আবুল হোসেন, আইন অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. এসএম মাসুম বিল্লাহ, প্রক্টর অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর হোসেন, শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. মো. জাকির হোসেনসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন:
গুচ্ছের ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় কুবিতে উপস্থিত ৮৭%
গুচ্ছের শেষ পরীক্ষায় জবি এলাকায় যানজটে ভোগান্তি
দেরিতে আসা পরীক্ষার্থীরা ঢুকতে পারেননি জবি কেন্দ্রে

মন্তব্য

শিক্ষা
87 appeared in KUBI in Batch C Unit Admission Test

গুচ্ছের ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় কুবিতে উপস্থিত ৮৭%

গুচ্ছের ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় কুবিতে উপস্থিত ৮৭% ভর্তি পরীক্ষা দিয়ে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ত্যাগ করছেন পরীক্ষার্থীরা। ছবি: নিউজবাংলা
শুক্রবার বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে এই ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এতে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ৩ হাজার ২১৩ পরীক্ষার্থীর মধ্যে উপস্থিত ছিল ২৭৯৯ জন এবং অনুপস্থিত ছিল ৭১৪ জন।

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) গুচ্ছের ২০২৩-২০২৪ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষের ‘সি’ ইউনিটের (ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ) ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এর মধ্যে দিয়ে শেষ হলো দেশের ২৪টি সাধারণ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা।

‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় কুবিতে পরীক্ষার্থীদের উপস্থিতির হার ছিল ৮৭ দশমিক ১১ শতাংশ এবং অনুপস্থিত ছিল ১২ দশমিক ৮৯ শতাংশ পরীক্ষার্থী।

শুক্রবার বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে এই ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এতে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ৩ হাজার ২১৩ পরীক্ষার্থীর মধ্যে উপস্থিত ছিল ২৭৯৯ জন এবং অনুপস্থিত ছিল ৭১৪ জন।

এসব তথ্যের ব্যাপারে নিশ্চিত করেন ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার আহ্বায়ক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আহসান উল্লাহ।

সার্বিক বিষয়ে তিনি বলেন, ‘পরীক্ষা খুব সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে সম্পন্ন হয়েছে। কোথাও কোনো ধরনের সমস্যা হয়নি। ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪টি অ্যাকাডেমিক ভবনে অনুষ্ঠিত হয়েছে। পরীক্ষার কমিটির দায়িত্বে যারা ছিলেন সবাই নিজ নিজ জায়গা থেকে নিজেদের দায়িত্ব সম্পন্ন করেছেন।’

তিনি জানান, পরীক্ষা চলাকালে পরীক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতে প্রক্টরিয়াল বডির সদস্যের পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, ফায়ার সার্ভিস, বিএনসিসি ও রোভার স্কাউটের সদস্যরা দায়িত্ব পালন করেন।

গত ২৭ এপ্রিল গুচ্ছের ‘এ’ ইউনিটের এবং ৩ মে ‘বি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

আরও পড়ুন:
উপাচার্য, কোষাধ্যক্ষের পদত্যাগ দাবিতে কুবি শিক্ষকদের অবস্থান দ্বিতীয় দিনে
পাহাড় কেটে কুবি প্রক্টরের রেস্তোরাঁ!
গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় ‘বি’ ইউনিটে উত্তীর্ণ ৩৬.৩৩ শতাংশ
কুবির কেন্দ্রে এক টেবিলে ১৮ ভর্তিচ্ছু
বিশ্ববিদ্যালয়ে সার্কাস চলছে: ‍কুবি ছাত্রী

মন্তব্য

শিক্ষা
Average life expectancy increased due to accessibility of healthcare Home Minister

স্বাস্থ্যসেবা সহজলভ্য হওয়ায় গড় আয়ু বেড়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বাস্থ্যসেবা সহজলভ্য হওয়ায় গড় আয়ু বেড়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বৃহস্পতিবার প্রবেশিকা অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামানকে ক্রেস্ট দিয়ে সম্মাননা জানানো হয়। ছবি: নিউজবাংলা
আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে আওয়ামী লীগ সরকার স্বাস্থ্যসেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিয়েছে। স্বাস্থ্যসেবা সহজলভ্য হয়েছে এবং আমাদের গড় আয়ু বেড়েছে।’

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, ‘কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে আওয়ামী লীগ সরকার স্বাস্থ্যসেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিয়েছে। স্বাস্থ্যসেবা সহজলভ্য হয়েছে এবং আমাদের গড় আয়ু বেড়েছে।’

বৃহস্পতিবার জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) জহির রায়হান মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ২০২২-২০২৩ শিক্ষাবর্ষে ভর্তিকৃত স্নাতক শ্রেণির প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীদের প্রবেশিকা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০০৮ সালে আওয়ামী লীগের নির্বাচনি ইশতেহারে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার পরিকল্পনার কথা জানিয়েছিলেন। সেই ডিজিটাল বাংলাদেশ এখন বাস্তব। ডিজিটাল বাংলাদেশ হওয়ার কারণেই আমরা উন্নয়নের মহাসড়কে এসেছি।

‘ডিজিটাল বাংলাদেশের সুফল আজ দেশের সর্বত্র পৌঁছে গেছে। দুর্গম চরাঞ্চলের জনগণও ল্যাপটপে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে পারছে। প্রধানমন্ত্রী নারীর ক্ষমতায়ন করেছেন।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাগত শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘জাতি তোমাদের মতো এই মেধাবীদের দিকে তাকিয়ে আছে। তোমরাই দেশের ভবিষ্যৎ, জাতির কাণ্ডারি। তোমরাই বাংলাদেশকে সুখী, সমৃদ্ধ, উন্নত তথা সব কিছুতে স্মার্ট দেশে পরিণত করবে।’

প্রবেশিকা অনুষ্ঠানের সভাপতি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. নূরুল আলম তার বক্তব্যে নবীন শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন ও স্বাগত জানান। তিনি বলেন, ‘যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিক্ষা সাময়িকী টাইমস হায়ার এডুকেশন কর্তৃক শিক্ষা ও গবেষণার ওপর ‘এশিয়া ইউনিভার্সিটি র‍্যাংকিং ২০২৪-এ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশের মধ্যে প্রথম স্থান লাভ করেছে।

‘এছাড়াও বিশ্ব সেরা টু পার্সেন্ট বিজ্ঞানীর তালিকায় এ বিশ্ববিদ্যালয়ের উল্লেখযাগ্যসংখ্যক শিক্ষক-শিক্ষার্থী স্থান লাভ করেছেন। বিভাগভিত্তিক র‍্যাংকিংয়ে দর্শন, ইতিহাস, ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগ শিক্ষা-গবেষণায় দেশসেরা হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে।’

নিয়ম-শৃঙ্খলা মেনে চলার ওপর গুরুত্বারোপ করে উপাচার্য বলেন, ‘এ বিশ্ববিদ্যালয়ের গাছপালা, জলাশয়, মৎস্য এবং অন্যান্য অভ্যন্তরীণ যে সম্পদ আছে, তার রক্ষণাবেক্ষণ এবং ব্যবহারের জন্য সংশ্লিষ্ট অফিস বা ব্যক্তি আছেন। আশা করি শিক্ষার্থীরা সেসবে নিজেকে সংযুক্ত করার অপসংস্কৃতিতে জড়াবে না।’

অনুষ্ঠানে প্রবেশিকা বক্তা হিসেবে ইউজিসি সদস্য অধ্যাপক ড. মো. সাজ্জাদ হোসেন শিক্ষার্থীদের মানবিক বাংলাদেশ গড়ার জন্য মানবিক মানুষ হয়ে ওঠার আহ্বান জানান। তিনি শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে খ্যাতিমান মানুষ হয়ে বের হওয়ার জন্য বলেন, যাতে সবাই তাকে খুঁজে নেয়। তাহলে সেটা বিশ্ববিদ্যালয় তথা সবার জন্য হবে গৌরবের। সবার চিন্তা-মতামতকে শ্রদ্ধা জানানোসহ পিতা-মাতার অবদান মনে রাখার কথা স্মরণ করিয়ে দেন তিনি।

আরও পড়ুন:
জাবিতে যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার
জাবির সিনেট সদস্য হলেন ড. খাদেমুল ইসলাম
পাহাড়ে সশস্ত্র গোষ্ঠী রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে, ছাড় নয়
বান্দরবানে কঠোর অবস্থানে যাবে সরকার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
সার্বিক পরিস্থিতি পরিদর্শনে বান্দরবান গেলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

মন্তব্য

p
উপরে