জবিতে টিকার আবেদনের শেষ দিন বৃহস্পতিবার

জবিতে টিকার আবেদনের শেষ দিন বৃহস্পতিবার

রেজিস্ট্রার ওহিদুজ্জামান বলেন, ‘সময়সীমার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘সময় বাড়ানোর কোনো পরিকল্পনা নেই। আগামীকালই শেষ হচ্ছে টিকার জন্য আবেদন। এরপর আর সময় বাড়ানো হবে না।’

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের করোনাভাইরাস টিকার অনলাইন আবেদন শেষ হচ্ছে বৃহস্পতিবার।

এ আবেদনের সময়সীমা আর বাড়ানো হবে না বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বুধবার নিউজবাংলার প্রতিবেদককে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মো. ওহিদুজ্জামান।

তিনি বলেন, ‘জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে সশরীরে পরীক্ষা নেয়ার জন্য শিক্ষার্থীদের টিকার আবেদনের সময় বৃহস্পতিবার (১০ জুন) শেষ হবে।’

রেজিস্ট্রার ওহিদুজ্জামান বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের নির্দিষ্ট লিংকে তথ্য দেয়া শেষ হলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মে টিকা দেয়া হবে। তবে সকল শিক্ষার্থীর জন্য টিকা বাধ্যতামূলক করা হয়নি। টিকা নিতে চাইলে নিতে পারবে। আগে কোনো শিক্ষার্থী টিকা নিলে তাদের তথ্য দিতে হবে না। পরে করণীয় সম্পর্কে শিক্ষার্থী ও গবেষকদের জানিয়ে দেয়া হবে।’

সময়সীমার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘সময় বাড়ানোর কোনো পরিকল্পনা নেই। আগামীকালই শেষ হচ্ছে টিকার জন্য আবেদন। এরপর আর সময় বাড়ানো হবে না।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের নেটওয়ার্ক অ্যান্ড আইটি দপ্তরের পরিচালক অধ্যাপক ড. উজ্জ্বল কুমার আচার্য্য নিউজবাংলাকে বলেন, ‘এখন পর্যন্ত টিকার জন্য আবেদন করেছে সাড়ে সাত হাজার শিক্ষার্থী।’

তিনি বলেন, ‘মোট শিক্ষার্থীর কতজন আবেদন করল সেটি সময় শেষ হওয়ার পর বোঝা যাবে।’

৩ জুন থেকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক ও স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থী এবং এমফিল ও পিএইচডি গবেষকদের করোনাভাইরাস প্রতিরোধী টিকা দেয়ার জন্য তথ্য নেয়া শুরু হয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরকে শিক্ষার্থীদের তালিকা পাঠানোর জন্য নিমিত্তে ১০ জুনের মধ্যে (www.jnu.ac.bd/vfc19) লিংকে গিয়ে সঠিক তথ্য দিয়ে আবেদন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে বলা হয়েছে।

আরও পড়ুন:
জবিতে ক্লাস পরীক্ষার সিদ্ধান্ত ১৩ জুন
জগন্নাথের নতুন উপাচার্য ঢাবির ইমদাদুল
জুনে স্বশরীরে পরীক্ষা নেবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়
মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি দিয়ে চলছে জবি শিক্ষক সমিতি
ব্লাড ক্যানসারের কাছে হেরে গেলেন জবির রবিন

শেয়ার করুন

মন্তব্য