× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য পডকাস্ট বাংলা কনভার্টার নামাজের সময়সূচি আমাদের সম্পর্কে যোগাযোগ প্রাইভেসি পলিসি

অর্থ-বাণিজ্য
পদ্মা ব্যাংকের এক কাপ চা
google_news print-icon

পদ্মা ব্যাংকের ‘এক কাপ চা’

পদ্মা-ব্যাংকের-এক-কাপ-চা
‘এই ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে গ্রাহকদের কাছে স্বচ্ছ ব্যাংকিং চিত্র তুলে ধরতে চায় পদ্মা ব্যাংক। গ্রাহকরা তাদের চাওয়া-পাওয়া এবং মতামত সরাসরি এখানে উপস্থাপন করতে পারছেন, যা গুরুত্ব সহকারে পর্যালোচনা করবে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ।’

গ্রাহকদের শুভেচ্ছা জানাতে ‘এক কাপ চা ক্যাম্পেইন-২০২১’ শীর্ষক প্রচারাভিযান শুরু করেছে পদ্মা ব্যাংক। ব্যাংকটির ৫৮টি শাখায় একযোগে পরিচালিত হচ্ছে তিন দিনব্যাপী এই প্রচারাভিযান।

পদ্মা ব্যাংকের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, রোববার এই প্রচারাভিযান শুরু হয়েছে। রাজধানীর গুলশানে পদ্মা ব্যাংকের করপোরেট হেড অফিসে ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. এহসান খসরু প্রচারাভিযান উদ্বোধন করেন।

উদ্বোধনকালে তিনি বলেন, ‘এই ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে গ্রাহকদের কাছে স্বচ্ছ ব্যাংকিং চিত্র তুলে ধরতে চায় পদ্মা ব্যাংক। গ্রাহকরা তাদের চাওয়া-পাওয়া এবং মতামত সরাসরি এখানে উপস্থাপন করতে পারছেন, যা গুরুত্ব সহকারে পর্যালোচনা করবে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ।’

এহসান খসরু জানান, এছাড়া পদ্মা ব্যাংকের নতুন প্রডাক্টগুলো সম্পর্কে জানতে পারবেন গ্রাহকরা। এতে করে ব্যাংকের পক্ষে শতভাগ ডিজিটালাইজেসনের মাধ্যমে গ্রাহক পরিষেবা বাড়ানো আরও সহজ হবে।

এহসান খসরু আরও জানান, করোনা মহামারির মধ্যেও নিরবিচ্ছিন্ন ব্যাংকিং সেবা দিয়ে আসছে পদ্মা ব্যাংক। এই মহামারির সময়ে গ্রাহকদের সঙ্গে হৃদ্যতা বাড়ানো ও সম্পর্ক জোরদার করা এই প্রচারাভিযানের মূল উদ্দেশ্য।

ব্যাংকের কর্মকর্তারা জানান, ব্যাংকের অত্যাধুনিক পরিষেবা ও বিশেষ প্রোডাক্ট নিয়ে আলোচনা করা হয় গ্রাহকদের সঙ্গে। প্রতিদিনের মুনাফা প্রতিদিন বুঝে পাওয়ার বিশেষ স্কিম ‘পদ্মা প্রতিদিন’ নিয়ে গ্রাহকদের মতামত জানতে চাওয়া হয়। এই সম্মেলনে গৃহিণী, শিক্ষার্থী ও বিভিন্ন শ্রেণি পেশার গ্রাহকরা অংশ নেন এবং তাদের গুরুত্বপূর্ণ মতামত দেন।

পদ্মা ব্যাংকের বিজনেস হেড জাবেদ আমিন, মানবসম্পদ বিভাগের প্রধান এসইভিপি মো. আহসান উল্লাহ খান, আরএমডি অ্যান্ড ল’ হেড ফিরোজ আলম, হেড অব ব্রাঞ্চ সাব্বির মোহাম্মদ সায়েমসহ ব্যাংকটির বিভিন্ন বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা প্রচারাভিযানের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

এক কাপ চা ক্যাম্পেইন এর মাধ্যমে গ্রাহকদের সঙ্গে নিয়ে দ্বিতীয় বর্ষপূর্তির আয়োজনও করে পদ্মা ব্যাংক লিমিটেড।

২০১৯ সালের ২৯ জানুয়ারি যাত্রা শুরু করে পদ্মা ব্যাংক। বর্তমানে ব্যাংকটির ৬৮ শতাংশ শেয়ারের অংশীদার সোনালী, অগ্রণী, জনতা, রূপালী ও ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশ (আইসিবি)। সম্প্রতি প্রগতি সরণি শাখা উদ্বোধন করে ৫৮ শাখা নিয়ে গ্রাহকদের পাশে আছে পদ্মা ব্যাংক।

আরও পড়ুন:
পদ্মা ব্যাংক সিকিউরিটিজের বুথ হচ্ছে কানাডায়
ডিসি-এসপিকে পদ্মা ব্যাংকের নতুন বছরের শুভেচ্ছা
নতুন ঠিকানায় পদ্মা ব্যাংকের রহিমানগর শাখা
পদ্মা ব্যাংকের প্রগতি সরণি শাখা চালু
পদ্মা ব্যাংকের ইন্টারনেট ব্যাংকিংয়ের যাত্রা শুরু

মন্তব্য

আরও পড়ুন

অর্থ-বাণিজ্য
Hundi and online gambling 22 thousand mobile banking accounts closed
হুন্ডি ও অনলাইন জুয়া

মোবাইল ব্যাংকিংয়ের ২২ হাজার অ্যাকাউন্ট বন্ধ

মোবাইল ব্যাংকিংয়ের ২২ হাজার অ্যাকাউন্ট বন্ধ ফাইল ছবি
বাংলাদেশ ফিনান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিট থেকে বন্ধ করে দেয়া হিসাবগুলোর বেশিরভাগই বিকাশ, নগদ ও রকেটের। ভবিষ্যতে এ ধরনের লেনদেনে জড়িত না হতে এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলোকে সতর্ক করে দেয়া হয়েছে।

অনলাইন জুয়া ও হুন্ডির কারবারে জড়িত থাকার অভিযোগে ২১ হাজার ৭২৫টি মোবাইল হিসাব (মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিস-এমএফএস) বন্ধ করে দিয়েছে বাংলাদেশ ফিনান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিট (বিএফআইইউ)।

বন্ধ করে দেয়া হিসাবগুলোর বেশিরভাগই বিকাশ, নগদ ও রকেটের। ভবিষ্যতে এ ধরনের লেনদেনে জড়িত না হতে এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলোকে সতর্কও করা হয়েছে সংস্থাটির পক্ষ থেকে।

বিএফআইইউ’র পক্ষ থেকে জানানো হয়, চলতি বছরের ৯ মাসে ৩৭১টি অনলাইন গেমিং ও বেটিং লেনদেন, অনলাইন ফরেক্স ট্রেডিং সম্পর্কিত ৯১টি লেনদেন ও ক্রিপ্টোকারেন্সি সম্পর্কিত ৪১৩টি লেনদেনের তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। এ সব তথ্য বিশ্লেষণ করে আইন-শৃঙ্খলাবাহিনীর কাছে পাঠানো হচ্ছে।

এ ছাড়া বিএফআইইউ অবৈধ হুন্ডি, গেমিং, বেটিং ও ক্রিপ্টোসংক্রান্ত ৮১৪টি ওয়েবসাইট, ১৫৯টি অ্যাপ ও ৪৪২টি সোশ্যাল মিডিয়া পেজ ও লিংকের তালিকা আইন-শৃঙ্খলাবাহিনীর কাছে পাঠিয়েছে। বিএফআইইউ ২১টি মানি চেঞ্জার এবং তাদের ৩৯টি ব্যাংক হিসাবের তথ্য পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগে পাঠিয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর মানিলন্ডারিং বিরোধী কমপ্লায়েন্স কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বিএফআইইউ এসব তথ্য তুলে ধরে।

বিএফআইইউ-এর প্রধান কর্মকর্তা মো. মাসুদ বিশ্বাসের সভাপতিত্বে মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত সভায় বিএফআইইউ-এর উপপ্রধান কর্মকর্তা এ এফ এম শাহীনুল ইসলাম, বিএফআইইউ পরিচালক মো. রফিকুল ইসলাম ও মো. আরিফুজ্জামান, সব বাণিজ্যিক ব্যাংকের প্রধান ও উপপ্রধান মানিলন্ডারিং প্রতিরোধ পরিপালন কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

সভায় কাগুজে প্রতিষ্ঠানের নামে ঋণগ্রহণ করে বা নন-ফান্ডেড সুবিধাকে ফান্ডেড সুবিধায় রূপান্তর ও ফোর্সড লোন সৃষ্টি করে বিদেশে অর্থ পাচারসহ বৈদেশিক বাণিজ্যের আড়ালে অর্থ পাচার, অনলাইন ফরেক্স ট্রেডিং, গেমিং, বেটিং, ডিজিটাল হুন্ডি, ক্রিপ্টোকারেন্সি এক্সচেঞ্জ প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে ভার্চুয়াল মুদ্রা বা ক্রিপ্টোকারেন্সিতে বিনিয়োগসহ সমসাময়িক নানা ঝুঁকি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। এ ছাড়া ওয়েজ আর্নাররা যাতে ব্যাংকিং চ্যানেলে বৈধপথে রেমিট্যান্স পাঠান সে বিষয়ে স্ব-স্ব অবস্থান থেকে সচেতনতা বাড়ানোর তাগিদ দেয়া হয়।

সভায় বিএফআইইউ-এর প্রধান মাসুদ বিশ্বাস বলেন, ‘দুষ্কৃতকারী ও অর্থ পাচারকারীরা যাতে ব্যাংকিং ব্যবস্থা ব্যবহার করে কোনো অপরাধ সংঘটিত করতে না পারে সে বিষয়ে সচেতন থাকতে হবে। ‘বিএফআইইউ আর্থিক অপরাধের বিষয়ে কঠোর অবস্থান নেবে। যাদের পরিপালন ব্যবস্থায় দুর্বলতা পরিলক্ষিত হবে, তাদের বিষয়েই কঠোর পদক্ষেপ নেয়া হবে।’

আরও পড়ুন:
মোবাইলে ব্যাংকিং: গ্রাহক বাড়লেও মে মাসে কমেছে লেনদেন

মন্তব্য

অর্থ-বাণিজ্য
The seventh season of Think Outside the Box took place

‘থিংক আউটসাইড অব দ্য বক্স’-এর সপ্তম সিজন অনুষ্ঠিত

‘থিংক আউটসাইড অব দ্য বক্স’-এর সপ্তম সিজন অনুষ্ঠিত
এ পর্যন্ত ১২০ বার রক্তদানের জন্য রক্তযোদ্ধা মো. নজরুল ইসলামকে অনুষ্ঠানে বিশেষ সম্মাননা দেয়া হয়।

স্মার্ট ব্লকচেইন নিবেদিত ও লুমিনাস গ্রুপ প্রযোজিত ‘থিংক আউট সাইড অব দ্য বক্স’-এর সপ্তম সিজন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত ২৩ সেপ্টেম্বর রাজধানীর টিসিবি অডিটোরিয়ামে ফিউচারাইজার্স বাংলাদেশের সৌজন্যে এই অনুষ্ঠান হয়।

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন ফিউচারাইজার্স বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও সিইও সাখাওয়াত উল্লাহ শান্ত। প্রধান অতিথি ছিলেন নাগরিক ঢাকার সভাপতি এম নাঈম হোসেন।

অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি ছিলেন যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের পরিচালক (পরিকল্পনা) এম এ আখের। বিশেষ অতিথি ছিলেন ফরাজী হাসপাতালের চেয়ারম্যান ডা. আনোয়ার ফরাজী ইমন, বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের অ্যাডভোকেট রাসিদা চৌধুরী নীলু, লুমিনাস গ্রুপের ম্যানেজিং ডিরেক্টর মো. রাকিব হোসেন, দৈনিক কালবেলা অনলাইনের সেলস অ্যান্ড মার্কেটিং বিভাগের ডেপুটি ম্যানেজার ও ডিজিটাল মিডিয়া ফোরামের প্রেসিডেন্ট মো. দেলোয়ার হোসেন, বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকের জেনারেল ম্যানেজার মো. এরশাদ খান, নেক্সট প্রোডাক্ট লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর মো. মাজহারুল ইসলাম প্রমুখ।

কি-নোট স্পিকার ছিলেন নগদের হেড অব করপোরেট অ্যান্ড রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স অ্যান্ড পিআর সোলায়মান সুখন। স্পিকার ছিলেন দ্য মার্কেটিং ফ্যাক্টরি লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক চৌধুরী দৌলত মোহাম্মদ জাফরি, ফিউচার আইকন এর সিইও ইউসুফ ইফতি, প্রফেশনাল পাবলিক স্পিকার ফোরামের জেনারেল সেক্রেটারি মো. রফিকুল ইসলাম খান, অ্যাডভোকেট আল মামুন রাসেল, স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ার্স কমিউনিটি লিডার আল মামুন রাসেল, স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ার্স কমিউনিটি লিডার হাসান মাহমুদ, নারী উদ্যোক্তা ও মোটিভেশনাল স্পিকার ঈশিতা আক্তার, মার্কেটিং কনসালটেন্ট অ্যান্ড সোশ্যাল মিডিয়া থট লিডার প্রলয় হাসান।

এ পর্যন্ত ১২০ বার রক্তদানের জন্য রক্তযোদ্ধা মো. নজরুল ইসলামকে অনুষ্ঠানে বিশেষ সম্মাননা দেয়া হয়।

ডিএমএফ সভাপতি দেলোয়ার হোসেন বলেন, ‘ভবিষ্যতে কালবেলা ও ডিজিটাল মিডিয়া ফোরাম (ডিএমএফ) যৌথভাবে ফিউচারাইজার্স বাংলাদেশের সঙ্গে কাজ করবে। যেখানেই সুন্দর চিন্তা, সেখানেই আমরা আছি।’

সোলায়মান সুখন বলেন, ‘আমরা দেয়াল বানাব না, ব্রিজ বানাব; কানেক্ট হব, বলা এবং শোনার মাঝে আন্তঃযোগাযোগ করতে হবে। ভাষার দক্ষতা এবং কমিউনিকেশন সবার সঙ্গে রাখতে হবে। উদ্যোক্তাদের ওপর নির্ভর করে এখন বাংলাদেশ। আগে অভিজ্ঞতা না থাকলে ঠকার সম্ভাবনা বেশি। সময় না দিলে সফল বিজনেসম্যান হওয়া সম্ভব না। জীবনে শান্তি খুঁজতে হবে। ভালো হতে হবে, তাহলে ব্যবসা আপনাকে খুঁজে নেবে।’

ইউসুফ ইফতি বলেন, ‘সেলস মার্কেটিংয়ে কাজ করার সময় আমাদেরকে ২১টি সাইকোলজিকাল ট্রিগার মাথায় রাখতে হবে সবমসময়। যখন যা করবেন পুরো মনোযোগ দিয়ে করবেন। একসঙ্গে একাধিক না। যে সেক্টরে কাজ করবেন, সে সেক্টরে অলরাউন্ডার হন; সব সেক্টরে নয়।’

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি এম নাঈম হোসেন বলেন, ‘থিংক আউট অব দ্য বক্স একটি সুন্দর চিন্তার সম্মেলন। চিন্তা অনুযায়ী কাজ করলে আমাদের এই সমাজ আরও দক্ষ ও সুন্দর হয়ে উঠবে।’

সভাপতি সাখাওয়াত উল্লাহ শান্ত বলেন, ‘একটু বক্সের বাইরে চিন্তা করলেই দেখবেন অন্যকে জিতিয়ে বা কাউকে না ঠকিয়েও বিজয়ী হওয়ার সুযোগ রয়েছে। ছাত্রজীবন থেকে ব্যক্তিগত জীবন এবং পেশাগত ও উদ্যোক্তা জীবনেও আমরা বক্সের বাইরে গিয়ে চিন্তা কম করি। তাই আমাদের জীবনটা বক্সের ভেতরেই রয়ে যাচ্ছে। যেই যে ইন্ড্রাস্ট্রিতে আছি, সে তার বাইরের ইন্ড্রাস্ট্রিতে কী হচ্ছে, সেটা নিয়েও চিন্তা করতে হবে। তাহলেই সফলতা আসবে।’

সবশেষে অংশগ্রহণকারী সবাইকে সার্টিফিকেট, গিফট ও সম্মাননা স্মারক প্রদান ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।

মন্তব্য

অর্থ-বাণিজ্য
The 44th meeting of the Board of Directors of Community Bank was held

কমিউনিটি ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের ৪৪তম সভা অনুষ্ঠিত

কমিউনিটি ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের ৪৪তম সভা অনুষ্ঠিত
সভায় কয়েকটি বিনিয়োগ প্রস্তাব ও ব্যাংকের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে নীতিনর্ধারণী সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদের ৪৪ তম সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রাজধানীর পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সে বুধবার এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল (আইজি) ও কমিউনিটি ব্যাংকের চেয়ারম্যান জনাব চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন।

সভায় কয়েকটি বিনিয়োগ প্রস্তাব ও ব্যাংকের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে নীতিনর্ধারণী সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড সভায় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পুলিশের অ্যাডিশনাল আইজি (অ্যাডমিন) মো. কামরুল আহসান, অ্যাডিশনাল আইজি (স্পেশাল ব্রাঞ্চ) মো. মনিরুল ইসলাম, অ্যাডিশনাল আইজি (এন্টি-টেরোরিজম ইউনিট) এস এম রুহুল আমিন, অ্যাডিশনাল আইজি (এলএন্ডএএ) মাজহারুল ইসলাম, অ্যাডিশনাল আইজি (ক্রাইম এন্ড অপারেশন্স) আতিকুল ইসলাম, অ্যাডিশনাল আইজি (ফাইন্যান্স) আবু হাসান মুহম্মদ তারিক, অ্যাডিশনাল আইজি (ইন্ডাস্ট্রিয়াল পুলিশ)।

সভায় আরও উপস্থিত মাহাবুবর রহমান, অ্যাডিশনাল আইজি (টুরিস্ট পুলিশ) হাবিবুর রহমান, ডিআইজি (প্রশাসন) আমিনুল ইসলাম, ডিআইজি (এইচআরএম) কাজী জিয়া উদ্দিন, অ্যাডিশনাল ডিআইজি (ডেভেলপমেন্ট রেভিনিউ-১) ড. শোয়েব রিয়াজ আলম, অ্যাডিশনাল ডিআইজি, (বাংলাদেশ পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট) মুনতাসিরুল ইসলাম, পুলিশ সুপার ও পরিচালক (পুলিশ স্টাফ কলেজ) সুফিয়ান আহমেদ, বাংলাদেশ পুলিশ অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ইন্সপেক্টর বি এম ফরমান আলী, এফসিএ ও এফসিএমএর স্বতন্ত্র পরিচালক মাসুদ খান, স্বতন্ত্র পরিচালক কাজী মসিহুর রহমান এবং ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী মসিউল হক চৌধুরী।

মন্তব্য

অর্থ-বাণিজ্য
Stakeholder meetings and public hearings were held in Sonali Bank to implement the reform strategy

শুদ্ধাচার কৌশল বাস্তবায়নে সোনালী ব্যাংকের অংশীজন সভা ও গণশুনানি

শুদ্ধাচার কৌশল বাস্তবায়নে সোনালী ব্যাংকের অংশীজন সভা ও গণশুনানি
এ সভা ও গণশুনানিতে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা ওয়েস্টের প্রিন্সিপাল অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান।

সোনালী ব্যাংক পিএলসির উদ্যোগে জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল বাস্তবায়নে অংশীজনের অংশগ্রহণে চলতি অর্থবছরের জুলাই-সেপ্টেম্বর কোয়ার্টারের সভা ও গণশুনানি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রাজধানীতে মঙ্গলবার ঢাকা ওয়েস্টের প্রিন্সিপাল অফিসের সভাকক্ষে এ গণশুনানি অনুষ্ঠিত হয়।

এ সভা ও গণশুনানিতে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা ওয়েস্টের প্রিন্সিপাল অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান।

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন জেনারেল ম্যানেজার আব্দুল কুদ্দুস, জেনারেল ম্যানেজার ও শুদ্ধাচার ফোকাল পয়েন্ট সাফায়েত হোসেন পাটওয়ারী, ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার ও বিকল্প শুদ্ধাচার ফোকাল পয়েন্ট বীথি আক্তার, ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার মজিবুর রহমান, প্রিন্সিপাল অফিস, ঢাকা ওয়েস্টের আওতাধীন সকল শাখা প্রধান এবং এসব শাখার সর্বমোট ২০ জন ঋণ সুবিধাভোগী, আমানতকারী ও অন্যান্য সুবিধাভোগী।

আরও পড়ুন:
শোক দিবসে সোনালী ব্যাংকের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি
সোনালী ব্যাংক ও পেনশন কর্তৃপক্ষের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত
কালো ব্যাজ ধারণ করে সোনালী ব্যাংকের মাসব্যাপী কর্মসূচি শুরু
সোনালী ব্যাংকের ১৬তম বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত
সোনালী পেমেন্ট গেটওয়েতে এবার ইসলামী ব্যাংক

মন্তব্য

অর্থ-বাণিজ্য
International Right to Information Day celebration at Rupali Bank

রূপালী ব্যাংকে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস পালন

রূপালী ব্যাংকে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস পালন
তথ্যের অবাধ প্রবাহে ইন্টারনেটের গুরুত্ব দিয়ে এবারের তথ্য অধিকার দিবসের শ্লোগান রাখা হয় ‘ইন্টারনেটে তথ্য পেলে জনমনে শান্তি মেলে’।

রূপালী ব্যাংক লিমিটেডের উদ্যোগে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস ২০২৩ পালন করা হয়েছে।

রাজধানীর দিলকুশায় বুধবার রূপালী ব্যাংকের মূল ভবনের থেকে তথ্য অধিকার সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালির আয়োজন করা হয়।

তথ্যের অবাধ প্রবাহে ইন্টারনেটের গুরুত্ব দিয়ে এবারের তথ্য অধিকার দিবসের শ্লোগান রাখা হয় ‘ইন্টারনেটে তথ্য পেলে জনমনে শান্তি মেলে’।

ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও মোহাম্মদ জাহাঙ্গীরের নেতৃত্বে এই র‌্যালিতে ব্যাংকের উপব্যবস্থাপনা পরিচালক হাসান তানভীর ও তাহমিনা আখতার এবং মহাব্যবস্থাপক মো. হারুনুর রশীদ, মোহাম্মদ শাহেদুর রহমান, মো. ইসমাইল হোসেন শেখ, মো. নোমান মিয়া, সালামুন নেছা ও তানভীর হাছনাইন মইন অংশ নেন।

এছাড়াও ব্যাংকের উপমহাব্যবস্থাপক, সহকারী মহাব্যবস্থাপকসহ সকল পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীরাও এ র‍্যালীতে অংশগ্রহণ করেন।

আরও পড়ুন:
রূপালী ব্যাংক কর্মচারী ইউনিয়নের প্রতিনিধি সভা অনুষ্ঠিত
ঋণের সুদ নিয়ে প্রতারণার অভিযোগ, হাবিপ্রবির রূপালী ব্যাংক ঘেরাও

মন্তব্য

অর্থ-বাণিজ্য
Discussion on Islamic Banks Shariah

ইসলামী ব্যাংকের শরিয়াহ বিষয়ক আলোচনা সভা

ইসলামী ব্যাংকের শরিয়াহ বিষয়ক আলোচনা সভা
অনুষ্ঠানে ব্যাংকের শরিয়াহ সুপারভাইজরি কমিটির সদস্য ড. রুহুল আমিন রব্বানী প্রধান অতিথি এবং অ্যাডিশনাল ম্যানেজিং ডাইরেক্টর আলতাফ হুসাইন বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন।

ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ পিএলসি বরিশাল জোনের উদ্যোগে ‘ব্যাংকিং কার্যক্রমে শরিয়াহ পরিপালন’ শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ইসলামী ব্যাংকের বরিশাল শাখা প্রাঙ্গণে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে ব্যাংকের শরিয়াহ সুপারভাইজরি কমিটির সদস্য ড. রুহুল আমিন রব্বানী প্রধান অতিথি এবং অ্যাডিশনাল ম্যানেজিং ডাইরেক্টর আলতাফ হুসাইন বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন।

অনুষ্ঠানে মূল বিষয়ের ওপর আলোচনা উপস্থাপন করেন শরিয়াহ সেক্রেটারিয়েটের এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. শামসুদ্দোহা।

ব্যাংকের বরিশাল জোন প্রধান আব্দুস সোবহানের সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য দেন বরিশাল শাখা প্রধান মো. নূরুজ্জামান। কর্মশালায় জোনের নির্বাহী, কর্মকর্তা ও গ্রাহকগণ অংশগ্রহণ করেন।

আরও পড়ুন:
ইসলামী ব্যাংকের সঙ্গে মেডিক্সের চুক্তি স্বাক্ষর
ইসলামী ব্যাংকের বোর্ড সভা অনুষ্ঠিত
পদ্মা ব্যাংকে ইসলামি শরিয়াহভিত্তিক সুদমুক্ত ব্যাংকিং সেবা
গ্লোবাল ইসলামী ব্যাংক এখন শ্রীমন্তপুরে
কমনওয়েলথ বিজনেস এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত ইসলামী ব্যাংক

মন্তব্য

অর্থ-বাণিজ্য
Signing of Medics agreement with Islami Bank

ইসলামী ব্যাংকের সঙ্গে মেডিক্সের চুক্তি স্বাক্ষর

ইসলামী ব্যাংকের সঙ্গে মেডিক্সের চুক্তি স্বাক্ষর
এ চুক্তির আওতায় বিভিন্ন টেস্টের ওপর ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও কার্ড গ্রাহকরা মেডিক্স-এ বিশেষ ডিসকাউন্ট সুবিধা পাবেন।

ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ পিএলসি ও ইউনাইটেড হেলথকেয়ার সার্ভিসেস লিমিটেডের সহযোগী প্রতিষ্ঠান মেডিক্সের মধ্যে একটি কর্পোরেট চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

মঙ্গলবার ব্যাংকের ম্যানেজিং ডাইরেক্টর (চলতি দায়িত্ব) মুহাম্মদ কায়সার আলী ও ইউনাইটেড হাসপাতালের ম্যানেজিং ডাইরেক্টর ও সিইও মোহাম্মদ ফাইজুর রহমান এ সংক্রান্ত চুক্তি হস্তান্তর করেন।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে ব্যাংকের ডেপুটি ম্যানেজিং ডাইরেক্টর ইঞ্জিনিয়ার আবুল ফয়েজ মুহাম্মাদ কামালউদ্দিন, সিনিয়র এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট মিজানুর রহমান, সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মানজুরুল হক ও সিনিয়র অ্যাসিস্ট্যান্ট ভাইস প্রেসিডেন্ট এ এম শহীদুল এমরান, ইউনাইটেড হাসপাতালের জেনারেল ম্যানেজার ডা. ফজলে রাব্বি খান, মেডিক্সের হেড অব সেন্টার অপারেশন ও কর্পোরেট মার্কেটিং তারেক সামি রহমান এবং কর্পোরেট অ্যাকাউন্টস ম্যানেজার শরীফুল ইসলাম খান ইউসুফজাইসহ উভয় প্রতিষ্ঠানের নির্বাহীরা উপস্থিত ছিলেন।

এ চুক্তির আওতায় বিভিন্ন টেস্টের ওপর ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও কার্ড গ্রাহকরা মেডিক্স-এ বিশেষ ডিসকাউন্ট সুবিধা পাবেন।

মন্তব্য

p
উপরে