20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
করোনা সুরক্ষায় পোশাক কর্মীদের স্বল্প সুদে ঋণ

করোনা সুরক্ষায় পোশাক কর্মীদের স্বল্প সুদে ঋণ

ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে নেওয়া এই ঋণের অর্থ মূলত যোগান দেবে বাংলাদেশ ব্যাংক। কারখানার শ্রমিকদের নিরাপত্তা ও কর্মপরিবেশ উন্নয়নের লক্ষ্যে গঠিত এক প্রকল্পের অধীনে এ অর্থায়ন করা হচ্ছে।

তৈরি পোশাক শ্রমিকদের করোনাভাইরাসের সংক্রমণের হাত থেকে বাঁচাতে কারখানার কর্মপরিবেশ উন্নয়নে স্বল্প সুদে ঋণ পাবে মালিকেরা।

ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে নেওয়া এই ঋণের অর্থ মূলত যোগান দেবে বাংলাদেশ ব্যাংক। কারখানার শ্রমিকদের নিরাপত্তা ও কর্মপরিবেশ উন্নয়নের লক্ষ্যে গঠিত এক প্রকল্পের অধীনে এ ধরনের অর্থায়ন করে সংস্থাটি।

এতদিন শুধু অগ্নিনিরাপত্তা, বিদ্যুৎ ও কাঠামোগত সংস্কার সাধন, পরিবেশবান্ধব এফ্লুয়েন্ট ট্রিটমেন্ট প্লান্ট (ইটিপি), ক্যান্টিন ও শৌচাগার নির্মাণ প্রভৃতির জন্য আর্থিক ও কারিগরী সহায়তা দিতে এই অর্থায়ন করে আসছিল কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

বৃহষ্পতিবার এই প্রকল্পে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের হাত থেকে শ্রমিকদের রক্ষা করতে স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিষয়টি অন্তর্ভূক্ত করে এক সার্কুলার জারি করে বাংলাদেশ ব্যাংক।

কেন্দ্রীয় ব্যাংক কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, দেশের তৈরি পোশাক শিল্প খাতকে আরও গতিশীল করতে ২০১৯ সালের ৩১ মার্চ এ প্রকল্প চালু করে বাংলাদেশ ব্যাংক।

প্রকল্পের আওতায় ঋণ পরিশোধের সময়সীমা তিন থেকে সাত বছর পর্যন্ত। প্রত্যেক ঋণ গ্রহিতা সর্বোচ্চ ৩০ লাখ ইউরো সমমূল্যের ঋণ নিতে পারবেন। গ্রাহক পর্যায়ে সর্বোচ্চ সুদ ৭ শতাংশ।

বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র ও নির্বাহী পরিচালক মো. সিরাজুল ইসলাম নিউজবাংলাকে বলেন, এ প্রকল্পের আওতায় ঋণ পেতে গ্রাহকদের অংশগ্রহণকারী ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কাছে আবেদন করতে হয়।

ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান এ আবেদন বাংলাদেশ ব্যাংকে পাঠায়। আবেদন অনুমোদন হলে সংশ্লিষ্ট ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ ব্যাংকের কাছ থেকে ঋণ নিয়ে তা আবার গ্রাহককে দেয়।

গত ৫ নভেম্বর এই প্রকল্প থেকে শ্রমিক নিরাপত্তা ও কর্মপরিবেশ উন্নয়নে ১৬ কোটি ২৫ লাখ টাকা ঋণ পায় তৈরি পোশাক খাতের দুই প্রতিষ্ঠান।

এর মধ্যে সাউথইস্ট ব্যাংকের গ্রাহক স্প্যারো অ্যাপারেলস ঋণ পায় ১৪ কোটি ৭৫ লাখ টাকা এবং ব্যাংক এশিয়ার গ্রাহক ভার্চুয়াল নিটওয়্যার লিমিটেড ঋণ পায় ১ কোটি ৫০ লাখ টাকা।

আরও পড়ুন:
৩ ব্যাংক থেকে প্রণোদনার তহবিল পাবে ক্ষুদ্রঋণ প্রতিষ্ঠান
বৃহৎ শিল্পে প্রণোদনা বেড়ে ৪০ হাজার কোটি টাকা
প্রণোদনা বাস্তবায়নের গতি ধীর এখনও
প্রণোদনার ঋণ পেয়েছেন ৭৮ হাজার কৃষক

শেয়ার করুন

মন্তব্য