20201002104319.jpg
20201003015625.jpg
বিআইএফএফএলের সাবেক ইডি ফরমানুলের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

বিআইএফএফএলের সাবেক ইডি ফরমানুলের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে আর্থিক প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ ইনফ্রাস্ট্রাকচার ফাইন্যান্স ফান্ড লিমিটেডের (বিআইএফএফএল) সাবেক নির্বাহী পরিচালক (ইডি) ও ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্তার নামে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

অভিযুক্তরা হলেন বিআইএফএফএল’র সাবেক নির্বাহী পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এস এম ফরমানুল ইসলাম ও সিনিয়র প্রিন্সিপাল অফিসার, ট্রেজারি বিভাগ (হেড অব ট্রেজারার) মো. নিসারুল কবির সিদ্দিকী।

মঙ্গলবার ঢাকার একটি থানায় মামলাটি করেছে দুদক। অভিযোগে বলা হয়েছে, এই দুই কর্মকর্তার অসৎ উদ্দেশ্যে পরস্পরের যোগসাজশে দুর্নীতি, ক্ষমতার অপব্যবহার ও অপরাধমূলক বিশ্বাস ভঙ্গের মাধ্যমে নিজেরা আর্থিকভাবে লাভবান হওয়ার উদ্দেশ্যে বিআইএফএফএলর ৫৮৪ কোটি ৬৭ লাখ টাকা বেসরকারি ব্যাংক এবং অ-তালিকাভুক্ত আর্থিক প্রতিষ্ঠানে জমা রাখেন।

ঝুঁকিপুর্ণ ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানে মোটা অঙ্কের আমানত রাখার বিষয়ে পরিচালনা পর্ষদের অনুমোদন ছিল না। এতে বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও বাজার বিভাগ এবং অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের নির্দেশনাও মানা হয়নি।

এরমধ্যে দুটি বেসরকারি ব্যাংকে ১৫০ কোটি ৩ লাখ টাকা এবং ১২টি অ-তালিকাভুক্ত আর্থিক প্রতিষ্ঠানে ৪৩৪ কোটি ৬৩ লাখ টাকা মেয়াদি আমানত হিসেবে জমা রাখা হয়। ওই টাকা ফেরত পাওয়া নিয়ে জটিলতা তৈরি হয়, ফেরত পাওয়া যাবে কিনা সে বিষয়েও সন্দেহ প্রকাশ করা হয় মামলার বিবরণীতে।

এ ধরণের কাজকে ক্ষমতার অপব্যবহার ও অপরাধজনক বিশ্বাসভঙ্গের শামিল বলে মনে করছে দুদক।

এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে, ২০১৫ সালের জুন থেকে ২০১৯ সালের জুলাই পর্যন্ত সময়ে এই অনিয়ম হয়েছে।

দুদকের পরিচালক (জনসংযোগ) প্রণব কুমার ভট্টাচার্জ নিউজবাংলাকে বলেন, ‘দুদক তার রুটিন কাজের অংশ হিসেবে এ ধরণের মামলা করে। তদন্তে যেসব অভিযোগের প্রমাণ পাওয়া গেছে সেসব তথ্য অভিযোগ বিবরণীতে উল্লেখ করা হয়েছে।’

শেয়ার করুন