20201002104319.jpg
মস্তিষ্কে লম্বা সুই

মস্তিষ্কে লম্বা সুই

চীনের হেনান প্রদেশের রাজধানী চেং চৌর ২৯ বছর বয়সী নারী চু। কিছুদিন আগে গাড়ি দুর্ঘটনার শিকার হয়েছিলেন তিনি। এ দুর্ঘটনায় মস্তিষ্কে কোনো আঘাত পেয়েছেন কি না, সেটি খতিয়ে  দেখতে চিকিৎসকরা সিটি স্ক্যান করার পরামর্শ দিয়েছিলেন চুকে।

তাদের কথা অনুযায়ী সিটি স্ক্যান করান তিনি। এতে দেখা যায়, দুর্ঘটনায় মস্তিষ্ক অক্ষত থাকলেও সেখানে আগে থেকেই ছিল লম্বা দুটি সুই।  

অডিটিসেন্ট্রাল ডটকমের প্রতিবেদনে বলা হয়, সুই দুটি ৫ সেন্টিমিটার করে লম্বা। এগুলোর ব্যাস ৪.৯ মিলিমিটার। চুর  মস্তিষ্কের গভীরে ঢুকে গিয়েছিল ধাতব পদার্থ দুটি। 

চিকিৎসকরা পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর জানতে পারেন, সুইগুলোর সঙ্গে গাড়ি দুর্ঘটনার কোনো সম্পর্ক নেই। কারণ সিটি স্ক্যানে মাথার খুলি বা ত্বকে আঘাতের চিহ্ন ধরা পড়েনি। আরও আগ্রহ উদ্দীপক বিষয় হলো, ওই নারী জীবনের কোনো পর্যায়ে গুরুতর মাথাব্যথা অনুভব করেননি।

চিকিৎসকরা  মনে  করছেন, খুব ছোট বয়সে সুইগুলি ইচ্ছাকৃতভাবে বা দুর্ঘটনাক্রমে চুর মাথায় ঢুকে।

তাদের মতে, আকার বিচারে সুইগুলো কোনোভাবেই একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের মাথার  খুলি ছিদ্র করতে পারবে না। এ ছাড়া মাথায় কোনো আঘাতের কথাও মনে পড়ে না চুর।

চিকিৎসকরা জানান, আকারে ছোট হওয়ার কারণে সুইগুলো মস্তিষ্কের কোনো ক্ষতি করেনি।

চীনা ওয়েবসাইট সহু জানিয়েছে, চু এরই মধ্যে স্থানীয় পুলিশকে সিটি স্ক্যানে পাওয়া সুইয়ের কথা জানিয়েছেন। মাথায় কীভাবে সুই ঢুকেছে, তা নিয়ে নিজের মধ্যেই সন্দেহ আছে তার। তবে পুলিশকে এ নিয়ে বিস্তারিত কিছু জানাননি তিনি।

শেয়ার করুন