× হোম জাতীয় রাজধানী সারা দেশ অনুসন্ধান বিশেষ রাজনীতি আইন-অপরাধ ফলোআপ কৃষি বিজ্ঞান চাকরি-ক্যারিয়ার প্রযুক্তি উদ্যোগ আয়োজন ফোরাম অন্যান্য ঐতিহ্য বিনোদন সাহিত্য ইভেন্ট শিল্প উৎসব ধর্ম ট্রেন্ড রূপচর্চা টিপস ফুড অ্যান্ড ট্রাভেল সোশ্যাল মিডিয়া বিচিত্র সিটিজেন জার্নালিজম ব্যাংক পুঁজিবাজার বিমা বাজার অন্যান্য ট্রান্সজেন্ডার নারী পুরুষ নির্বাচন রেস অন্যান্য স্বপ্ন বাজেট আরব বিশ্ব পরিবেশ কী-কেন ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান বিশ্লেষণ ইন্টারভিউ মুজিব শতবর্ষ ভিডিও ক্রিকেট প্রবাসী দক্ষিণ এশিয়া আমেরিকা ইউরোপ সিনেমা নাটক মিউজিক শোবিজ অন্যান্য ক্যাম্পাস পরীক্ষা শিক্ষক গবেষণা অন্যান্য কোভিড ১৯ শারীরিক স্বাস্থ্য মানসিক স্বাস্থ্য যৌনতা-প্রজনন অন্যান্য উদ্ভাবন আফ্রিকা ফুটবল ভাষান্তর অন্যান্য ব্লকচেইন অন্যান্য পডকাস্ট আমাদের সম্পর্কে যোগাযোগ প্রাইভেসি পলিসি

বিনোদন
Youngsters are going missing in Shuklapaksha because it will be known on August 11
hear-news
player
print-icon

শুক্লপক্ষে নিখোঁজ হচ্ছে তরুণীরা, কারণ জানা যাবে ১১ আগস্ট

শুক্লপক্ষে-নিখোঁজ-হচ্ছে-তরুণীরা-কারণ-জানা-যাবে-১১-আগস্ট
শুক্লপক্ষ ওয়েব ফিল্মের দৃশ্যে জিয়াউল রোশান ও সুনেরাহ বিনতে কামাল। ছবি: সংগৃহীত
সুনেরাহ বলেন, ‘পোকার আক্রমণে পুরো নাজেহাল অবস্থা ছিল আমার। সবকিছু অনেক কষ্টে সামলে নিয়ে কাজটি করেছি। শুধু এটুকু বলতে পারি, দর্শকরা ট্রেইলার দেখে যা ধারণা করছেন তা মুহূর্তেই পাল্টে যাবে, এক কথায় কাজটি সবার কাছে ভালো লাগবে।’

একই ইউনিভার্সিটি থেকে পরপর তিনজন মেয়ে নিখোঁজ হয়েছে। কেউ একজন টার্গেট করছে তরুণীদের। মঞ্জুর ধারণা, তার পছন্দের মানুষ লাবণীও হতে পারে অপহরণের শিকার। কিন্তু শুধু ধারণার ওপর ভর করে মঞ্জু কি বাঁচাতে পারবে লাবণীকে?

এমন এক ঘটনা নিয়ে নির্মিত হয়েছে ওয়েব সিনেমা শুক্লপক্ষ। ১১ আগস্ট রাত ৮টায় চরকিতে মুক্তি পেতে যাচ্ছে ভিকি জাহেদ পরিচলিত কনটেন্টটি। বুধবার সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

শুক্লপক্ষর মূল চরিত্রগুলোর মধ্যে অন্যতম খাইরুল বাসার। তিনি বলেন, ‘আমি নিজেও শুক্লপক্ষ দেখার জন্য উদগ্রীব হয়ে আছি। হিংসা, প্রেম, অসহায়ত্ব, ক্ষমতা বা বর্বরতার এক দারুণ দ্বান্দ্বিক উপস্থাপন আছে এই গল্পে। আমার ধারণা, দর্শকরা গল্পের প্রতি পৃষ্ঠায় বিস্মিত হবেন। দর্শক টুইস্টের ঘোরপ্যাঁচে জড়িয়ে যাওয়ার অপেক্ষা করুক। আমি আন্তরিকভাবে আশা করছি, তারা হতাশ হবেন না।’

শুক্লপক্ষ সুনেরাহ বিনতে কামালের প্রথম ওয়েবফিল্ম। কাজের অভিজ্ঞতা নিয়ে তিনি বলেন, ‘শুক্লপক্ষর স্ক্রিপ্ট পড়েই কাজ করার আগ্রহ জন্মেছিল। ভিকি জাহেদের থ্রিলার মানেই তো অন্যরকম কিছু। ওনার কাজ আমার বরাবরই ভালো লাগে। সেই সঙ্গে আমার কো-আর্টিস্ট যারা ছিলেন তারা সবাই তাদের চরিত্রগুলোর সঙ্গে জাস্টিস করেছেন।’

সিনেমাতে সুনেরাহকে অনেকগুলো লুকে দেখা যাবে। যেটা তার জন্য খুব চ্যালেঞ্জিং ছিল বলে জানান সুনেরাহ। জঙ্গলেও সিনেমাটির শুটিং হয়েছে।

সুনেরাহ বলেন, ‘পোকার আক্রমণে পুরো নাজেহাল অবস্থা ছিল আমার। সবকিছু অনেক কষ্টে সামলে নিয়ে কাজটি করেছি। শুধু এটুক বলতে পারি, দর্শকরা ট্রেইলার দেখে যা ধারণা করছেন তা মুহূর্তেই পাল্টে যাবে, এক কথায় কাজটি সবার কাছে ভালো লাগবে।’

চরকিতে এটি জিয়াউল রোশানেরও প্রথম ওয়েবফিল্ম। তিনি বলেন, ‘ভিকির সঙ্গে এটা আমার দ্বিতীয় কাজ। দর্শকরা ভিকির কাজ দেখার জন্য অপেক্ষা করে আছে। আমরা সবাই নিজ নিজ জায়গা থেকে দুর্দান্ত কাজ করেছি। এখন শুধু মুক্তির অপেক্ষা।’

ভিকি জাহেদ বলেন, 'আমার অন্য কাজগুলা থেকে শুক্লপক্ষ বেশ ভিন্ন। জনরাটা থ্রিলার। শুক্লপক্ষর শেষটা দর্শককে খুব ভালোভাবে চমকে দেবে এই বিশ্বাস আমার আছে। অডিয়েন্সের সাথে আমি সব সময় ক্যাট অ্যান্ড মাউস গেম খেলতে পছন্দ করি। কারণ এই গল্পের শেষটা আগে থেকে ধারণা করা খুব কঠিন।’

ওয়েবফিল্মের অন্যান্য চরিত্রে দেখা যাবে ফারুক আহমেদ, শরীফ সিরাজ, আব্দুল্লাহ সেন্টুসহ অনেককে।

আরও পড়ুন:
বিনা মূল্যে চরকিতে মিনি সিরিজ ‘সুগার ফ্রি’
বন্ধু দিবসে চরকিতে এলো বন্ধুত্বের গান
রাতে আসছে চরকি, থাকছে জয়ার চমক
ঈদে আসছে আদনানের ‘ইউটিউমার’
তারকা শিল্পীদের নিয় অ্যান্থোলজি সিরিজ ‘ঊনলৌকিক’

মন্তব্য

আরও পড়ুন

বিনোদন
In the teaser Tisha appeared as heroine Pritilata

টিজারে ‘বীরকন্যা প্রীতিলতা’ রূপে দেখা দিলেন তিশা

টিজারে ‘বীরকন্যা প্রীতিলতা’ রূপে দেখা দিলেন তিশা প্রীতিলতা চরিত্রে নুসরাত ইমরোজ তিশা। ছবি কোলাজ: নিউজবাংলা, ছবি: টিজার থেকে নেয়া
উপন্যাস থেকে একই নামে সিনেমা নির্মাণ করেছেন প্রদীপ ঘোষ। রোববার প্রকাশ পেয়েছে সিনেমাটির টিজার। সিনেমায় প্রীতিলতার চরিত্রে অভিনয় করেছেন নুসরাত ইমরোজ তিশা। টিজারে বিভিন্ন লুকে দেখা গেছে তাকে।

প্রীতিলতা ছিলেন ব্রিটিশবিরোধী স্বাধীনতা সংগ্রামী। মাস্টারদা সূর্যসেনের নেতৃত্বে চট্টগ্রামের বিপ্লবে অংশ নিয়েছিলেন তিনি।

ক্রেইগ হত্যা মামলায় আরেক বিপ্লবী রামকৃষ্ণ বিশ্বাস আলীপুর জেলে আটক ছিলেন। জেলেই তার সঙ্গে প্রীতিলতা দেখা করেছিলেন ৪০ বার।

সূর্যসেনের নির্দেশ ছিল একজন বিপ্লবী আরেকজন বিপ্লবীর সঙ্গে দেখা করতে পারবে না। কিন্তু প্রীতিলতা সেই নির্দেশ অমান্য করেছিলেন। কিন্তু কেন? কী এমন টান ছিল প্রীতিলতার?

হয়তো রামকৃষ্ণকে পছন্দ করতেন, ভালোবাসতেন প্রীতিলতা! এর উত্তর কি পাওয়া সম্ভব? কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেনের উপন্যাস ‘ভালোবাসা প্রীতিলতা’ লেখার আগে এসবের উত্তর খুঁজেছেন।

চট্টগ্রামের পাহাড়তলী ইউরোপিয়ান ক্লাব আক্রমণের পর প্রীতিলতা বিষপান করে জীবন উৎসর্গ করেন। তার পোশাকের পকেটে পাওয়া যায় রামকৃষ্ণ বিশ্বাসের ছবি।

এ থেকে কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেনের বিশ্বাস দৃঢ় হয়। আর সেই বিশ্বাস থেকে প্রীতিলতার মনে গোপন করে রাখা ভালোবাসা নিয়ে সেলিনা হোসেন লিখেছেন ‘ভালোবাসা প্রীতিলতা’ উপন্যাস।

সেই উপন্যাস থেকে একই নামে সিনেমা নির্মাণ করেছেন প্রদীপ ঘোষ। রোববার প্রকাশ পেয়েছে সিনেমাটির টিজার। সিনেমায় প্রীতিলতার চরিত্রে অভিনয় করেছেন নুসরাত ইমরোজ তিশা। টিজারে বিভিন্ন লুকে দেখা গেছে তাকে।

বিপ্লবী রামকৃষ্ণের চরিত্রে অভিনয় করেছেন মনোজ প্রামাণিক। টিজারে আছেন তিনিও। টিজারের শেষ অংশে তিশাকে দেখা গেছে সেই সময়ের পুলিশি পোশাকে; আর মাথায় পাগড়ি। গুলিবিদ্ধ তিশাকে কাতরাতে দেখা গেছে টিজারের শেষ অংশে।

সিনেমাটি কবে মুক্তি পাবে, তা এখনও জানানো হয়নি। ২০১৯-২০ অর্থবছরের সরকারি অনুদান পায় সিনেমাটি।

মন্তব্য

বিনোদন
The story of the weaving industry in Apu Productions is the story of the red saree

অপুর প্রযোজনায় তাঁতশিল্পের গল্পে ‘লাল শাড়ি’র মহরত

অপুর প্রযোজনায় তাঁতশিল্পের গল্পে ‘লাল শাড়ি’র মহরত সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত ও অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস প্রযোজিত লাল শাড়ি সিনেমার মহরত। ছবি: নিউজবাংলা
অপু বিশ্বাস আয়োজনে বলেন, ‘অপু-জয় চলচ্চিত্র প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের উদ্যোক্তা আমার মা। তিনি আমাকে প্রতিনিয়ত উৎসাহ দিয়েছেন। তিনি এও চেয়েছিলেন যে, সরকারি অনুদানের চলচ্চিত্র দিয়ে যেন আমার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শুরু হয়। সেটা করতে পেরেছি, ভালো লাগছে। সবাই আমার বাবা-মায়ের জন্য দোয়া করবেন।’

শাড়ির সঙ্গে মিশে থাকে নারীর আবেগ, ভালোবাসার স্মৃতি। আর তা যদি হয় লাল শাড়ি তাহলে তো সেই স্মৃতির গভীরতা হয় আরও বেশি। কারণ লাল শাড়ির সঙ্গে মিশে থাকে বিয়ের আনন্দঘন মুহূর্ত। শাড়ির সঙ্গে শুধু নারীর নয়, পুরুষেরও জড়িয়ে থাকে নানা আবেগ।

এমন নানা আবেগেই কি না, অভিনেত্রী অপু বিশ্বাসও লাল শাড়িতে সেজেছিলেন শনিবার রাতে। শাড়ির সঙ্গে তার আবেগ নিশ্চিত জড়িয়ে থাকলেও তার লাল শাড়িতে সেজে আসার কারণ ভিন্ন।

সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত ও অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস প্রযোজিত লাল শাড়ি সিনেমার মহরত অনুষ্ঠানের কারণেই তিনি সেজেছিলেন লাল শাড়িতে।

অপু বিশ্বাসের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের নাম ‘অপু-জয় চলচ্চিত্র’। প্রতিষ্ঠানের যাত্রা শুরু হলো শনিবার রাত থেকে। অপুর বাবা-মা এর প্রতি শ্রদ্ধা জানানোর মাধ্যমে শুরু হয় আয়োজন। প্রয়াত বাবা-মা এর ছবির সামনে প্রদীপ প্রজ্বালনের মাধ্যমে তিনি এ শ্রদ্ধা জানান।

অপু বিশ্বাস আয়োজনে বলেন, ‘অপু-জয় চলচ্চিত্র' প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের উদ্যোক্তা আমার মা। তিনি আমাকে প্রতিনিয়ত উৎসাহ দিয়েছেন। তিনি এও চেয়েছিলেন যে, সরকারি অনুদানের চলচ্চিত্র দিয়ে যেন আমার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শুরু হয়। সেটা করতে পেরেছি, ভালো লাগছে। সবাই আমার বাবা-মায়ের জন্য দোয়া করবেন।’

অপু আরও বলেন, ‘অনুদান পেয়ে প্রথম যাকে ফোন করেছিলাম তিনি বিপ্লব দা (বিপ্লব সাহা)। সে বলেছিল মাসী মা নেই তো কী হয়েছে, আমি আছি তোর পাশে।’

সিনেমার পরিচালক বন্ধন বিশ্বাস জানান, নভেম্বরে শুরু হবে সিনেমার শুটিং। টানাই শুটিং করতে চান তিনি। আর আগামী বছর পহেলা বৈশাখে সিনেমাটি মুক্তির পরিকল্পনা আছে তাদের।

বন্ধন বিশ্বাস বলেন, ‘লাল শাড়ি একটা স্বপ্ন, মুক্তি সংগ্রামের প্রতীক। এমন একটি গল্প বলার জন্য অপু বিশ্বাস আমার ওপর আস্থা রেখেছেন- এ জন্য ধন্যবাদ। তিনি আমাকে স্বাধীনতা দিয়েছেন কাজ করার। সব মিলিয়ে এক রকম চাপই অনুভব করছি।’

সিনেমার গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করছেন সাইমন সাদিক। তিনি বলেন, ‘লাল শাড়ি সিনেমাটি তাতশিল্প নিয়ে। এ শিল্পটা এখন ব্যাকফুটে। সিনেমাটির মাধ্যমে একটি ঐতিহ্য সবার সামনে উঠে আসবে। এটি গ্রামীণ প্রেক্ষাপটের সিনেমা।’

আয়োজনে উপস্থিত ছিলেন মুশফিকুর রহমান গুলজার। তিনি বলেন, ‘অনেকে অনেক কথা বলতে পারে, তবে সিনেমাটি এর চিত্রনাট্যের যোগ্যতার বলেই অনুদান পেয়েছে। আমি কমিটিতে ছিলাম, আমি জানি।’

সবার আলোচনা শেষে সুতার চরকি ঘুরিয়ে লাল শাড়ি সিনেমার মহরত ঘোষণা করেন চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান। আরও ছিলেন অভিনেত্রী নিপুণ আক্তার।

আরও পড়ুন:
শাকিবের সঙ্গে বিয়ে না হলেই খুশি হতাম: অপু
অপুর কলকাতার সিনেমার পোস্টার প্রকাশ, সেপ্টেম্বরে মুক্তি
কেন অনুদান নিলাম, তার ব্যাখ্যা দেব: অপু বিশ্বাস

মন্তব্য

বিনোদন
IGP praised Operation Sundarban

‘অপারেশন সুন্দরবন’ দেখে প্রশংসা করলেন আইজিপি

‘অপারেশন সুন্দরবন’ দেখে প্রশংসা করলেন আইজিপি অপারেশন সুন্দরবন সিনেমা দেখে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ। ছবি: সংগৃহীত
অপারেশন সুন্দরবন নির্মাণের গল্প উল্লেখ করে ড. বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘জলদস্যুদের অভয়ারণ্য হিসেবে পরিচিত সুন্দরবনের শান্তি ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে অপারেশন শুরু করে র‍্যাব। অফিসার ও ট্রুপসদের দক্ষতা ও চৌকস অপারেশনের মাধ্যমে সুন্দরবনকে জলদস্যু মুক্ত করা হয়। আর সেই সাফল্যগাথা ফ্রেমে ফ্রেমে জাতির সামনে তুলে ধরার লক্ষ্যেই অপারেশন সুন্দরবন বানানোর পরিকল্পনা করি।’

দর্শকদের ভালোবাসা জয় করতে পেরেছে বলে অপারেশন সুন্দরবন মুক্তির পর থেকে দর্শকদের প্রশংসায় ভাসছে। ২ ঘণ্টা ২১ মিনিট দর্শকদের মনোযোগ ধরে রাখাটাও সিনেমাটির একটা সাফল্য। সিনেমাটি ঝুলে যায়নি। টানটান উত্তেজনা ও সাসপেন্সে ভরপুর ছিল বলে সিনেমাটি দর্শকরা গ্রহণ করেছের।

ভিএফএক্স, সাউন্ড কোয়ালিটি, শিল্পীদের অভিনয়, কলাকুশলীদের মুনশিয়ানায় অপারেশন সুন্দরবন ছবিটি একটি ভিন্নধর্মী ও মানসম্পন্ন চলচ্চিত্রের কাতারে স্থান পেয়েছে।

শুক্রবার বিকেলে বসুন্ধরার স্টার সিনেপ্লেক্সে অপারেশন সুন্দরবন দেখার পর এসব কথা বলেন বাংলাদেশ পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল (আইজিপি) ড. বেনজীর আহমেদ। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের র‍্যাব ট্রুপস ও অফিসাররাও দুর্দান্ত কাজ করেছে। নানা মাত্রিকতায় অপারেশনের দৃশ্যগুলো তুলে ধরা হয়েছে। সিনেমাটি না দেখলে বোঝা যাবে না আমাদের অফিসাররা কত চৌকস ও তারা কত পরিশ্রম করতে পারে। দর্শকরা সিনেমাটি গ্রহণ করেছেন এটাই আমাদের বড় সাফল্য।’

অপারেশন সুন্দরবন নির্মাণের গল্প উল্লেখ করে ড. বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘জলদস্যুদের অভয়ারণ্য হিসেবে পরিচিত সুন্দরবনের শান্তি ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে অপারেশন শুরু করে র‍্যাব। অফিসার ও ট্রুপসদের দক্ষতা ও চৌকস অপারেশনের মাধ্যমে সুন্দরবনকে জলদস্যু মুক্ত করা হয়। আর সেই সাফল্যগাথা ফ্রেমে ফ্রেমে জাতির সামনে তুলে ধরার লক্ষ্যেই অপারেশন সুন্দরবন বানানোর পরিকল্পনা করি।

‘তবে মাত্র একটি সিনেমায় র‍্যাবের সাফল্য তুলে ধরা সম্ভব না। আমি মনে করি, এই সিনেমাটি র‍্যাবের বহু সাফল্যের একটি অংশ। সিনেমাটি নির্মাণের পরিকল্পনার পর দীপনকে বললাম তুমি সুন্দরবনে যাও, সেখানে থাকো, সেখানকার ভাওয়ালি, মধু সংগ্রহকারী, জেলেসহ সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথা বলো এবং সেসব নিয়ে স্ক্রিপ্ট করো। দীপন তাই করল।’

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন, র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের উপপরিচালক মেজর রইসুল আযম, নির্মাতা অরুণ চৌধুরী, চয়নিকা চৌধুরী, অভিনেত্রী তানজিকা, এস এ হক অলিক, অভিনেত্রী ও নির্দেশক হৃদি হক, রায়হান রাফি ও অপারেশন সুন্দরবন সিনেমার শিল্পী ও কলাকুশলীরা।

আরও পড়ুন:
জবিতে ‘অপারেশন সুন্দরবন’ টিম
এলো ‘অপারেশন সুন্দরবন’-এর প্রথম গান ‘এ মন ভিজে যায়’
সেপ্টেম্বরে আসছে ‘অপারেশন সুন্দরবন’
‘অপারেশন সুন্দরবন’-এর ট্রেইলার প্রকাশ হবে সমুদ্রসৈকতে
পার্থর প্রথম, পার্থ-বাপ্পা-পান্থও এক সঙ্গে প্রথমবার

মন্তব্য

বিনোদন
Cineplexs explanation on Jayas objection to show time

শো টাইম নিয়ে জয়ার আপত্তিতে সিনেপ্লেক্সের ব্যাখ্যা

শো টাইম নিয়ে জয়ার আপত্তিতে সিনেপ্লেক্সের ব্যাখ্যা সিনেপ্লেক্সে সিনেমা দেখতে ঢুকছেন দর্শক (বাঁয়ে) ও অভিনেত্রী জয়া আহসান (ডানে)। ছবি: নিউজবাংলা
তিনি জোর দিয়ে বলেন, ‘শো টাইম নির্ধারণে নিজস্ব পলিসি ও অভিজ্ঞতা কাজে লাগালেও দর্শকদের চাহিদার ওপর আর কিছু নেই। যখন যে সিনেমা দেখতে দর্শকদের চাহিদা থাকে, আমরা সেই সিনেমার শো বাড়াই। এমন উদাহরণ অনেক আছে সিনেপ্লেক্সের।’

শুক্রবার দেশের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে অপারেশন সুন্দরবনবিউটি সার্কাস। মুক্তির দিন সকালে স্টার সিনেপ্লেক্সের পান্থপথ শাখায় গিয়েছিলেন বিউটি সার্কাস সিনেমার মূল চরিত্রের অভিনেত্রী জয়া আহসান।

সেখানে গিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় তিনি জানান, কাজ শেষ করে সাধারণত যখন দর্শকরা সিনেমা দেখতে আসতে পছন্দ করেন অর্থাৎ সন্ধ্যায় বিউটি সার্কাসের কোনো শো নেই। অনেকেই নাকি বিষয়টি নিয়ে অভিযোগ বা আক্ষেপের কথা জানিয়েছেন জয়ার কাছে।

স্টার সিনেপ্লেক্সের ফেসবুক পেজে শো টাইমের যে তথ্য দেয়া হয়েছে, তা যাচাই করে জয়ার আক্ষেপের সত্যতা পাওয়া যায়।

সিনেপ্লেক্সের ফেসবুক পেজে দেয়া তথ্য অনুযায়ী অপারেশন সুন্দরবন পান্থপথ শাখায় ২৩ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বরে ১ থেকে ৩ নম্বর হলে শো রয়েছে ১টা ৫০, ৭টা ১৫ মিনিটে। আর ভিআইপি হলের শো টাইম ১০টা ৪৫, ১টা ৪০, ৪টা ৩৫, ৭টা ৩০ মিনিট।

আর সিনেপ্লেক্সের পান্থপথ শাখায় ২৩ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর বিউটি সার্কাস সিনেমার শো টাইম ১১টা ১৫, ৪টা ৫০ মিনিট।

অপারেশন সুন্দরবন (বঙ্গবন্ধু সামরিক জাদুঘর) ২৪ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর ১১টা, ৪টা ১৫, ৭টা ১৫ মিনিট।

এস কে এস টাওয়ার শাখায় অপারেশন সুন্দরবন ২৩ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর (স্টার প্রিমিয়াম) ১০টা ৪৫, ১টা ৪০, ৪টা ৩৫, ৭টা ৩০ মিনিট।

সনি স্কয়ারে (হল ১ থেকে ৩) ২৩ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর অপারেশন সুন্দরবন চলবে ১১টা, ১টা ৪০, ৪টা ৪০, ৭টা ৪৫ মিনিটে।

সীমান্ত সম্ভারে (স্টার প্রিমিয়াম) ১০টা ৫০, ১টা ৪৫, ৪টা ৪০, ৭টা ৩৫ মিনিটে দেখা যাবে সিনেমা অপারেশন সুন্দরবন

বিউটি সার্কাস এস কে এস টাওয়ারে (২৩ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর) ১১টা, ৪টা ২০, সনি স্কয়ারে (হল ১ থেকে ৩) ২৩ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর ১১টা ১০, ৫টায়, বঙ্গবন্ধু সামরিক জাদুঘরে ২৪ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর ১টা ৫০ মিনিটে দেখা যাবে। আর সীমান্ত সম্ভারে সিনেমাটির কোনো শো রাখা হয়নি।

যাচাই করে দেখা যায়, সিনেপ্লেক্সের পাঁচটি শাখার কোনোটিতেই সন্ধ্যায় অর্থাৎ সন্ধ্যা ৭টার কিছু আগে-পরে কোনো শো নেই বিউটি সার্কাসের

বিষয়টি নিয়ে শনিবার বিকেলে নিউজবাংলা কথা বলে স্টার সিনেপ্লেক্সের জ্যেষ্ঠ বিপণন কর্মকর্তা মেজবাহ উদ্দিন আহমেদের সঙ্গে। তিনি বলেন, ‘শো টাইম নির্ধারণ করে সিনেপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ। নিজস্ব পলিসি এবং পূর্ব অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে শো টাইম নির্ধারণ করা হয়।’

তিনি জোর দিয়ে বলেন, ‘শো টাইম নির্ধারণে নিজস্ব পলিসি ও অভিজ্ঞতা কাজে লাগালেও দর্শকদের চাহিদার ওপর আর কিছু নেই। যখন যে সিনেমা দেখতে দর্শকদের চাহিদা থাকে, আমরা সেই সিনেমার শো বাড়াই। এমন উদাহরণ অনেক আছে সিনেপ্লেক্সের।’

শুক্রবার জয়া আহসানের দেয়া বক্তব্য শুনেছেন বলে উল্লেখ করে মেজবাহ জানান, শো টাইমন এখন এমন আছে, এটা পরিবর্তনও হয়ে যেতে পারে। সবই দর্শকদের ওপর নির্ভর করছে।

পরাণদিন- দ্য ডে সিনেমার উদাহরণ দিয়ে তিনি বলেন, ‘পরাণ সিনেমার শো প্রথম সপ্তাহে ছিল ৮টি আর দিন- দ্য ডে সিনেমার শো ছিল ১৯টি। পরে এ চিত্র কেমন হয়েছে, সেটি দর্শকদের সবার জানা।’

সন্ধ্যা ৭টার আগে-পরে কোনো শো কেন রাখা হয়নি জানতে চাইলে মেজবাহ নিউজবাংলাকে বলেন, ‘হলিউড সিনেমার শো ড্রপ করে দিয়ে আমরা বাংলা সিনেমা চালিয়েছি। দর্শকদের চাহিদার কথা মাথায় রেখে তাৎক্ষণিকভাবে বাংলা সিনেমার শো বাড়িয়েছি আমরা। সে রকম পরিবেশ তৈরি হলে সিনেপ্লেক্স শো বাড়াতে বাধ্য।’

সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, শুক্র ও শনিবার স্টার সিনেপ্লেক্সের পান্থপথ শাখায় দুটি সিনেমারই একটি-দুটি শোতে দর্শক সমাগম একটু বেশি। অধিকাংশ শোতেই নেই আশানুরূপ দর্শক।

আরও পড়ুন:
প্রথম সিনেমা প্রথম প্রেমের মতো: সালওয়া
সোহেল আরমান-অপু বিশ্বাসের সিনেমা করার কথা চলছে
সফলতার দাবি নেই, ‘লাইভ’ সিনেমায় আছে সবার চেষ্টা
বাণিজ্যিক সিনেমায় অনুদান অব্যাহত রাখার ঘোষণা মন্ত্রীর
‘অপারেশন সুন্দরবন’-এর পোস্টার প্রকাশ

মন্তব্য

বিনোদন
Khufis Teaser Depicts Octopus Tying

‘অক্টোপাস’ বাঁধনের বর্ণনায় ‘খুফিয়া’র টিজার

‘অক্টোপাস’ বাঁধনের বর্ণনায় ‘খুফিয়া’র টিজার খুফিয়া এর টিজারে আজমেরী হক বাঁধন। ছবি: টিজার থেকে নেয়া
সিনেমায় আরও অভিনয় করেছেন আলী ফজল, ওয়ামিকা গাব্বিসহ অনেকে। খুফিয়ায় বাঁধনের অভিনয় করার মধ্য দিয়ে প্রথমবার বাংলাদেশের কোনো অভিনয়শিল্পী কাজ করলেন নেটফ্লিক্সের কোনো প্রোজেক্টে।

খুবই অদ্ভুত ছিল মেয়েটি! গুনাহ এর মতো চুপ চুপ ভাব; আবার মৃত্যুর মতো স্পষ্ট। কখনও আবার ভাগ্যের মতো; অযৌক্তিক।

এই স্বভাবগুলো অক্টোপাসের। এ অক্টোপাস সমুদ্রের নয়; এটি একটি চরিত্রের নাম। বলিউড সিনেমা খুফিয়ায় এ নামে অভিনয় করবেন দেশের অভিনেত্রী আজমেরী হক বাঁধন। নিউজবাংলাকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন অভিনেত্রী।

শনিবার প্রকাশ পেয়েছে নেটফ্লিক্সের ভারতীয় সিনেমা খুফিয়া এর টিজার। সেখানে প্রায় পুরো অংশে অক্টোপাস তথা বাঁধনের স্বভাবের বর্ণনা দেয়া হয়েছে।

বর্ণনাটি দিয়েছেন সিনেমার গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রের অভিনেত্রী বলিউডের টাবু। বর্ণনায় আরও বলা হয়েছে, ‘হাতের আঙুলের কাছে এসে থাকা কাপর টেনে আঙুলগুলো ঢেকে রাখার স্বভাব ছিল অক্টোপাসের। হাছি দিলে একসঙ্গে তিনটা দিত। আর গলার কাছে যেখানে গর্তের মতো আছে, সেখানে ওর একটা তিল ছিল, আঁচিলের মতো।’

বর্ণার একপর্যায়ে টাবু বলেন, ‘আরেকটা আঁচিল ছিল আমাদের জীবনে। সেটা নিয়ে অক্টোপাসের না কোনো ধারণা ছিল, না আমার।’

বাঁধন নিউজবাংলাকে জানান, সিনেমায় টাবুর নাম কৃষ্ণা মেহরা (কে এম)। তার মুখে অক্টোপাস বা নিজের চরিত্রের বর্ণনায় টিজার প্রকাশে উচ্ছ্বসিত বাঁধন।

তিনি বলেন, ‘টিজারে সে বর্ণনা শোনা যাচ্ছে, সেটা অক্টোপাসের। এ চরিত্রটিতে আমি অভিনয় করেছি। যদিও আমার স্ক্রিন টাইম খুবই কম, তারপরও আমি আমার চরিত্রটিকে খুবই পছন্দে করেছি।

‘আমিই সারপ্রাইজড। কারণ আমি তো জানি না ওরা কখন কোন টিজার করবে বা ছাড়বে। আমি যখন দেখলাম যে, অক্টোপাসকে বর্ণনা করে টিজার প্রকাশ করা হয়েছে, আমার খুবই ভালো লাগছে।’

বিশাল ভারদ্বাজ পরিচালিত সিনেমাটি কবে মুক্তিপাবে তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি। তবে সিনেমার প্রচার শুরু হয়েছে। কিছুদিন আগে সিনেমাটির চরিত্রগুলোর লুকের একটি টিজার প্রকাশ পায়। এবার প্রকাশ পেল টিজার।

সিনেমায় আরও অভিনয় করেছেন আলী ফজল, ওয়ামিকা গাব্বিসহ অনেকে। খুফিয়ায় বাঁধনের অভিনয় করার মধ্য দিয়ে প্রথমবার বাংলাদেশের কোনো অভিনয়শিল্পী কাজ করলেন নেটফ্লিক্সের কোনো প্রোজেক্টে।

আরও পড়ুন:
‘শুভ জন্মদিন আজমেরী’
বিশাল ভরদ্বাজ জানেন কীভাবে সম্মান করতে হয়: বাঁধন
বলিউডের ‘খুফিয়া’য় বাঁধন
পরীমনিকে নিয়ে আমি চিন্তিত: বাঁধন
মুসকান জুবেরী হয়ে ওঠার গল্প শোনালেন বাঁধন

মন্তব্য

বিনোদন
Adar Azad is in a romance with Mahi

মাহির সঙ্গে রোমান্সে মেতেছেন আদর আজাদ

মাহির সঙ্গে রোমান্সে মেতেছেন আদর আজাদ পর্দায় একটি দৃশ্যে আদর-মাহি
মুক্তি সামনে রেখে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় টাইগার মিডিয়ার ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশিত হয়েছে সিনেমাটির টাইটেল গান। এতে কণ্ঠ দিয়েছেন বেলাল খান ও সায়েরা রেজা। সুদীপ কুমার দীপের লেখা গানটির সংগীতায়োজন করেছেন জেকে মজলিশ।

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত নির্মাতা মোস্তাফিজুর রহমান মানিক নির্মাণ করেছেন সিনেমা ‘যাও পাখি বলো তারে’। আগামী ৭ অক্টোবর দেশজুড়ে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে ত্রিভুজ প্রেমের গল্পে নির্মিত এ সিনেমাটি।

মুক্তি সামনে রেখে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় টাইগার মিডিয়ার ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশিত হয়েছে সিনেমাটির টাইটেল গান। এতে কণ্ঠ দিয়েছেন বেলাল খান ও সায়েরা রেজা। সুদীপ কুমার দীপের লেখা গানটির সংগীতায়োজন করেছেন জেকে মজলিশ।

শুক্রবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়। বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ‘যাও পাখি বলো তারে, সে যেন ভোলে না মোরে, তার বিহনে আমি যাবো গো মরে’- এমন কথায় ঠোঁট মিলিয়েছেন চিত্রনায়ক আদর আজাদ ও চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। দুজনের সাবলীল রসায়ন দেখে ভালো লাগা প্রকাশ করছেন দর্শক। গানটির কোরিওগ্রাফি করেছেন হাবিবুর রহমান। গানের দৃশ্যায়ন হয়েছে পার্বত্য অঞ্চল বান্দরবানে।

গত ১৭ সেপ্টেম্বর প্রকাশ করা হয় সিনেমাটির ট্রেলার। তাতে আভাস পাওয়া যায়, ত্রিভুজ প্রেমের গল্পে নির্মিত হয়েছে এই সিনেমা। যেটার মুখ্য চরিত্রগুলো ফুটিয়ে তুলেছেন আদর, মাহি ও শিপন মিত্র।

ক্লিওপেট্রা ফিল্মসের ব্যানারে নির্মিত এই সিনেমায় আদর-মাহি ছাড়াও বিভিন্ন চরিত্রে আরও অভিনয় করেছেন অভিনেতা রাশেদ মামুন অপু, সুব্রত, মাহমুদুল ইসলাম মিঠু (বড়দা মিঠু), মাসুম বাশার, অভিনেত্রী রেবেকা, মিলি বাশার, লাবণ্য প্রমুখ। সিনেমাটির নির্বাহী প্রযোজক তমালিকা আকরাম।

জাহিদ হাসান অভির দ্য অভি কথা চিত্র পরিবেশিত ‘যাও পাখি বলো তারে’ সিনেমার কাহিনি, সংলাপ ও চিত্রনাট্য লিখেছেন আসাদ জামান। এর গান লিখেছেন সুদীপ কুমার দীপ, এ মিজান ও সঞ্জীবন চক্রবর্তী। ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক করেছেন ইমন সাহা। গানের সংগীত করেছেন জেকে মজলিশ, বেলাল খান ও রেজওয়ান শেখ এবং গানে কণ্ঠ দিয়েছেন বেলাল খান, কোনাল, ইলিয়াস হোসাইন, সায়েরা রেজা, মোহাম্মদ জসিউর রহমান সেতু ও বিন্দিয়া খান।

আরও পড়ুন:
আমার মেয়েই হবে ইনশাআল্লাহ: মাহি
মা হচ্ছেন মাহি
শুক্রবার সিনেমা মুক্তি, তবু মন ভালো নেই সাইমন-মাহির

মন্তব্য

বিনোদন
Joys beauty circus was released

‘বিউটি সার্কাস’ দেখতে হলগুলোতে যথেষ্ট ভিড়: জয়া

‘বিউটি সার্কাস’ দেখতে হলগুলোতে যথেষ্ট ভিড়: জয়া রাজধানীর স্টার সিনেপ্লেক্সে ‘বিউটি সার্কাস’ সিনেমার বিরতির সময় সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন জয়া আহসান। ছবি: নিউজবাংলা
বেলা সোয়া ১১টার সিনেমার প্রথম শোতে রাজধানীর স্টার সিনেপ্লেক্সে প্রবেশ করতে দেখা যায় দর্শকদের। প্রেক্ষাগৃহটিতে সিনেমা দেখেছেন জয়াসহ অন্য কলাকুশলীরা।

দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান অভিনীত বহুল প্রতীক্ষিত চলচ্চিত্র ‘বিউটি সার্কাস’ মুক্তি পেয়েছে।

দেশের ১৯টি প্রেক্ষাগৃহে শুক্রবার সকালে মুক্তি পায় সিনেমাটি।

‘বিউটি সার্কাস’ দেখতে হলগুলোতে যথেষ্ট ভিড়: জয়া

বেলা সোয়া ১১টার সিনেমার প্রথম শোতে রাজধানীর স্টার সিনেপ্লেক্সে প্রবেশ করতে দেখা যায় দর্শকদের। প্রেক্ষাগৃহটিতে সিনেমা দেখেছেন জয়াসহ অন্য কলাকুশলীরা।

বিরতির সময় সাংবাদিকদের কাছে অনুভূতি ব্যক্ত করে জয়া বলেন, ‘হলগুলোতে যথেষ্ট ভিড় আছে। আমি নিজেও টিকিট কাটতে পারছিলাম না। জুমার দিন সকালে হল এ রকমভাবে কানায় কানায় পূর্ণ হবে, এটা আমি বুঝতে পারিনি।

‘সেই আগ্রহ দেখে খুবই ভালো লাগছে, ভালো লাগছে দর্শকদের পার্টিসিপ্যাশন (অংশগ্রহণ) দেখে। বিশেষ করে খেলার জায়গাগুলো যখন আসছে। সার্কাস যেমন র (আদি), ওই রকম র ফর্মেই শুট করা। আমার সেটা খুব ভালো লাগছে; এনজয় করছি।’

বিরতির সময় সিনেমাটি নিয়ে দুয়েকজন দর্শকের কাছে মন্তব্য জানতে চাওয়া হয়। তারা জানান, হাফ টাইম দেখে মন্তব্য করা ঠিক হবে না, তবে সব মিলিয়ে ভালো।

সার্কাসের দলপতি অদম্য এক নারীর টিকে থাকার লড়াই ও প্রতিশোধের গল্প বিউটি সার্কাস।

মাহমুদ দিদার পরিচালিত সিনেমায় জয়া ছাড়াও অভিনয় করেছেন ফেরদৌস আহমেদ, তৌকীর আহমেদ, এ বি এম সুমন, গাজী রাকায়েত, হুমায়ুন সাধুসহ অনেকে।

আরও পড়ুন:
‘বিউটি সার্কাস’-এ চিরকুটের নিবেদন ‘বয়ে যাও নক্ষত্র’
রক্তের ইতিহাসের সাক্ষ্য ‘বিউটি সার্কাস’
‘বিউটি সার্কাস’ সিনেমার পোস্টার ও মুক্তির তারিখ প্রকাশ
‘বিউটি সার্কাস’ আসছে সেপ্টেম্বরের চতুর্থ সপ্তাহে
সেন্সর পেল ‘বিউটি সার্কাস’, মুক্তির ঘোষণা শিগগিরই

মন্তব্য

p
উপরে