বাংলাদেশকে জেতালেন সাকিব

বাংলাদেশকে জেতালেন সাকিব

ছবি: টুইটার

শতকের চেয়ে বেশি মূল্যবান হয়ে গেল দেশসেরা অলরাউন্ডারের ৯৬ রানের অনবদ্য ইনিংস। চার মেরে দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছিয়ে সাকিব ফেরেন প্যাভিলিয়নে।

সিরিজের দ্বিতীয় পরাজয় যখন চোখ রাঙাচ্ছিল তখন একমাত্র ভরসা হিসেবে ক্রিজে টিকে ছিলেন সাকিব আল হাসান। তার সেঞ্চুরি হয়নি।

কিন্তু শতকের চেয়ে বেশি মূল্যবান হয়ে গেল তার অপরাজিত ৯৬ রানের অনবদ্য ইনিংস। চার মেরে জয়ের বন্দরে পৌঁছে সাকিব ফিরলেন প্যাভিলিয়নে।

জিম্বাবুয়েকে ৩ উইকেটে হারিয়ে সিরিজ নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ। তিন ওয়ানডে ম্যাচের সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল টাইগাররা।

হারারেতে জিম্বাবুয়েকে ২৪০ রানে থামিয়ে টার্গেটে নেমে ধারাবাহিকভাবে উইকেট হারিয়ে এক পর্যায়ে কোণঠাসা হয়ে পড়ে বাংলাদেশ।

টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতার দিনে জ্বলে ওঠেন সাকিব। বহুদিন পর নিজেকে ফিরে পেতে এমন উপলক্ষই হয়তো খুঁজছিলেন বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার।

বোলিংয়ে দুই উইকেট নেয়ার পর ব্যাটিংয়েও দ্যুতি ছড়ান সাকিব। ক্রিজে অপরাজিত থেকে বাংলাদেশের জয় নিশ্চিত করে মাঠ ছাড়েন তিনি।

তিনে যখন ব্যাটিংয়ে নামলেন তখন ৩৯ রানে সতীর্থ তামিম ক্রিজ ছাড়েন। একাই এক প্রান্ত আগলে রেখে সাকিব ম্যাচে জয়ের আশা জিইয়ে রাখেন একাই। অপরপ্রান্ত কেবলই ছিল আসা-যাওয়া।

এমন বিপরীত পরস্থিতিতে ব্যাট করতে নেমে ক্যারিয়ারের ৪৯ তম ফিফটি পূর্ণ করেন তারকা এই অলরাউন্ডার। সেই সঙ্গে পেরিয়ে যান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১২ হাজার রানের মাইলফলক।

এর আগে দলীয় সংগ্রহ যখন ৩৯ রান, সিকান্দার রাজার হাতে বল তুলে দিয়ে ২০ রান করে সাজঘরে ফেরেন তামিম।

অধিনায়কের বিদায়ের পর দ্রুত ফেরেন আগের ম্যাচের সেঞ্চুরিয়ান লিটন দাস। এনগারাভার বলে ব্রেন্ডন টেলরের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে ২১ রান করে এবার ২২ গজ ত্যাগ করেন লিটন।

সাত রানে দুই উইকেট হারিয়ে বিপর্যস্ত দলের হাল ধরতে ক্রিজে নেমে মোহাম্মদ মিঠুন বিদায় নেন দুই রান করে। আগের ম্যাচে ১৯ করে সাজঘরে ফিরেছিলেন ধারাবাহিকভাবে পারফর্ম করতে ব্যর্থ এই ব্যাটসম্যান।

টপ অর্ডারের তিন ব্যাসম্যানকে হারিয়ে দল যখন বিপর্যস্ত, দলীয় সংগ্রহ ৭৫ রানের সময় রান আউট হয়ে ক্রিজ ছাড়েন মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত।

এরপরে দুই সাকিব-রিয়াদ জুটি কিছুটা আশা দেখালেও ২৬ রান তুলে বিদায় নেন রিয়াদও।

হাল ধরতে ক্রিজে নেমে মাত্র ৬ রানে মেহেদী হাসান মিরাজের বিদায়ে আরও বিপর্যস্ত হয়ে যায় বাংলাদেশ।

মুহূর্তেই ১৪৫ রানে ৬ উইকেট খুঁইয়ে বেশ চাপে পড়ে বাংলাদেশ।

পরে সাইফুদ্দিনকে নিয়ে পাঁচ বল বাকি থাকতে জয়ের বন্দরে নোঙর ফেলেন সাকিব। ২৮ রানে সাইফ আর ৯৬ রানে সাকিব অপরাজিত থেকে ম্যাচ শেষ করে ২২ গজ ছাড়েন।

তিন উইকেটের জয় নিয়ে সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ।

এক ম্যাচ হাতে রেখে সিরিজ নিশ্চিত করা বাংলাদেশ দলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন দেশের রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল।

২০ জুলাই সিরিজের শেষ ম্যাচ খেলতে নামবে বাংলাদেশ।

আরও পড়ুন:
সাকিবের ফিফটিতে ম্যাচে টিকে আছে বাংলাদেশ
তামিম-লিটন-মিঠুনের বিদায়ে চাপে বাংলাদেশ
সিরিজ জিততে বাংলাদেশের চাই ২৪১
দ্বিতীয় ওয়ানডের নিয়ন্ত্রণে বাংলাদেশ
১০ ওভারে দুই উইকেট তুলে নিয়েছে বাংলাদেশ

শেয়ার করুন

মন্তব্য