ঘরের চালে বিদ্যুতের তার, পরিবারের ২ জনের মৃত্যু, আহত ২

ঘরের চালে বিদ্যুতের তার, পরিবারের ২ জনের মৃত্যু, আহত ২

প্রতীকী ছবি

টেকনাফ পল্লী বিদ্যুতের এজিএম উদয়ন দাশ গুপ্ত বলেন, ‘বৃষ্টির কারণে গাছের ডাল ভেঙে মূল সঞ্চালন লাইনের ওপর পড়লে তার ছিঁড়ে যায়। এতে প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে। বর্তমানে ওই এলাকা বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন রয়েছে।’ 

টিনের চালের ওপর ছিঁড়ে পড়ে পল্লী বিদ্যুতের তার। মুহূর্তেই বিদ্যুতায়িত হয়ে পড়ে পুরো ঘর। কিছু বুঝে ওঠার আগেই প্রাণ হারান ঘরে থাকা দুজন। গুরুতর আহত হয় শিশুসহ দুইজন।

কক্সবাজার টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপের দক্ষিণপাড়ায় আব্দুল আমিনের বাড়িতে বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে মর্মান্তিক এই দুর্ঘটনা ঘটেছে।

এ সময় আমিন বাড়িতে ছিলেন না। তার স্ত্রী রান্নাঘরে ব্যস্ত ছিলেন।

নিউজবাংলাকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন শাহপরীর দ্বীপ পুলিশ ক্যাম্পের কর্মকর্তা জায়েদ হাসান।

মৃতরা হলেন আব্দুল আমিনের বোন রমিদা বেগম ও তার আত্মীয় কলিম উল্লাহ। কলিম টেকনাফ সদর ইউনিয়নের বাসিন্দা। তিনি ঈদে বেড়াতে এসেছিলেন।

আহতরা হলেন আমিনের মেয়ে রোকেয়া আক্তার ও মৃত রমিদার শিশুকন্যা নাইমা আকতার।

স্থানীয় বাসিন্দা মো. ইব্রাহিম ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, পল্লী বিদ্যুতের অবহেলার কারণে এই প্রাণহানির ঘটনা। সংশ্লিষ্টদের বারবার তাগাদা দেয়া হলেও লাইন মেরামতে কোনো উদ্যোগ নেয়া হয়নি।

টেকনাফ পল্লী বিদ্যুতের এজিএম উদয়ন দাশ গুপ্ত নিউজবাংলাকে বলেন, ‘বৃষ্টির কারণে গাছের ডাল ভেঙে পড়লে মূল সঞ্চালন লাইনের তার ছিঁড়ে যায়। এতে প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে। বর্তমান ওই এলাকা বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন রয়েছে।’

টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা টিটু চন্দ্র শীল জানান, বিদ্যুৎস্পর্শে ১২ বছরের কিশোরী রোকেয়ার অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তার পা পুড়ে গেছে।

আরও পড়ুন:
বিদ্যুতায়িত হয়ে মাছচাষির মৃত্যু
তিন মৃত্যু বিদ্যুৎস্পর্শে, নেতারা বলালেন বজ্রপাত
তিন প্রাণহানির পেছনে ‘বাড়িওয়ালার অবহেলা’
বিদ্যুতায়িত হয়ে শ্রমিকের মৃত্যু
ট্রাক্টর বিদ্যুতায়িত হয়ে চালকের মৃত্যু

শেয়ার করুন

মন্তব্য