সাবেক স্ত্রীর ওপর প্রতিশোধ নিতে সন্তানকে হত্যা !

সাবেক স্ত্রীর ওপর প্রতিশোধ নিতে সন্তানকে হত্যা !

শিশু আশরাফুল

ওসি আবদুল বাতেন মৃধা বলেন, মো.আলোউদ্দিন তার সাবেক স্ত্রীর ওপর প্রতিশোধ নিতে শিশুটিকে একা পেয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে মরদেহ মাটিতে পুঁতে রাখেন।আলাউদ্দিনের সঙ্গে ছাড়াছাড়ির পর আশরাফুলের মা আবার বিয়ে করেন। আশরাফুল তার দ্বিতীয় ঘরের সন্তান।

নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলায় এক ব্যক্তি সাবেক স্ত্রীর ওপর প্রতিশোধ নিতে তার শিশুসন্তানকে হত্যা করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সেনবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল বাতেন মৃধা বুধবার বিকেলে জানান, গত সোমবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে উপজেলার নজরপুর গ্রামের তেলিপুকুরপাড় এলাকার একটি বাগান থেকে শিশু আশরাফুলের গলিত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। জড়িত সন্দেহে শিশুটির মায়ের আগের স্বামী মো. আলাউদ্দিনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মৃত আশরাফুল উপজেলার ডমুরুয়া ইউনিয়নের বাবুপুর শ্রীপুর গ্রামের মীর বাড়ির আবুল কাশেম মীরের ছেলে। ছয় বছর বয়সী শিশুটি স্থানীয় গাজীরহাট সানরাইজ একাডেমির প্রথম শ্রেণির ছাত্র ছিল।

মরদেহ উদ্ধারের পর মঙ্গলবার সকালে উপজেলার কাদরা ইউনিয়নের নজরপুর গ্রামের মো. আলাউদ্দিনকে আটক করে পুলিশ। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে আলাউদ্দিন ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন।

বুধবার দুপুরে নোয়াখালীর আমলী আদালত-৪ এর বিচারক নবনিতা গুহের আদালতে হাজির করা হলে তিনি ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন। পরে তাঁকে জেলহাজতে পাঠিয়ে দেয়া হয়।

সাবেক স্ত্রীর ওপর প্রতিশোধ নিতে সন্তানকে হত্যা !
গ্রেপ্তার মো. আলাউদ্দিন

ওসি আবদুল বাতেন মৃধা বলেন, মো.আলাউদ্দিন শিশুটিকে একা পেয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে মরদেহ মাটিতে পুঁতে রাখেন।

আলাউদ্দিনের সঙ্গে মধ্যে ছাড়াছাড়ির পর আশরাফুলের মা আবার বিয়ে করেন। আশরাফুল তার দ্বিতীয় ঘরের সন্তান।

ওসি জানান, ২ এপ্রিল সকাল থেকে নিখোঁজ ছিল আশরাফুল। ওই রাতেই তার বাবা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। ঘটনার তিন দিন পর সোমবার সন্ধ্যায় তেলিপুকুর এলাকার বাগানে নিখোঁজ শিশুর মরদেহের সন্ধান পাওয়া যায়। পরে পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে।

শেয়ার করুন

মন্তব্য