যুদ্ধাপরাধের অভিযোগ করছেন গাজার সেই টাওয়ার-মালিক

যুদ্ধাপরাধের অভিযোগ করছেন গাজার সেই টাওয়ার-মালিক

ইসরায়েলের হামলায় জ্বলছে গাজার জালা টাওয়ার। এএফপির ফাইল ছবি

গাজায় সামরিক অভিযানের সময় ১৫ মে আল জাজিরা, এপির কার্যালয় থাকা ভবনটিতে বোমা ছোড়ে ইসরায়েল। দেশটির পক্ষ থেকে বলা হয়, ভবনটিকে সামরিক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা হয়েছে। তবে ভবনমালিক শুরু থেকেই এ অভিযোগ পুরোপুরি নাকচ করে আসছেন।

আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে (আইসিসি) যুদ্ধাপরাধের অভিযোগ করছেন ইসরায়েলি হামলায় বিধ্বস্ত ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকার জালা টাওয়ারের মালিক জাওয়াদ মেহদি।

তার আইনজীবীর বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা এএফপির শুক্রবারের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

গাজায় সামরিক অভিযানের সময় ১৫ মে আল জাজিরা, এপির কার্যালয় থাকা ভবনটিতে বোমা ছোড়ে ইসরায়েল। দেশটির পক্ষ থেকে বলা হয়, ভবনটিকে সামরিক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা হয়েছে। তবে ভবনমালিক শুরু থেকেই এ অভিযোগ পুরোপুরি নাকচ করে আসছেন।

গত সপ্তাহে আইসিসির প্রধান কৌঁসুলি বলেছিলেন, গাজার শাসক দল হামাস ও সশস্ত্র অন্য সংগঠনগুলোর সঙ্গে ইসরায়েলের সংঘর্ষে ‘বেশ কিছু অপরাধ’ সংঘটন হতে পারে বলে মন্তব্য করেছিলেন আইসিসির প্রধান কৌঁসুলি। তার এ বক্তব্যের রেশ না কাটতেই আইসিসিতে অভিযোগ নিয়ে হাজির হলেন টাওয়ার-মালিক।

অভিযোগ-সংবলিত সে নথির একটি কপি হাতে পেয়েছে এএফপি।

টাওয়ারের মালিকের আইনজীবী গিলস ডেভার্স এক বিবৃতিতে বলেন, ‘ওই ভবনের ফিলিস্তিনি মালিক তার আইনজীবীদের আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগ দেয়ার অনুমোদন দিয়েছেন।’

আদালতের বাইরে ডেভার্স এএফপিকে বলেন, ওই ভবনের হামলার পেছনে কোনো সামরিক উদ্দেশ্য দেখাতে পারেনি ইসরায়েল।

তিনি বলেন, ‘সশস্ত্র প্রতিরোধযোদ্ধাদের একটি দল বা সামরিক সরঞ্জাম থাকায় টাওয়ারটি ধ্বংস করা হতে পারে বলে আমরা অনেকবার শুনেছি। কিন্তু ঘটনা পর্যালোচনা করে আমরা বিষয়টি পুরোপুরি নাকচ করছি।’

আরও পড়ুন:
গাজায় ত্রাণ যাওয়া শুরু
গাজায় কীভাবে সহায়তা যাবে, ব্যাখ্যা দিলেন ফিলিস্তিনি রাষ্ট্রদূত
যুদ্ধবিরতি সত্ত্বেও আল-আকসায় ইসরায়েলের হামলা
গাজায় হামলা: বায়তুল মোকাররমে বিক্ষোভ
জাতিসংঘে ফিলিস্তিন সংকটের স্থায়ী সমাধান চাইল বাংলাদেশ

শেয়ার করুন

মন্তব্য