20201002104319.jpg
অনন্ত জলিলকে তুলোধুনো করছেন তারকারা

অনন্ত জলিলকে তুলোধুনো করছেন তারকারা

ধর্ষণ নিয়ে অনন্ত জলিলের সমালোচিত ভিডিও নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করছেন তারকারা। তাদের মধ্যে অভিনেত্রী ও নির্মাতা মেহের আফরোজ শাওন অনন্ত জলিলকে বয়কট করেছেন।

ধর্ষণ নিয়ে অনন্ত জলিলের সমালোচিত ভিডিও নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করছেন তারকারা। তাদের মধ্যে অভিনেত্রী ও নির্মাতা মেহের আফরোজ শাওন অনন্ত জলিলকে বয়কট করেছেন।

তিনি রোববার বিকেলে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে বলেন,’আমি মেহের আফরোজ শাওন, বাংলাদেশের একজন চলচ্চিত্র ও মিডিয়াকর্মী এবং স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্রের সচেতন নাগরিক হিসাবে বাংলাদেশের নারীদের প্রতি কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য এবং অসংলগ্ন বক্তব্য সম্বলিত ভিডিও বার্তা দেয়ার জন্য জনাব  অনন্ত জলিলকে বয়কট করলাম।‘  

তার এ পোস্টটি সাত ঘণ্টায় ১০০০ এর বেশি শেয়ার হয়েছে। কমেন্টে তার সিদ্ধান্তের সাথে একমত পোষণ করেছেন অনেকেই।

গায়িকা এলিটা করিম অনন্ত জলিলের ভিডিও নিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে জানান, তিনি অনন্তের কথা শুনে খুব হতবাক ও আহত হয়েছেন।

অনন্তকে নিয়ে এলিটা করিমের পোস্টে অনেক তারকাই কমেন্ট করেন। 

আঁখি আলমগীর বলেন, ‘এই মেন্টালিটি থেকে বের হয়ে আসতে হবে। মাদ্রাসার ছেলেটাও কি এরকম কাপড় পরে ছিল?’

অভিনেত্রী সুবর্ণা মোস্তফা বলেন,’এ বিষয় নিয়ে কথা বলা সময়ের অপচয়। দুঃখের বিষয় হলো আমাদের দেশের কিছু “শিক্ষিত” মানুষরাও একি কথা বলছে।‘

নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী বিস্মিত হয়ে বলেন,’কি বলো? তাই???’

অভিনেত্রী নুসরাত ফারিয়া ও শবনম ফারিয়া বিস্মিত হয়ে জানতে চান অনন্ত সত্যিই একথা বলেছেন কিনা।  

রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা বলেন,’এর চেয়ে বেশি আর কি আশা করা যায় তার থেকে? আমরাই তাকে মাথায় তুলে রেখেছি।‘

অপি করিম মিথিলার কথার সঙ্গে সম্মতি জানিয়ে বলেন,’আমি তোমার সঙ্গে একমত।‘

শনিবার রাতে ফেসবুকে এক ভিডিও পোস্ট করেন আলোচিত নায়ক অনন্ত জলিল।

ভিডিওতে ধর্ষণের প্রতিবাদ জানালেও এর জন্য নারীদের পোশাককেই দায়ী করেছেন নায়ক।

তিনি বলেন, ‘সিনেমা, টেলিভিশন, সোশ্যাল মিডিয়াতে অন্য দেশের মেয়েদের অশ্লীল, অশালীন ড্রেসআপ দেখে নিজেরা একই ড্রেসআপ করে ঘোরাফেরা করো। তোমাদের ড্রেসের দিকে তাকিয়ে তোমাদের ফিগার দেখে বখাটে ছেলেরা বিভিন্নভাবে মন্তব্য করে এবং র‌্যাপ (ধর্ষণ) করার চিন্তা তাদের মাথায় আসে।’

বিপুল সমালোচনার মুখে তিনি ভিডিওটি সংশোধন করেন। সমালোচিত অংশ ফেলে দিয়ে নতুন করে একই ভিডিও পোস্ট করে বলেন, ‘গতকালকের ভিডিওতে আমি মূলত মেয়েদেরকে শালীনতা বজায় রাখার জন্য বলতে চেয়েছি। অনেকেই বিষয়টিকে পজিটিভভাবে নিয়েছেন। আবার অনেকেই নেগেটিভভাবে নিয়েছেন।’

‘আমি কোনো বিতর্কে জড়াতে চাই না। তাই আমি উক্ত বিষয়টি কারেকশন করে দিলাম। কেউ ভুল বুঝে থাকলে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন।’

শেয়ার করুন

মন্তব্য