ক্ষমা চাইলেন সাকিব

ক্ষমা চাইলেন সাকিব

আম্পায়ারের সঙ্গে তর্ক করছেন সাকিব। ছবি: ডিপিএল

আম্পায়ারের সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে একবার স্টাম্পে লাথি মারেন সাকিব। এরপর আরেকবার তর্কে জড়িয়ে স্টাম্প তুলে মাটিতে আছাড় মারেন তিনি।

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে (ডিপিএল) আবাহনী লিমিটেড ও মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের মধ্যকার ম্যাচে আম্পায়ারের ওপর মেজাজ হারিয়ে লাথিতে স্টাম্প ভেঙে ফেলার ঘটনায় ক্ষমা চেয়েছেন সাকিব আল হাসান।

ঘটনা মোহামেডানের বেঁধে দেয়া ১৪৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নামা আবাহনী ইনিংসের পঞ্চম ওভারের।

সাকিব বোলিংয়ে আসলে দ্বিতীয় বলে তাকে ছয় মারেন আবাহনী অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম, পরের বলেই চার। শেষ বলে অবশ্য মুশফিককে পরাস্ত করে তার প্যাড আঘাত হেনেছিল সাকিবের বল।

কিন্তু লেগ বিফোরের জন্য সাকিবের জোরালো আবেদনে সাড়া দেননি আম্পায়ার। আর তাতেই সাকিব লাথি মেরে ভেঙে ফেলেন বোলিং প্রান্তের স্টাম্প।

ষষ্ঠ ওভারের পঞ্চম বলের পর বৃষ্টি নামলে আম্পায়াররা সিদ্ধান্ত নেন খেলা বন্ধ করার। কিন্তু তা মানতে চাননি সাকিব। আম্পায়ারের সঙ্গে তর্ক করতে করতে ক্ষোভ দেখিয়ে বোলিং প্রান্তের তিনটি স্টাম্প তুলে মাটিতে ছুড়ে মারেন তিনি। রাগান্বিত ভঙ্গিতে তর্কও করতে থাকেন আম্পায়ারের সঙ্গে।

ম্যাচশেষে নিজের ফেসবুকে অ্যাকাউন্টে বিষয়টির জন্য ক্ষমা চেয়েছেন সাকিব। ম্যাচের মধ্যে মেজাজ হারানোর জন্য ক্ষমা চান তিনি।

‘প্রিয় ভক্ত ও অনুসারীরা, আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিত মেজাজ হারিয়ে সবার জন্য ম্যাচটি নষ্ট করার জন্য, বিশেষ করে তাদের জন্য যারা বাসা থেকে ম্যাচটি দেখছে। আমার মতো একজন অভিজ্ঞ খেলোয়াড়ের এভাবে প্রতিক্রিয়া দেখানো উচিত হয়নি কিন্তু মাঝেমধ্যে দুর্ভাগ্যবশত সব কিছুর বিপরীতে এমন ঘটনা ঘটে যায়। আমি দুই দল, ম্যানেজমেন্ট, টুর্নামেন্টের কর্মকর্তা ও আয়োজক কমিটির কাছে এই মানবিক ভুলের জন্য ক্ষমা চাইছি। ভবিষ্যতে এমনটি আর হবে না। ধন্যবাদ এবং সবাইকে ভালোবাসা,’ লিখেন সাকিব।

সাকিব কোনো শাস্তি পাবেন কি না, সেটি ঠিক করবেন ম্যাচ রেফারি।

আরও পড়ুন:
আম্পায়ারের সঙ্গে তর্ক: লাথিতে স্টাম্প ভাঙলেন সাকিব
সাকিবের বাজে সময় কাটছে না
মোহামেডানকে জেতাতে যেকোনো পজিশনে খেলতে রাজি সাকিব

শেয়ার করুন

মন্তব্য